০১ ডিসেম্বর ২০২০

বাজার স্থিতিশীল রাখতে ৫-৬ মাস আগে দর নির্ধারণ করে নিত্য পণ্য মজুদের ব্যবস্থা করার সুপারিশ

-

বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভায় নিত্য পণ্যের বাজার দর স্থিতিশীল রাখতে ৫-৬ মাস আগে দর নির্ধারণ করে তা মজুদ করার ব্যবস্থা নেয়ার সুপারিশ করা হয়েছে।

কমিটির সভাপতি তোফায়েল আহমেদের সভাপতিত্বে সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত সভায় এ সুপারিশ করা হয়।
কমিটির সদস্য বাণিজ্য মন্ত্রী টিপু মুনশি, মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী, তাহজীব আলম সিদ্দিকী, সেলিম আলতাফ জর্জ এবং সুলতানা নাদিরা সভাশ অংশগ্রহণ করেন।

সভায় কোম্পানী (দ্বিতীয় সংশোধন) বিল, ২০২০ পরীক্ষাপূর্বক রিপোর্ট, কোম্পানীর শতকরা ৫ ভাগ শেয়ারধারীদের কোম্পানীর বার্ষিক সাধারণ সভায় আলোচ্যসূচি প্রদানের সুযোগ এবং ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি) এর সার্বিক কার্যক্রম সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়।
কমিটি কোম্পানী (দ্বিতীয় সংশোধন) বিল, ২০২০” সংশোধিত আকারে পাশের লক্ষ্যে জাতীয় সংসদে উপস্থাপনের জন্য সর্বসম্মতিক্রমে সুপারিশ করে।

সভায় নিত্যপ্রয়োজনীয় ভোগ্যপণ্য আলু পিঁয়াজের বাজার স্থিতিশীল রাখার লক্ষ্যে কমপক্ষে ৫ বা ৬ মাস পূর্বে কোন কোন পণ্যের চাহিদা কত তা নিরুপণ করে দেশের খুচরা, পাইকারী এবং আমদানীকারকদের সাথে আলোচনার মাধ্যমে ওই সব পণ্য জনগণের ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে রাখার উদ্দেশ্যে আমদানীপূর্বক মজুদ করার ওপর গুরুত্বারোপ করা হয়।

সভায় আগামীতে এ ধরণের পরিস্থিতি সৃষ্টি হলে তা মোকাবিলা করার জন্য মন্ত্রণালয়গুলো যেমন অর্থ, বাণিজ্য, কৃষি এবং খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্ট মন্ত্রী এবং সচিবদের সমন্বয়ে বৈঠক করে সমস্যা চিহ্নিতকরণ এবং তা থেকে উত্তরণের পদক্ষেপ নেয়ার ব্যবস্থা গ্রহণের সুপারিশ করা হয়।

সভায় দেশের মানুষের নিজস্ব চাহিদা মেটানোর জন্য উৎপাদন বাড়ানোর ওপর কমিটি বিশেষভাবে গুরুত্বারোপ করে। এছাড়া, বিগত রমজান মাসের ন্যায় আগামী রমজান মাসেও দ্রব্যমূল্য যাতে স্থিতিশীল থাকে সে লক্ষ্যে এখনই ভোক্তাসাধারণের নিত্যপণ্যের চাহিদা পূরণের জন্য (ডাল, তেল, চিনি, ছোলা, খেজুর এবং পিঁয়াজ ইত্যাদি) আগাম কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানানো হয়।

সভায় বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব, বিভিন্ন সংস্থা প্রধানসহ মন্ত্রণালয় এবং সংসদ সচিবালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সূত্র : বাসস


আরো সংবাদ