১৩ আগস্ট ২০২২
`

বেলাবোতে মাসহ দুই সন্তান খুন স্বামী আটক

-

নরসিংদীর বেলাবোতে মাসহ দুই সন্তানকে ধারাল অস্ত্র দিয়ে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়েছে। গত শনিবার গভীর রাতে উপজেলা পাটুলী ইউনিয়নের ভাবলা গ্রামে এ হত্যাকাণ্ড ঘটে। নিহতরা হলো ভাবলা শেখ বাড়ির গিয়াস উদ্দিন শেখের স্ত্রী রহিমা (৩৫) ও তার দুই সন্তান রাব্বি শেখ (১৩) এবং রাকিবা শেখ (১০)। রহিমার স্বামী গিয়াস উদ্দিন শেখকে আটক করেছে পুলিশ। নিহতের পারিবারিক সূত্রে জানা যায় নিহত রহিমার স্বামী গিয়াস উদ্দিন শেখ একজন রঙমিস্ত্রি। কাজের সুবাদে তিনি পাশের গাজীপুর জেলার কাপাসিয়ার আড়ালিয়ায় অবস্থান করেন। পাশের বিলকিস বেগম জানান, নিহত রহিমা বেগম সেলাইয়ের কাজ করায় সকালবেলা আমি কাপড় নিতে রহিমার কাছে এসে দরজা খোলা দেখতে পাই। তাকে ডাক দিয়ে কোনো সারা না পেয়ে ঘরে উঁকি দিয়ে মেঝেতে রহিমার রক্তাক্ত লাশ দেখি। চিৎকার করলে আশপাশের লোকজন ছুটে আসে। পাশের ঘরের দরজা খোলা দেখে সেখানে প্রবেশ করে দুই সন্তানকে মৃত অবস্থায় দেখতে পায়। পরে পুলিশকে খবর দিলে বেলাবো ও নরসিংদী থেকে পুলিশের একাধিক টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। এ দিকে নিহতের স্বামী গিয়াস উদ্দিন শেখ খবর পেয়ে বাড়িতে ছুটে আসে। তিনি জানান, তার চাচাতো ভাই রেনু শেখের সাথে বাড়ির রাস্তা নিয়ে দীর্ঘদিন যাবৎ দ্বন্দ্ব চলে আসছে। এ নিয়ে দুই পরিবারের মধ্যে মাঝে মধ্যে ঝগড়াও হতো। তার সন্দেহ তারাই তার পরিবারকে শেষ করে দিয়েছে। একই অভিযোগ তার ছোট ভাই রিয়াজ উদ্দিন শেখেরও। নিহত রহিমার ভাই মোশারফ জানান তারা সকালে তার বোন, ভাগিনা ও ভাগনীর খুনের কথা শুনে দ্রুত এখানে আসি। আমি এ হত্যার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই। এ ব্যাপারে নরসিংদীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাহেব আলী পাঠান বলেন আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি যত দ্রুত সম্ভব আসামিদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হবে। এ দিকে নরসিংদী পিবিআই টিম নিহতের স্বামী গিয়াস উদ্দিন শেখকে সন্দেহ হলে তাকে আটক করে জিজ্ঞাসা করলে সে হত্যার দায় স্বীকার করে। এ ব্যাপারে নরসিংদী পিবিআই পুলিশ সুপার এনায়েত হোসেন মান্নান জানান নিহতের স্বামী একাই তার স্ত্রী এবং দুই সন্তানকে হতা করেছে বলে আমাদের কাছে স্বীকার করেছে। তার মোবাইল ফোন ট্র্যাকিং করে জানা যায়Ñ ঘটনার দিন সে গাজীপুরে ছিল না এলাকাতেই অবস্থান করছিল। এ দিকে তার দেয়া তথ্য মতে হত্যায় ব্যবহৃত ক্রিকেট ব্যাট ও চাকু উদ্ধার করা হয়েছে।


আরো সংবাদ


premium cement