১৩ জুন ২০২১
`

গভীর রাতে বেরোবি ভিসি কলিমউল্লাহর ক্লাস নিয়ে ব্যাপক আলোচনা

রাত ৩টায় ক্লাস শুরু করেন বেরোবি ভিসি নাজমুল আহসান কলিমউল্লাহ। - ছবি : সংগৃহীত

গভীর রাতে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের (বেরোবি) ভিসি নাজমুল আহসান কলিমউল্লাহর একটি ক্লাস করানো নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে বেশ আলোচনা-সমালোচনা চলছে।

বুধবার রাত ৩টার থেকে জেন্ডার অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের একটি শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থীদের ক্লাস নিয়েছেন তিনি।

এ ক্লাসে অংশ নেয়া এক শিক্ষার্থী নাম প্রকাশ না করার শর্তে একটি গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষে জেন্ডার অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের ১২তম ব্যাচের শিক্ষার্থীদের ‘পলিটিক্যাল থট’ কোর্সের ক্লাস নেন কলিমউল্লাহ। বুধবার দিবাগত রাত তিনটায় দিকে ক্লাসটি শুরু হয়। শেষ হয় রাত ৩টা ৫৫ মিনিটে।

এই ক্লাসে অংশ নেয়া আরেক শিক্ষার্থী বলেন, ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষের প্রথম বর্ষের দ্বিতীয় সেমিস্টারের শিক্ষার্থীদের ক্লাস ছিল এটি। ক্লাস নেবেন বলে স্যার আগে থেকেই জানিয়ে রেখেছিলেন। স্যারের নির্দেশ মতো আমরা ২৮ শিক্ষার্থী এই অনলাইন ক্লাসে অংশ নিই। প্রায় এক ঘণ্টা ক্লাস চলে। তবে গভীর রাতে ক্লাস হওয়ায় অনেকেই থাকতে পারেননি। তবে শেষ পর্যন্ত কতজন ছিলেন, তা জানি না।’

বেরোবির শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের সংগঠন ‘অধিকার সুরক্ষা পরিষদে’র আহ্বায়ক ও ম্যানেজমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক ড. মতিউর রহমান বলেন, ‘এটি কোনো সুস্থ মানুষের কাজ হতে পারে না। তার (নাজমুল আহসান কলিমউল্লাহ) আসলে মানসিক চিকিৎসা প্রয়োজন। যারা তার কাছের লোকজন রয়েছেন তাদের উচিত অধ্যাপক কলিমউল্লাহর মানসিক চিকিৎসার ব্যবস্থা করা।’

তিনি আরো বলেন, ড. নাজমুল আহসান কলিমউল্লাহ গত ৩১ মে ভিসি হিসেবে তার মেয়াদ শেষ করেছেন। তিনি কীভাবে শিক্ষার্থীদের ক্লাস নেন?

এ ব্যাপারে অধ্যাপক ড. নাজমুল আহসান কলিমউল্লাহর কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

এর আগেও মধ্যরাতে ক্লাস নেয়া এবং অর্ধশতাধিক কোর্স পরিচালনা করা নিয়ে বিতর্ক সৃষ্টি করেছিলেন অধ্যাপক ড. নাজমুল আহসান কলিমউল্লাহ। অভিযোগ উঠেছিল- একাধিক বিভাগ মিলিয়ে একসাথে ক্লাস নেয়া, নিজে অনুপস্থিত থেকে কর্মচারী দিয়ে পরীক্ষা নেয়াসহ খাতা মূল্যায়নেরও। পরে গণমাধ্যমে এসব খবর ছড়িয়ে পড়লে বন্ধ হয়ে যায় এসব কোর্সের ক্লাস।

এদিকে বেরোবির নতুন ভিসি হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যানেজমেন্ট ইনফরমেশন সিস্টেম বিভাগের অধ্যাপক এবং বেরোবির ট্রেজারার ড. হাসিবুর রশীদ।

বুধবার (০৯ জুন) শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে প্রজ্ঞাপন জারির মাধ্যমে অধ্যাপক ড. হাসিবুর রশীদকে চার বছরের জন্য ভিসি হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, এ নিয়োগ আগামী ১৪ জুন ২০২১ থেকে কার্যকর হবে। তবে মহামান্য রাষ্ট্রপতি প্রয়োজনে যেকোনো সময় নিয়োগ বাতিল করতে পারবেন।



আরো সংবাদ


সংসদ সচিবালয় কোয়ার্টারে ছাত্রলীগ নেত্রীর ঝুলন্ত লাশ মাঠে মুখ থুবড়ে পড়লেন এরিকসেন, পরিত্যক্ত ডেনমার্ক-ফিনল্যান্ড ম্যাচ জয় দেখছে নিউজিল্যান্ড বিশ্বের সেরা বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে তুরস্কের ২১ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান পাবনার গণপূর্ত কার্যালয়ে আ’লীগ নেতাদের শটগান মহড়া ইসরাইলি ড্রোন তৈরির সরঞ্জাম সরবরাহকারী বিট্রিশ ফ্যাক্টরি দখলে নিয়েছে ফিলিস্তিনিরা মান্দায় আম পাড়তে গিয়ে ইউপি সদস্যের মৃত্যু তিন দিনেই ইনিংস হারলো ওয়েস্ট ইন্ডিজ ২০৩০ সালের ফিফা ওয়ার্ল্ড কাপ আয়োজনের পরিকল্পনা করছে সৌদি মাদারীপুরে শাজাহান খান ও আ’লীগ সভাপতি সমর্থকদের সংঘর্ষ, পুলিশসহ আহত ১৫ শিকারি জাতি ওরোকেন

সকল