২৩ অক্টোবর ২০২০

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার বিষয়ে ৩০ সেপ্টেম্বর সংবাদ সম্মেলন করবেন শিক্ষামন্ত্রী

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার বিষয়ে ৩০ সেপ্টেম্বর সংবাদ সম্মেলন করবেন শিক্ষামন্ত্রী - ছবি : সংগৃহীত

করোনা মহামারীর মধ্যে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা ও এইচএসসি পরীক্ষার বিষয়ে মন্ত্রিসভা বা প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ চাইলে তা দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম।

সোমবার সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি একথা জানান।

খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, আমরা বলে দিয়েছি, যে কোনো সেক্টরগুলো রেসপেক্টিভ মিনিস্ট্রিকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। মন্ত্রণালয়ই এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে পারবে। এরপরও তারা যদি মনে করেন কোনো সাজেশন বা কোনো রুলিং দরকার কেবিনেটের বা প্রধানমন্ত্রীর, আমাদেরকে যদি রেফার করে তখন সেটা ওভাবে বিবেচনা করা হবে। কিন্তু এখন অথরিটি তাদের কাছেই দিয়ে দেয়া আছে।

গত ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্তের পর ১৭ মার্চ থেকে সব ধরনের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেয় সরকার। এখন পর্যন্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ রয়েছে। এরমধ্যে অনলাইনে কিংবা সংসদ টেলিভিশনের মাধ্যমে পাঠদান শুরু করলেও নির্ধারিত বর্ষসূচিতে থাকা পাবলিক পরীক্ষাসহ কোনো পরীক্ষাই নেয়া যায়নি।

গত ১ এপ্রিল থেকে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা হওয়ার কথা ছিল। সেই সময়ও পার হয়ে গেছে। এদিকে বছরও প্রায় শেষের পথে। অন্যদিকে করোনার কারণে এবার পঞ্চম ও অষ্টমের সমাপনী পরীক্ষা না নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। নিজ নিজ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে মূল্যায়নের ভিত্তিতে পরবর্তী শ্রেণিতে উত্তীর্ণ করার কথা রয়েছে।

সর্বশেষ বর্ধিত ঘোষণা অনুযায়ী আগামী ৩ অক্টোবর পর্যন্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি রয়েছে।

ফলে দেশের শিক্ষাঙ্গনে একটা সংকট তৈরি হয়েছে। কিন্তু করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলতে চাচ্ছে না সরকার। এ অবস্থায় শিক্ষার্থীদের শিক্ষাজীবন নিয়ে অভিভাবকদের উদ্বেগের মধ্যেই সার্বিক বিষয়ে অবহিত করতে আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর দুপুরে সংবাদ সম্মেলন করবেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।


আরো সংবাদ