৩০ নভেম্বর ২০২২, ১৫ অগ্রহায়ন ১৪২৯, ৫ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরি
`

ইইউ বাজারে ‘জিএসপি প্লাস’ বাংলাদেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধিতে বড় ভূমিকা রাখবে : রাষ্ট্রদূত

ইইউ বাজারে ‘জিএসপি প্লাস’ বাংলাদেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধিতে বড় ভূমিকা রাখবে : রাষ্ট্রদূত - ছবি : সংগৃহীত

বাংলাদেশে নিযুক্ত ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) রাষ্ট্রদূত ও প্রতিনিধিদলের প্রধান চার্লস হোয়াইটলি বলেছেন, ইইউ বাজারে দ্রুত জিএসপি প্লাস পাওয়ার প্রস্তুতি বাংলাদেশের ভবিষ্যৎ অর্থনৈতিক উন্নয়নের পরবর্তী বড় ভূমিকা রাখবে।

২০২৬ সালে এলডিসি থেকে উন্নীত হওয়ার অর্থ হল বর্তমান এভরিথিং বাট আর্মস (ইবিএ) থেকে উন্নীত হওয়া, ইইউ-এর বাংলাদেশকে দেয়া একতরফা বাণিজ্য অগ্রাধিকার, যা বাংলাদেশের বৃহত্তম রফতানি গন্তব্য।

মঙ্গলবার রাজধানীর একটি হোটেলে ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস ফোরাম অব বাংলাদেশ (আইবিএফবি) আয়োজিত একটি অনুষ্ঠানে বক্তৃতাকালে ইইউ রাষ্ট্রদূত এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘গ্র্যাজুয়েশনের ফলে দেশের জিডিপিতে একটি উল্লেখযোগ্য বাণিজ্য ক্ষতি এবং গুরুতর ধাক্কা লাগবে। যা জিএসপি প্লাস ব্যবস্থায় অন্তর্ভুক্তির মাধ্যমে কমানো যেতে পারে।

বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত পিটার হাস, আইবিএফবি’র প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরী, বাংলাদেশ পলিসি রিসার্চ ইনস্টিটিউটের চেয়ারম্যান ড. জাইদী সাত্তার, আইবিএফবি সভাপতি হুমায়ুন রশীদ ও ভাইস প্রেসিডেন্ট এম এস সিদ্দিকী বক্তব্য দেন।

রাষ্ট্রদূত হোয়াইটলি বলেন, একক খাত আরএমজি রফতানির ওপর নির্ভরশীলতা কমাতে এবং শিল্প বৈচিত্র্যের দিকে এগিয়ে যাওয়ার জন্য বিদেশী প্রত্যক্ষ বিনিয়োগ এবং প্রযুক্তিগত জ্ঞানকে আকৃষ্ট করা হবে। এটি করার জন্য দেশী-বিদেশী উভয় ক্ষেত্রেই লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড প্রয়োজন। ‘বিদ্যমান বিদেশি বিনিয়োগকারীদের সমস্যার সমাধান করাও গুরুত্বপূর্ণ। আমরা আমাদের দ্বিপক্ষীয় ব্যবসায়িক সংলাপে এই এলাকার সরকারি কর্তৃপক্ষের সাথে জড়িত থাকার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।’

রাষ্ট্রদূত হোয়াইটলি বলেন, জিএসপি প্লাস যোগদানের জন্য বেশ কিছু কঠোর প্রয়োজনীয়তা রয়েছে এবং বড় বিষয় হলো বাংলাদেশ ইতোমধ্যেই জিএসপি প্লাস সদস্যতার জন্য প্রয়োজনীয় ৩২টি কনভেনশন অনুমোদন করেছে।

তিনি আরো বলেন, ‘এখন পরবর্তী ধাপ হলো বাস্তবায়ন। এটি বিশেষ করে শ্রম খাতের জন্য জাতীয় কর্মপরিকল্পনা বাস্তবায়নকে বোঝায়, যে বিষয়ে সরকার ইউ-এর সাথে একমত হয়েছে।’

ইইউ রাষ্ট্রদূত বলেন, শ্রম সংস্কারের ওপর এই জাতীয় কর্মপরিকল্পনা বাস্তবায়ন করা নতুন ডিউ ডিলিজেন্স ডাইরেক্টিভসহ ইউরোপীয় ইউনিয়নের বাজারে উদীয়মান টেকসই প্রয়োজনীয়তা পূরণের দৌড়ে বাংলাদেশকে এগিয়ে রাখতে সাহায্য করবে।

তিনি বলেন, ‘আমরা বাংলাদেশ সরকারের সাথে জড়িত থাকার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি এবং এই চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় উদ্যোগ ও সরঞ্জামকে সমর্থন করছি।’

ইইউ রাষ্ট্রদূত খুব শিগগিরই বাংলাদেশে একটি ইউরোপীয় চেম্বার অব কমার্স খোলার আশাবাদ ব্যক্ত করেন। এটি এমন একটি সংস্থা; যা ইতোমধ্যেই ভিয়েতনাম, ভারত ও সিঙ্গাপুরে রয়েছে।

দূত বলেন, একবার এটি চালু হলে জিএসপি প্লাস এবং পাইপলাইনে আইনী পরিবর্তনের জন্য প্রস্তুত করার জন্য ইউরোপীয় ও বাংলাদেশী ব্যবসায়ীদের পরামর্শ এবং সমর্থন করার জন্য এটি আরেকটি পদক্ষেপ হবে।

তিনি আরো বলেন, ‘ইইউ-বাংলাদেশ বাণিজ্যিক সম্পর্ক জোরদার করতে এটি একটি কার্যকর উদ্যোগ হবে।’

বাংলাদেশ ব্যাংকের মতে, ২০২১ অর্থবছরে, ইইউ ছিল বাংলাদেশে নেট এফডিআই প্রবাহের সবচেয়ে বড় উৎস।

একটি স্থানীয় থিঙ্ক-ট্যাঙ্কের সাম্প্রতিক বিশ্লেষণে দেখা যাচ্ছে যে ইউরোপীয় ইউনিয়নের দেশগুলো থেকে নেট এফডিআই প্রবাহ গত পাঁচ বছরে ৩ দশমিক ৫ বিলিয়ন ডলারে পৌঁছেছে, যা এই সময়ের মধ্যে সমস্ত এফডিআই প্রবাহের প্রায় এক চতুর্থাংশের সমান।

ইইউ দূত বলেন, ‘বাংলাদেশে ইইউ এফডিআই আশা জাগাচ্ছে। কিন্তু একই সময়ে ভিয়েতনামে ছয় বিলিয়ন ডলার ইইউ বিনিয়োগের তুলনায়, এটি এমন একটি দেশের জন্য আদর্শ নয়; যেখানে মধ্যম আয়ের ফাঁদ এড়াতে এবং অর্থনৈতিক উন্নতি অব্যাহত রাখতে ব্যাপক এফডিআই প্রবাহের প্রয়োজন হয়।’

তিনি বলেন, প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ উভয় বাধাই বাংলাদেশে ইইউ বিনিয়োগের সম্ভাবনাকে সীমিত করে। বিদেশি বিনিয়োগের বাধাগুলো বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নের অন্তরায়।

সূত্র : ইউএনবি


আরো সংবাদ


premium cement
বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের হারিয়ে দিল তিউনিসিয়া ফেসবুকে প্রেমের পর গণধর্ষণ, আটক ৫ বিএনপির আমলের চেয়ে ছয় গুণ বেশি রিজার্ভ আমাদের রয়েছে : মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী মরা-বাঁচা লড়াইয়ে প্রথমার্ধ শেষে গোলশূন্য ডেনমার্ক-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ সোহরাওয়ার্দী উদ্যান কেনো বিএনপির অপছন্দ : ওবায়দুল কাদের ফ্রান্স-তিউনিসিয়া ম্যাচ গোলশূন্য ড্তে শেষ প্রথমার্ধ গণসমাবেশের লিফলেট বিতরণকালে গাজীপুরে বিএনপির নেতাকর্মী গ্রেফতার ১০ দফা দাবিতে জয়দেবপুর রেল স্টেশনে বিক্ষোভ দুর্নীতির অভিযোগ, বেনাপোল সোনালী ব্যাংকের ৩ কর্মকর্তা বরখাস্ত মির্জাপুরে ইটভাটা মালিককে কোটি টাকা জরিমানান ফের ৩ দিন বিমানবন্দর সড়ক এড়িয়ে চলার পরামর্শ

সকল