১৩ মে ২০২১
`

দক্ষিণ এশিয়াতেই আক্রান্ত দেড় কোটির বেশি

-

করোনা সংক্রমণের দুঃখজনক এক মাইলফলক পেরলো দক্ষিণ এশিয়া। গতকাল শনিবার এ অঞ্চলের দেশগুলোতে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা দেড় কোটি ছাড়িয়েছে। ঊর্ধ্বমুখী এই সংক্রমণের ক্ষেত্রে নেতৃত্ব দিচ্ছে ভারত। রয়টার্সের হিসেব অনুযায়ী বিশ্বের মোট করোনায় আক্রান্তের ১১ শতাংশ এবং মোট মৃত্যুর ৬ শতাংশ রেকর্ড করা হয়েছে দক্ষিণ এশিয়ার সাত দেশে। দেশগুলো হলো- ভারত, বাংলাদেশ, পাকিস্তান, ভুটান, নেপাল, মালদ্বীপ ও শ্রীলঙ্কা। বিশ্বের মোট ৭৫৯ কোটি জনসংখ্যার ২৩ শতাংশের বাস দক্ষিণ এশিয়ার এই সাত দেশে।
দক্ষিণ এশিয়ায় করোনার সংক্রমণ ও মৃত্যুতে শীর্ষে রয়েছে ভারত। বিশ্বে সবচেয়ে বেশি করোনা রোগীর ক্ষেত্রে তৃতীয় স্থানে রয়েছে ভারত। দক্ষিণ এশিয়ার মোট করোনায় আক্রান্ত ও মৃত্যুর ৮৪ শতাংশই ভারতের বাসিন্দা। এ দিকে দক্ষিণ এশিয়ায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশের মধ্যে দ্বিতীয় স্থানে থাকা পাকিস্তানে সাত লাখের বেশি রোগী শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে ১৫ হাজার মৃত্যু হয়েছে। ভারতের আরেক প্রতিবেশী বাংলাদেশেও বেশ কিছুদিন ধরে রেকর্ড করোনা রোগী শনাক্ত হচ্ছে। শনাক্ত ছাড়িয়েছে সাত হাজারের কোটা। এ ছাড়া রেকর্ড সর্বাধিক মৃত্যু হচ্ছে করোনায়। এখন পর্যন্ত দেশে ছয় লাখ ৭৮ হাজার ৯৩৭ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। মোট প্রাণহানি হয়েছে ৯ হাজার ৬৬১ জনের। দক্ষিণ এশিয়ার সব দেশেই করোনার টিকাদান কর্মসূচি চলমান থাকলেও এখনো ভারত, পাকিস্তান ও বাংলাদেশে রেকর্ড সংক্রমণ ও মৃত্যু হচ্ছে করোনায়। ফলে দেশগুলোতে আবারো লকডাউন, কারফিউর মতো বিধিনিষেধ পুনরায় ফিরে আসছে।
মার্কিন হাসপাতালগুলোতে বাড়ছে তরুণ রোগী : যুক্তরাষ্ট্রের হাসপাতালগুলোতে বাড়ছে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত অপেক্ষাকৃত কম বয়সীদের সংখ্যা। গত শুক্রবার হোয়াইট হাউজের এক ভার্চুয়াল ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান দেশটির রোগ নিয়ন্ত্রণ কেন্দ্রের (সিডিসি) পরিচালক ড. ওয়ালেনস্কি। তিনি বলেন, কম বয়সীদের ভ্যাকসিন না দেয়ায় হাসপাতালে তাদের ভর্তির সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে। গত এক সপ্তাহে তরুণদের আক্রান্তের হার সাত শতাংশ বেড়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিবেশী দেশ কানাডাতেও হাসপাতালগুলোতে কম বয়সী করোনা রোগীদের সংখ্যা বাড়ছে। এ দিকে করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষায় ১২ বছর বয়স থেকেই ফাইজার ভ্যাকসিন ব্যবহারের অনুমোদন চাওয়া হয়েছে। গত শুক্রবার ফাইজার এবং তাদের জার্মান অংশীদার বায়োএনটেকের পক্ষ থেকে যুক্তরাষ্ট্রের খাদ্য ও ওষুধ প্রশাসনের (এফডিএ) কাছে এ অনুমোদন চাওয়া হয়। বর্তমানে ১৬ বছরের বেশি বয়সীরা ফাইজারের টিকা গ্রহণের জন্য উপযুক্ত হিসেবে বিবেচিত হন। ফাইজারের নতুন এ আবেদন অনুমোদন পেলে আসন্ন শরতে স্কুলে ফেরার আগেই ভ্যাকসিন নেয়ার সুযোগ পাবে শিশুরা। ফাইজার জানায়, এর আগে ১৬ থেকে ২৫ বছর বয়সীদের ওপর চালানো পরীক্ষায় টিকা নেয়ার পর যে পরিমাণ অ্যান্টিবডি তৈরি হতে দেখা গেছে ১২ থেকে ১৫ বছর বয়সীদের ক্ষেত্রে তার পরিমাণ আরো বেশি।
ভারতে আবারো রেকর্ড শনাক্ত : ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ডসংখ্যক মানুষ করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছেন। গত শুক্রবার দেশটিতে নতুন করে এক লাখ ৪৫ হাজার ৩৮৪ জন ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হন। মহামারীর শুরু থেকে এখন পর্যন্ত এক দিনে এত করোনা রোগী শনাক্ত হয়নি ভারতে। শনিবার পর্যন্ত দেশটিতে মোট আক্রান্ত মানুষের সংখ্যা এক কোটি ৩২ লাখ ৫০ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। এ অবস্থায় সংক্রমণ ঠেকাতে দেশটির অনেক রাজ্যে আবারো সন্ধ্যাকালীন কারফিউ ও কড়াকড়ি আরোপ করা হয়েছে। করোনা সংক্রমণ রোধে ভারতজুড়ে এখন পর্যন্ত ৯ কোটির বেশি মানুষকে টিকা দেয়া হয়েছে। যদিও দেশটির অনেক রাজ্য দাবি করেছে, সরকারের সরবরাহকৃত টিকার সঙ্কটে পড়েছে তারা।
ব্রিটেনকে ফের সতর্ক করল ডাব্লিউএইচও : গত শুক্রবার ব্রিটেন জানিয়েছিল, দেশজুড়ে দ্রুত গতিতে টিকাকরণের জোরে আগের থেকে অনেকটা ‘সুস্থ’ হয়ে উঠেছে তারা। সংক্রমণ কমছে। হাসপাতালে রোগী ভর্তি কমছে। মৃত্যুও কম। তবে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডাব্লিউএইচও) এক বিশেষজ্ঞ জানিয়েছেন, বিপদ এখনো কাটেনি। ফের আছড়ে পড়তে পারে সংক্রমণ ঢেউ। সংস্থাটির ইউরোপ শাখার শীর্ষস্থানীয় বিশেষজ্ঞ ক্যাথরিন স্মলউড সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, এখনো যে পরিমাণ সংক্রমণ হচ্ছে, সেটা ভয়ের। ফলে এখনো বিপদসীমাতেই রয়েছে ব্রিটেন। আর একটা ঢেউ এলে সামলাতে পারবে না দেশটি। স্মলউড আরো বলেন, ভাইরাস শক্তি বাড়িয়ে ভয়ঙ্কর হয়ে উঠেছে। নতুন স্ট্রেনের সংক্রমণ ক্ষমতা ও মারণ ক্ষমতা, দুই-ই বেশি। ফলে এখনই নিজেদের সাফল্যে ব্রিটেনের খুশি হওয়ার মতো কিছু হয়নি।
৬০ বছরের কম বয়সীদের জন্য পর্তুগালে অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা স্থগিত : ৬০ বছরের কম বয়সীদের জন্য অক্সফোর্ডের অ্যাস্ট্রাজেনেকা টিকা স্থগিত করেছে পর্তুগাল। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পরিচালক গ্রাসা ফ্রেইতাস বলেছেন, অ্যাস্ট্রাজেনেকার ভ্যাকসিন সম্পর্কে সম্পূর্ণ তথ্য না পাওয়া পর্যন্ত আমরা ৬০ বছর বয়সের নিচের ব্যক্তিদের জন্য টিকাটি স্থগিত রাখছি। আমরা ভ্যাকসিন কার্যক্রম এমনভাবে সাজিয়েছি যাতে সবাইকে ভ্যাকসিন প্রদান করা যায় এবং যারা ইতোমধ্যে এর প্রথম ডোজ নিয়েছেন, তাদের আতঙ্কিত না হওয়ার জন্য পরামর্শ দিয়েছি।
ভ্যাকসিন নিয়ে বিভাজনের সমালোচনায় বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা : করোনা থেকে বাঁচতে এখন একমাত্র উপায় হিসেবে দেখা হচ্ছে ভ্যাকসিনকে। নিজ দেশের নাগরিকদের নিরাপদ রাখতে ভ্যাকসিন সরবরাহে তোড়জোড় শুরু করেছে বিভিন্ন দেশ। এ ক্ষেত্রে এগিয়ে আছে ধনী দেশগুলো। আর দরিদ্র দেশগুলো অনেকটা পিছিয়েই আছে। ধনী ও দরিদ্র দেশগুলোর মধ্যে ভ্যাকসিন বিতরণে বিভাজন দেখা দিয়েছে। এই ভারসাম্যহীন অবস্থাকে ‘বেদনাদায়ক’ বলে উল্লেখ করেছে সংস্থাটি। গত শুক্রবার এক সংবাদ সম্মেলনে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরিচালক তেদ্রোস আধানম ঘেব্রিয়েসুস বলেন, ভ্যাকসিন বিতরণে বিশ্বজুড়ে ভয়াবহ ভারসাম্যহীনতা লক্ষ্য করা যাচ্ছে।
এখন পর্যন্ত বিশ্বের ১০০ দেশে প্রায় চার কোটি ভ্যাকসিনের ডোজ সরবরাহ করা হয়েছে। এ ক্ষেত্রে উচ্চ আয়ের দেশগুলোতে গড়ে প্রায় চারজনের মধ্যে একজন ভ্যাকসিন গ্রহণ পাচ্ছে। অপর দিকে দরিদ্র দেশগুলোতে ৫০০ জনের বেশি মানুষের মধ্যে একজন ভ্যাকসিন পাচ্ছে। এ থেকেই চরম বৈষম্য স্পষ্ট হয়ে উঠছে।
বছরে ৩০০ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন উৎপাদন করতে চায় চীন : চীন ২০২১ সালের শেষে ৩০০ কোটি ডোজ করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন উৎপাদন করতে সক্ষম হবে। গতকাল শনিবার দেশটির ন্যাশনাল হেলথ কমিশনের এক কর্মকর্তা এই তথ্য জানিয়েছেন। চীনের ভ্যাকসিন উদ্ভাবন প্রকল্পের সমন্বয় টিমের প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করা জেং জোওয়েই বলেছেন, এ বছরের দ্বিতীয়ার্ধে চাহিদা মেটানোর সম্পূর্ণ সামর্থ্য আমাদের রয়েছে। চীনা সরকার সম্প্রতি জানিয়েছে, ফেব্রুয়ারির ১ তারিখ থেকে মার্চের শেষ পর্যন্ত প্রতিদিন ৫০ লাখ ডোজ উৎপাদন হয়েছে।
ভারতে টিকা নিয়েও ১৮০ জনের মৃত্যু : করোনার টিকা নেয়ার পরও ভারতে মহামারী এই ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়ে ১৮০ জন মারা গেছেন। গত ৩১ মার্চ পর্যন্ত এ হিসাব জানিয়েছে দেশটির ন্যাশনাল অ্যাডভার্স ইভেন্ট ফলোয়িং ইমিউনাইজেশন বা এনইএফআই। সংস্থাটির রিপোর্ট অনুযায়ী টিকা নিয়ে গত ৩১ মার্চ পর্যন্ত যে ১৮০ জনের মৃত্যু হয়েছে, তাদের মধ্যে ৭৫ শতাংশেরই মৃত্যু হয়েছে টিকা নেয়ার তিন দিনের মধ্যে। এর ফলে শুরু থেকেই টিকা নেয়ার পরের তিন দিনকে বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছেন চিকিৎসক ও গবেষকরা।
জনসনের টিকায় রক্ত জমাট বাঁধা নিয়ে পর্যালোচনা : জনসন অ্যান্ড জনসনের তৈরি করোনার টিকা ব্যবহারে কিছু মানুষের শরীরে রক্ত জমাট বেঁধে যাওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসব ঘটনা পর্যালোচনা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইউরোপের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা ইউরোপিয়ান মেডিসিনস এজেন্সি। গত শুক্রবার সংস্থাটি এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। এ দিকে জনসন অ্যান্ড জনসন বলছে, কোভিড-১৯ টিকা দেয়ার পর রক্ত জমাট বেঁধে যাওয়ার কিছু ব্যতিক্রমধর্মী ঘটনা সম্পর্কে তারা অবগত। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় তথ্য ও উপাত্ত সংগ্রহ করা হচ্ছে এবং সেগুলো ইউরোপের নিয়ন্ত্রক সংস্থাকে দেয়া হবে। এ লক্ষ্যে ইউরোপিয়ান মেডিসিনস এজেন্সির সাথে একযোগে কাজ করছে জনসন অ্যান্ড জনসন।
ভারতে কোভিড হাসপাতালে আগুনে ৪ জনের মৃত্যু : ভারতের মহারাষ্ট্র রাজ্যের নাগপুরে একটি হাসপাতালে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। ওই হাসপাতালে কোভিড-১৯ রোগের চিকিৎসা দেয়া হতো। গত শুক্রবার রাতের এ অগ্নিকাণ্ডে চার ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। আইসিইউর শীতাতপ নিয়ন্ত্রণ যন্ত্র থেকে এ অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত হয়।



আরো সংবাদ


ধামরাইয়ে কোসটাল ওয়েলফেয়ারের উদ্যোগে ঈদ সামগ্রী বিতরণ এখনো মূল ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবহার করিনি : হামাস ইসরাইলি আরবরা নিজ দেশে যেভাবে বৈষম্যের শিকার ইসরাইলের পক্ষে দাঁড়াল ভারত, জাতিসঙ্ঘে ফিলিস্তিনের ‘বিশেষ নিন্দা’ কোভিডে একের পর এক অধ্যাপকের মৃত্যু, আলিগড় মুসলিম বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরে আতঙ্ক কোম্পানীগঞ্জে বাদলের অনুসারীদের লক্ষ্য করে মির্জা অনুসারীদের গুলি, পালাতে গিয়ে আহত ৫ হাজারতম ম্যাচে হারলেন সেরেনা নিখোঁজ অমিত শাহ’র খোঁজে দিল্লি পুলিশের কাছে মিসিং ডায়েরি মাগুরায় ২ মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে নিহত ২, আহত ১ বাউফলে গভীর নলকূপ স্থাপন ও দুস্থদের মাঝে ঈদ সামগ্রী বিতরণ করলেন ড. মাসুদ ইসরাইলি সন্ত্রাস বন্ধে পদক্ষেপ নিতে বিশ্ব সম্প্রদায়ের প্রতি বাবুনগরীর আহ্বান

সকল