১১ মে ২০২১
`

সৌদি কর্তৃপক্ষ অনুমতি দেয়নি : বিমানের স্পেশাল ফ্লাইট বাতিল

-

সৌদি আরবের রিয়াদগামী ফ্লাইটটির ল্যান্ডিংয়ের অনুমতি না নিয়েই বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স কর্তৃপক্ষ বিশেষ ফ্লাইট পরিচালনার শিডিউল ঘোষণা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। যার কারণে নির্ধারিত সময়ের ৬ ঘণ্টা আগেই ঢাকার হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছে ওই ফ্লাইটের ৩১৪ জন যাত্রী ঘণ্টার পর ঘণ্টা চরম ভোগান্তির শিকার হন। তারা ফ্লাইট বাতিলের ঘোষণা শোনার পরই বিক্ষুব্ধ হয়ে উঠেন। পরে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স কর্তৃপক্ষ পরিস্থিতি সামাল দিতে তাদের হোটেলে নেয়ার ব্যবস্থা করেন।
বিমানবন্দরের দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা বলছেন, এই অনাকাক্সিক্ষত ঘটনার জন্য বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের মিস ম্যানেজমেন্টই দায়ী। কেন তারা অ্যাপ্রুভাল ছাড়া শিডিউল ঘোষণা করেছে। এটি তদন্ত করে অবশ্যই সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেয়া উচিত। এসব ঘটনার কারণে রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠান বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সকে দেশে এবং বিদেশে ইমেজ সঙ্কটে পড়তে হচ্ছে বলে মনে করছেন তারা।
গতকাল রিয়াদ ও ঢাকার দায়িত্বশীল সূত্র নয়া দিগন্তকে জানান, রিয়াদগামী বিমানের যে ফ্লাইটটি শনিবার সকাল সোয়া ৬টায় ঢাকার হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ছেড়ে যাওয়ার কথা ছিল, সেই ফ্লাইটের অ্যাপ্রুভাল নিতে পারেননি বিমানের রিয়াদ স্টেশনের কান্ট্রি ম্যানেজার। তবে কান্ট্রি ম্যানেজার বিশেষ এক্সট্রা ফ্লাইট পরিচালনার অনুমোদন নেয়ার জন্য সৌদি সিভিল অ্যাভিয়েশন সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করেছিলেন। কিন্তু শুক্রবার রাত ২টা পর্যন্ত ওই ফ্লাইট অপারেট (ল্যান্ডিং) করার অনুমোদন তিনি নিতে পারেননি। দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা প্রশ্নের উত্তরে নাম না প্রকাশ করার শর্তে জানান, সৌদি আরবে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের যতগুলো শিডিউল ফ্লাইট যাচ্ছে প্রতিদিন সবগুলোই বিজি ৪০৩৫/৪০৩৬/৪০৩৯ সিরিয়াল নামের ফ্লাইট। বিশেষ ফ্লাইট নামেই যাওয়া আসা করলেও গতকাল শনিবার সকালের ফ্লাইটটি ছিল বিশেষ এক্সট্রা ফ্লাইট। এটির সিরিয়াল কোড নাম্বার ছিল বিজি-৫০৩৯। এই রুটে ৫০৩৯ নম্বর সিরিয়াল দিয়ে কখনো ফ্লাইট চলেনি। তাদের মতে, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স কর্তৃপক্ষের মিসম্যানেজমেন্টর কারণে প্রথম দিনের বিশেষ ফ্লাইটে হ-য-ব-র-ল অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। তারা এও বলছেন, বিশেষ ফ্লাইটের তারিখ রোববার অথবা সোমবার নির্ধারণ করা হলে আর কোনো সমস্যা হতো না। কারণ সৌদি আরবে শুক্রবার সরকারিভাবে অফিস বন্ধ থাকে। তা ছাড়া সৌদি আরবে নতুন ফ্লাইট অপারেট (ল্যান্ডিং) করার অনুমোদনটা আসে অস্ট্রেলিয়া থেকে। তাদের সাথে এ নিয়ে সৌদি আরবের চুক্তি আছে বলে যতদুর জানি।
গতকাল শনিবার বিকেলে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. আবু সালেহ মোস্তফা কামালের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি ফ্লাইট বাতিল হওয়া প্রসঙ্গে নয়া দিগন্তকে বলেন, এ ঘটনায় কারো কোনো গাফিলতি ছিল না। আমরা জেদ্দায়ও অনুমতি পেয়েছিলাম। স্পেশাল ফ্লাইট হিসেবে শিডিউলও নিয়েছিলাম। তো জেদ্দাটা কনটিনিউ করা ছিল। আমাদের শুধু রিয়াদটাকে ক্যানসেল করা হয়েছিল। আমরা পরবর্তীতে শিডিউল চেয়েছিলাম। ছুটি ছিল শুক্রবারে। আজকে অফিস খোলার পরে সেগুলো আবার অনুমতি দিয়ে দিয়েছে। এখানে কারো কোনোদিককার গাফিলতি ছিল না। এর আগে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর পরিচালক গ্রুপ ক্যাপ্টেন তৌহিদ উল আহসান সাংবাদিকদের জানান, ল্যান্ডিং অনুমতি না পাওয়ায় বিমানের ৫টিসহ মোট ৭টি ফ্লাইট বাতিল করা হয়েছে।
বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের গতকাল সকালের ফ্লাইট না ছাড়ার অভিযাগে সৌদিগামী প্রবাসীরা রোববার রাত ২টা থেকে পরদিন বেলা ১টা পর্যন্ত বিমানবন্দরের বাইরে বিক্ষোভ করেন এবং বিমানের বিরুদ্ধে নানা সেøাগান দেন।
চট্টগ্রামে বিশেষ ফ্লাইট বাতিল করায় প্রবাসীদের বিক্ষোভ
চট্টগ্রাম ব্যুরো জানায়, লকডাউনে আটকে পড়াদের ফেরত পাঠাতে নির্ধারিত ১৪টি ফ্লাইটের অর্ধেকই বাতিল করার খবরে বিক্ষোভ করেছেন চট্টগ্রামের প্রবাসীরা। গতকাল শনিবার সকাল থেকে নগরের ষোলশহর ২ নম্বর গেট এলাকায় বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নিয়ে তারা ফ্লাইট চালুর দাবি জানান।
প্রবাসী যাত্রীদের অভিযোগ, তাদের অনেকে সৌদি আরব, কাতার ও ওমানে অভিবাসী শ্রমিক হিসেবে কর্মরত আছেন। বিদেশে ফিরতে তারা টিকিট কেটে রেখেছিলেন। এর মধ্যে ভিসার মেয়াদও শেষ হয়ে আসছে। লকডাউনের মধ্যে দ্বিগুণ ভাড়া দিয়ে গ্রাম থেকে এসে এখন শুনছেনÑ ফ্লাইট বাতিল। তারা বলেন, বিমান অফিসে এসে ফ্লাইট বাতিলের খবর পাই। অথচ আগে থেকে এ খবর জানানো হলে এমন সমস্যায় পড়তাম না। নির্দিষ্ট সময়ে কর্মস্থলে যেতে পারব কি না, সেটা নিয়ে চিন্তায় আছি। ভিসার মেয়াদ আছে আর মাত্র তিন দিন। এর আগে লকডাউনে আটকেপড়া প্রবাসীদের ফেরত পাঠাতে শনিবার সকাল থেকে বিশেষ ফ্লাইট পরিচালনার কথা জানায় বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স। সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত, ওমান, কাতার ও সিঙ্গাপুরে এসব ফ্লাইট চলাচলের কথা ছিল। এর মধ্যে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের পাঁচটি ফ্লাইট রয়েছে।



আরো সংবাদ


খালেদা জিয়ার ভুয়া করোনা রিপোর্ট ছড়ানোর অভিযোগ (১১৫৪৫)‘কোয়াডে বাংলাদেশ যোগ দিলে ঢাকা-বেইজিং সম্পর্ক খারাপ হবে’ (৯৯৮০)হামাসের কমান্ডার নিহত (৭৩২৫)যেভাবে সুয়েজ খাল কেড়ে নেয়ার চেষ্টা করেছিল ব্রিটেন ও ফ্রান্স (৬০৫৪)বাবার লাশ দেখতে মাওয়া ঘাটে মিনি ট্রাকে অপেক্ষায় ১০ যাত্রী (৫৪৯৪)৫ বছর আগেই করোনাকে অস্ত্র হিসেবে ব্যবহারের পরিকল্পনা করেছিল চীন! (৫২৮৯)যমুনায় লাশের মিছিল, করোনায় মৃতদের ভাসিয়ে দেয়ার অভিযোগ উত্তরপ্রদেশে (৫২২০)খালেদা জিয়ার আসল জন্মদিনের তথ্য প্রকাশ পেল : ওবায়দুল কাদের (৪৬০০)বাংলাদেশসহ ৪ দেশ থেকে আমিরাতে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা (৪৫৭৫)জেরুসালেমে অব্যাহত সহিংসতা, বৈঠকে বসছে জাতিসঙ্ঘ নিরাপত্তা পরিষদ (৪৩৯০)