১৬ মে ২০২২
`
শীতকালীন অধিবেশনে রাষ্ট্রপতি

ওমিক্রন রোধে সরকারকে ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে

-

করোনাভাইরাসের নতুন ধরন ওমিক্রনের সংক্রমণ ঠেকাতে সরকারকে সতর্কতা অবলম্বন এবং প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার পরামর্শ দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো: আবদুল হামিদ। গতকাল রোববার একাদশ জাতীয় সংসদের ২০২২ সালের প্রথম অধিবেশনে দেয়া ভাষণে এ পরামর্শ দেন রাষ্ট্রপতি।
চলমান একাদশ জাতীয় সংসদের ১৬তম ও ২০২২ সালের প্রথম অধিবেশন শুরু হয়েছে গতকাল। রোববার বিকেল ৪টায় জাতীয় সংসদ ভবনের সংসদ কক্ষে এ অধিবেশন শুরু হয়। অধিবেশন আগামী ২৬ জানুয়ারি পর্যন্ত চালানোর প্রাথমিকভাবে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তবে জাতীয় সংসদের স্পিকার চাইলে সময় বাড়াতে পারবেন। এটি সংসদের শীতকালীন অধিবেশন। সংবিধান অনুযায়ী বছরের প্রথম অধিবেশনের শুরুর দিন ভাষণ দেন রাষ্ট্রপতি মো: আবদুল হামিদ।
জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অধিবেশনে সংসদ নেতা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং সরকারি ও বিরোধী দলের সংসদ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। এ দিকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে মহামারীকালের অন্য অধিবেশনের মতো এবারো সীমিতসংখ্যক সংসদ সদস্য অংশ নেবেন।
রাষ্ট্রপতি মো: আবদুল হামিদ গণতন্ত্র, আইনের শাসন এবং উন্নয়নের মতো মৌলিক প্রশ্নে দল, মত, শ্রেণিপশা নির্বিশেষে আপামর জনগণকে সম্মিলিতভাবে কাজ করার জন্য আহ্বান জানিয়েছেন। জনগণই সব ক্ষমতার উৎস এবং তাদের সব প্রত্যাশার কেন্দ্রবিন্দু জাতীয় সংসদ উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘জনপ্রতিনিধি হিসাবে জনস্বার্থকে সবকিছুর ঊর্ধ্বে স্থান দিতে হবে।’ এ সময় তিনি লাখো প্রাণের বিনিময়ে অর্জিত গৌরবোজ্জ্বল মহান স্বাধীনতা সমুন্নত রেখে দেশ থেকে সন্ত্রাস, মাদক, দুর্নীতি ও জঙ্গিবাদ নির্মূলের মাধ্যমে জাতির পিতার স্বপ্নের ‘সোনার বাংলা’ গড়তেও সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানান। তিনি মহান জাতীয় সংসদে যথাযথ ও কার্যকর ভূমিকা পালনের জন্য সরকারি দল ও বিরোধী দলের সব সংসদ সদস্যদের প্রতি আহ্বান জানান।
রাষ্ট্রপতি বলেন, বৈশ্বিক মহামারী করোনা সংক্রমণের কারণে বিগত দু’বছর জনসাধারণের জীবন-জীবিকা হুমকির সম্মুখীন হয়। করোনার কারণে প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর অর্থনৈতিক ঝুঁকি বৃদ্ধির পাশাপাশি বেসরকারি খাতও ক্ষতিগ্রস্ত হয়। প্রধানমন্ত্রীর সাহসী, দূরদর্শী নেতৃত্ব, অনুপ্রেরণা ও সরকারের কার্যকর পদক্ষেপের ফলে বাংলাদেশ এখন পর্যন্ত করোনা এবং এর অভিঘাত সফলভাবে মোকাবেলা করে যাচ্ছে। তবে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন যাতে বাংলাদেশে সংক্রমণ ছড়াতে না পারে সে জন্য সরকারকে সতর্কতা অবলম্বনসহ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। তিনি বলেন, রূপকল্প ২০২১-এর সফল বাস্তবায়ন শেষে রূপকল্প ২০৪১ বাস্তবায়িত হচ্ছে। পানি ব্যবস্থাপনা এবং পরিবেশগত পরিবর্তন বিবেচনা করে প্রণীত বাংলাদেশ ব-দ্বীপ পরিকল্পনা ২১০০-এর আওতায় বাস্তবায়ন কার্যক্রম শুরু হয়েছে। ২০৩১ সালে উচ্চ-মধ্য আয়ের দেশ এবং ২০৪১ সালে উন্নত দেশের কাতারে শামিল হতে চাই আমরা। তিনি বলেন, উন্নত বাংলাদেশ গড়তে চতুর্থ শিল্পবিপ্লবের সুযোগ কাজে লাগাতে হলে জনমিতির সুবিধা পুরোপুরি ব্যবহার করতে হবে। এ জন্য দেশের শিক্ষাব্যবস্থাকে ঢেলে সাজাতে হবে, যাতে নতুন প্রজন্ম দ্রুত পরিবর্তনশীল বিশ্বের সাথে খাপ খাওয়াতে পারে।


আরো সংবাদ


premium cement
দক্ষিণ কোরিয়ায় হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হয়ে ৩ জন হতাহত মিঠাপুকুরে স্লুইস গেট সংস্কারের অভাবে কয়েক হাজার কৃষকের স্বপ্ন পানিতে ভাসছে শিরিনকে স্মরণ রাখতে জমজ সন্তানের বাবার অভিনব উদ্যোগ পিরোজপুরে বাড়িতে ঢুকে বৃদ্ধাকে শ্বাসরোধে হত্যা ম্যাথুজ-বিশ্বর ব্যাটে অস্বস্তিতে বাংলাদেশ কাটছে না ভিসা সঙ্কট : হতাশায় জার্মানগামী বাংলাদেশী শিক্ষার্থীরা যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুক হামলায় কয়েক মাসে প্রাণহানি দুই শতাধিক বাংলাদেশে ফিরতে চান পি কে হালদার আশুলিয়ায় কুকুরের গোশত দিয়ে বিরিয়ানি বিক্রি, আটক ১ রাশিয়ার হামলা ঠেকাতেই নদীর বাঁধ কাটলেন গ্রামবাসী শিগগিরই একটি কার্যকর যুদ্ধের ঘোষণা আসবে : ছাত্রদল সম্পাদক

সকল