০২ ডিসেম্বর ২০২১, ১৭ অগ্রহায়ন ১৪২৮, ২৬ রবিউস সানি ১৪৪৩ হিজরি
`

প্রতিদিনের জীবন থেকে

-

শিক্ষাই জাতির মেরুদণ্ড শিক্ষাই জাতির প্রাণ। সেই দিন কি আদৌ আসবে কোনো দিন? এই তো গেলো বিশ্ব শিক্ষক দিবস। পেশাদার শিক্ষকদের বাড়তি আনন্দের দিন। মহান এ পেশার মর্যাদা বিশ্বের সব দেশে সব যুগে সমান নয়।
মাগুরার সন্তান কবি কাজী কাদের নেওয়াজ লিখেছিলেন- আজ হতে চির উন্নত হলো শিক্ষাগুরুর শির/ সত্যিই তুমি মহান উদার বাদশাহ আলমগীর।
বাদশাহ আলমগীরের মতো শিক্ষকপ্রিয় নৃপতি পৃথিবীতে এখন আছে কি? একবার এক শিক্ষক দরদি প্রেসিডেন্ট তার অফিসে যাওয়ার পথে দেখলেন একজন অধ্যাপক দাঁড়িয়ে গাড়ির অপেক্ষা করছেন। প্রেসিডেন্ট তার গাড়ি থামিয়ে অধ্যাপক সাহেবকে তুলে নিলেন। অধ্যাপক বিস্মিত হয়ে বলতে চাইলেন- আপনি গাড়ি থামিয়ে.....
প্রেসিডেন্ট হেসে হেসে- আপনার দেরি হলে শিক্ষার্থীরা
পাঠবঞ্চিত হবে। জাতি হবে দুর্বল। পুরো দেশ ও জাতি আপনার সুচিন্তা থেকে বঞ্চিত হবে। আমার চেয়ে আপনার যথাসময়ে বিশ্ববিদ্যালয়ে পৌঁছা উচিত।
ভারতের এক ব্যারিস্টার তার অফিস কেরানিকে নিয়োগ দিয়েছিলেন তার সন্তানদের গৃহশিক্ষক হিসেবে। শিক্ষাগুরু প্রথম দিনই ব্যারিস্টার সাহেবের বাড়ির গেটে ঢুকে অবাক! ব্যারিস্টার সাহেব গেটে এসেছেন শিক্ষককে বরণ করতে!
Teachers are the builders of a nation কথাটি যখন স্বীকৃত তখন সরকারের উচিত সর্বপর্যায়ের শিক্ষকদের জীবনমানের দিকে খেয়াল করা। পার্শ্ববর্তী রাষ্ট্র ভারতে একজন হাইস্কুল টিচার প্রথম মাসের বেতন পেয়ে ব্যাংকে পাঁচ হাজার টাকা কিস্তি দিয়ে একটি গাড়ির ব্যবস্থা করে নিতে পারেন!
শ্রীলঙ্কার শিক্ষাব্যবস্থার দ্রুত উন্নতির ইতিহাস বিবেচনায় আনলে সরকার বাহাদুর পারবেন আমাদের শিক্ষাব্যবস্থার দ্রুত উন্নয়ন নিশ্চিত করতে। শ্রীলঙ্কা এখন তাদের প্রাইমারি স্কুলের প্রধানদের প্রিন্সিপ্যাল পদবি দিয়েছে। এর চেয়ে বড় কথা দিতে পেরেছে।
বার্ট্রান্ড রাসেল বলেছিলেন- Teachers are the guardians of civilization. আরেকজন মনীষী বলেছেন- চিকিৎসকের ব্যর্থতায় দৈহিক মৃত্যু ঘটে, সাংবাদিকের ব্যর্থতায় সামাজিক মৃত্যু ঘটে আর শিক্ষকের ব্যর্থতায় নৈতিক মৃত্যু ঘটে।
স্তরান্তর ভেদে কর্মজীবনে কোটি টাকার সম্পদ গড়েছেন এমন শিক্ষকের সংখ্যাও উল্লেখযোগ্য। আবার বেসরকারি পর্যায়ে পেটেভাতে জীবনযাপনরত অনেক শিক্ষক রয়েছেন। দুর্বল অবকাঠাময় প্রতিষ্ঠিত প্রাইভেট প্রতিষ্ঠানে কর্মরত শিক্ষকদের অবস্থা অত্যন্ত নাজুক।
তাই সুস্থ সুন্দর সুশৃঙ্খল সমাজ বিনির্মাণে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত আদর্শ, যুগোপযোগী বেতনধারী, নীতিবান শিক্ষকের কোনো বিকল্প নেই।
আমাদের দেশে যে দিন ব্যাংক কর্মকর্তারা লোভনীয় চাকরি মনে করে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক হওয়ার জন্য আবেদন করবেন। অথবা ম্যাজিস্ট্র্রেটরা স্বপ্ন দেখবেন- হাইস্কুল টিচার হওয়ার, সে দিন আমাদের দেশের শিক্ষাব্যবস্থা পৌঁছাবে আমার মতো অনেকের স্বপ্নের ঠিকানায়।
সেই দিন কি আদৌ আসবে কোনো দিন?



আরো সংবাদ


৬ ছাত্রকে ডাকাত সন্দেহে পিটিয়ে হত্যার রায় আজ এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু গর্ভাবস্থায় শরীর ও মনে ঘটে যাওয়া পরিবর্তনগুলো বিশ্বে আবারো বাড়ছে করোনার প্রকোপ, দৈনিক সংক্রমণ-মৃত্যুতে শীর্ষে যুক্তরাষ্ট্র সাজেকে আগুনে পুড়ে গেলো রিসোর্ট-বাড়ি-রেস্তোরাঁ ব্যালন ডি'অর জয়ের ৪৮ ঘণ্টা পরেই ব্যর্থ মেসি ক্যারিবিয়ান সিরিজেও পাকিস্তান দলের হেড কোচ সাকলাইন মুশতাক কুসিক কাউন্সিলর সোহেল হত্যা মামলার প্রধান আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ওমিক্রন আক্রান্ত ব্যক্তির সন্ধান সৌদি আরবে চুয়াডাঙ্গায় পরাজিত স্বতন্ত্র প্রার্থীর ওপর হামলা ল্যান্ডিং গিয়ারে ত্রুটি, চট্টগ্রামে বিমানের জরুরি অবতরণ

সকল

রিসোর্টে নিয়ে তরুণীকে ধর্ষণ করলেন টিকটকার (১০৫৯৯)ভয়াবহ বিস্ফোরণে কাঁপল বাড়ি, ছিন্নভিন্ন ৩ জনের দেহ (৭৫৯০)তুরস্কের অর্থনৈতিক সঙ্কট, বাংলাদেশে শঙ্কা (৭৫৫৯)'কোনো রকমের পূর্বশর্ত ছাড়াই এনপিটিতে যুক্ত হতে হবে ইসরাইলকে' (৭৫১৭)ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘জাওয়াদ’, চলতি সপ্তাহেই ঝড়-বৃষ্টির পূর্বাভাস (৬৪৪৪)সামরিক হামলার ভীতিই ইরানকে পারমাণবিক কার্যক্রম থেকে বিরত রাখবে : ইসরাইল (৫৮৮৩)দেশ ছেড়ে পালাতে চেয়েছিলেন কাটাখালীর মেয়র আব্বাস (৫৩৮২)টানা ৬ষ্ঠবারের মতো নির্বাচিত চেয়ারম্যান ফজু (৫০৩৭)হাইকোর্টের দ্বারস্থ সেই তুহিনারা, হিজাব পরায় বসতে পারবে না এসআই পরীক্ষায়ও! (৪৫৪০)করোনা শেষ ওমিক্রনেই ! (৩৬০৯)