০৪ এপ্রিল ২০২০

উদ্যোক্তাদের ব্যাংকের মালিকানা ছাড়তে হবে

-

দেশের বেসরকারি খাতের ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের উদ্যোক্তাদের মালিকানা পাবলিকের হাতে ছেড়ে দিতে হবে। এটি করা গেলে ব্যাংকিং খাতে অনিয়ম দুর্নীতি ও লুটপাট বন্ধ হবে। ব্যাংকগুলোকে ব্যবসার জায়গা হিসেবে না ভেবে জনগণের আমানতের সুরক্ষাও দেয়া অতি জরুরি।
গতকাল সোমবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে বাম গণতান্ত্রিক জোট আয়োজিত ‘ব্যাংকিং ও আর্থিক খাতে অনিয়ম, দুর্নীতি, লুটপাট উত্তরণের পথ’ শীর্ষক আলোচনায় বক্তারা এসব কথা বলেন। বাংলা নিউজ।
ক্রেডিট রেটিং কোম্পানি ক্রিসেলের প্রেসিডেন্ট ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোজাফফর আহমেদ বলেন, যারা ব্যাংক প্রতিষ্ঠা করেন তারা ধীরে ধীরে মালিকানা থেকে সরে যান, পাবলিক মালিক হয়ে যায়। কিন্তু আমাদের দেশে তার উল্টো। তারা তো সারাজীবন ব্যাংকের নিয়ন্ত্রণ করতে পারেন না।
বেসরকারি ব্যাংকগুলোর সর্বময় ক্ষমতা চেয়ারম্যানের হাতে। এমডিসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের হাতে কোনো ক্ষমতা নেই। করপোরেট গভর্নেন্স একদম নাই। আর তা হচ্ছে না মালিকদের সদিচ্ছার অভাবে। তিনি বলেন, ব্যাংকের মোট টাকার মধ্যে পরিচালকদের হচ্ছে মাত্র ৫ শতাংশ। আর আমানতকারীদের হচ্ছে ৯৫ শতাংশ কিন্তু সব সুবিধা নিচ্ছে ও কর্তৃত্ব করছে ওই ৫ শতাংশ-মালিক পরিচালকেরা। তারা গোটা ব্যাংকের মালিক সেজে বসে আছেন। এটা কোনোভাবে গণতান্ত্রিক হতে পারে না, এটা মানা যায় না। এই বিষয়ে রাজনীতিকদেরই বেশি দায়িত্ব নিতে হবে। ব্যাংক ব্যবস্থাপনায় ব্যয় কমাতে হবে।
অধ্যাপক ড. এম এম আকাশ বলেন, এভাবে চলতে থাকলে আগামী তিন বছরের মধ্যে ব্যাংকগুলোর লোনেবল ফান্ড ক্রাইসিস সৃষ্টি হবে। আমরা দেখছি প্রাইভেট সেক্টর মুনাফা করলে নিজের আর লোকসান করলে সরকারের। ফারমার্স ব্যাংক তার অন্যতম উদাহরণ। এভাবে চলতে পারে না। দেশের ৪ শতাংশ ইচ্ছাকৃত খেলাপি, ৯৬ শতাংশ অনিচ্ছাকৃত খেলাপি। তিনি বলেন, বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিদর্শন বিভাগের কর্মকর্তারা বিভিন্ন ব্যাংক পরিদর্শনে গিয়ে ছোটখাটো ঋণ খেলাপি পেলে সাথে সাথে লিখে দেন। আর বড় বড় খেলাপিদের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে ভয় পান। পরিদর্শন কর্মকর্তা প্রথমে তার বিভাগীয় প্রধানকে অবগত করেন। আবার এমনো হয় পরিদর্শনে যাওয়ার আগের রাতে ওই কর্মকর্তাকে ফোনে অবগত করা হয়। কিভাবে খেলাপিদের কাছ থেকে টাকা আদায় হবে?
বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম বলেন, ব্যাংক ব্যবসা এখন খুবই লাভজনক। তার চেয়ে বেশি লাভজনক হচ্ছে এমপিগিরি ও রাজনৈতিক ব্যবসা! বাজার অর্থনীতি রাজনীতিকে বাজারনীতিতে পরিণত করেছে। দেশের বেশির ভাগ মানুষের অর্থনীতি ভালো আছে এ রকম মিথ্যা তথ্য যারা প্রচার করছে, তাদের সাজা হওয়া দরকার।
বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক ডেপুটি গভর্নর খোন্দকার ইব্রাহিম খালেদ বলেন, সরকার লুটপাটকারীদের ৯ শতাংশ সুদে ঋণ দিতে আমানতকারীদের সুদের হার কমিয়েছে। দেশে যে উন্নয়ন হয় তার সুফল ভোগ করে ৫ শতাংশ ধনী, সাধারণ জনগণের জন্য কোনো উন্নয়ন হয় না।
বাংলাদেশে ধনী বৃদ্ধির হার সবচেয়ে বেশি ১৯ শতাংশ, যা বিশ্বে সর্বোচ্চ। ধনী বাড়ার হার বাড়লে গরিব বাড়ার হারও বাড়ে। অর্থনীতি আয়বৈষম্য এত বেশি, যা এশিয়ার অনেক দেশ এর ধারে-কাছেও নেই।
অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ বলেন, দুর্নীতিবাজ ব্যাংক কর্মকর্তা, লুটেরা ব্যবসায়ী এবং দুর্নীতিগ্রস্ত রাজনৈতিক নেতৃত্ব এই তিনের মেলবন্ধনেই খেলাপিঋণের নষ্ট সংস্কৃতির ভিত্তি রচনা করেছে। এখন দেশের উন্নয়নের নীতিই হচ্ছে লুটপাট।
অধ্যাপক রাশেদ আল মাহমুদ তিতুমীর বলেন, আর্থিক খাতের টালমাটাল অবস্থায়ও কেন নতুন ব্যাংক হচ্ছে? কারণ ব্যাংকে যে পরিমাণ লাভ হয় অন্য কোনো খাতে এই পরিমাণ লাভ হয় না। গড় হিসেবে ব্যাংক খাতের লাভ ২০০ থেকে ৩০০ শতাংশ পর্যন্ত। সরকার ক্রেতা সেজে লুটপাটকারীদের রক্ষা করে চলছে। এই নীতি চলতে থাকলে এই অরাজকতা থেকে আর্থিক খাতকে রক্ষা করা যাবে না।
বাম জোটের সমন্বয়ক ও আলোচনা সভার সভাপতি বজলুর রশীদ ফিরোজ বলেন, পুঁজিবাদী অর্থনৈতিক ব্যবস্থায় সঙ্কট লুটপাটের রাষ্ট্রশাসন ব্যবস্থা থেকেই উৎসারিত। ফলে আর্থিক খাতের সঙ্কট কাটাতে হলে রাষ্ট্রের শাসন ও প্রশাসন ব্যবস্থা পাল্টাতে হবে। আলোচনা শেষে তিনি ব্যাংক ও আর্থিক খাতে অনিয়ম, দুর্নীতি, লুটপাট বন্ধের দাবিতে আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশ ব্যাংক ঘেরাও কর্মসূচি ঘোষণা করেন। ওই দিন বেলা ১১টায় জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে জমায়েত শেষে বাংলাদেশ ব্যাংক অভিমুখে ঘেরাও মিছিল করবে বাম গণতান্ত্রিক জোট।

 


আরো সংবাদ

আত্মহত্যার আগে মায়ের কাছে স্কুলছাত্রীর আবেগঘন চিঠি (১৩৫৩০)সিসিকের খাদ্য ফান্ডে খালেদা জিয়ার অনুদান (১২৬০৬)করোনা নিয়ে উদ্বিগ্ন খালেদা জিয়া, শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল (৯৩১৫)ভারতে তাবলিগিদের 'মানবতার শত্রু ' অভিহিত করে জাতীয় নিরাপত্তা আইন প্রয়োগ (৮৪৯০)করোনায় নিশ্চিহ্ন হয়ে গেল ইতালির একটি পরিবার (৭৮৬৪)করোনার মধ্যেও ইরান-যুক্তরাষ্ট্র আরেক যুদ্ধ (৭১৪০)করোনায় আটকে গেছে সাড়ে চার লাখ শিক্ষকের বেতন (৬৯৩১)ইসরাইলে গোঁড়া ইহুদির শহরে সবচেয়ে বেশি করোনার সংক্রমণ (৬৮৯০)ঢাকায় টিভি সাংবাদিক আক্রান্ত, একই চ্যানেলের ৪৭ জন কোয়ারান্টাইনে (৬৭৬১)করোনাভাইরাস ভয় : ইতালিতে প্রেমিকাকে হত্যা করল প্রেমিক (৬২৯৬)