০৯ আগস্ট ২০২২
`

আশুলিয়ায় ফোন করে ডেকে নিয়ে বন্ধুকে পিটিয়ে হত্যা

আশুলিয়ায় ফোন করে ডেকে নিয়ে বন্ধুকে পিটিয়ে হত্যা - ছবি : নয়া দিগন্ত

ঢাকার আশুলিয়ায় ফোন করে ডেকে নিয়ে রাকিবুল ইসলাম উজ্জ্বল (২৪) নামের এক যুবককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ ওঠেছে তার বন্ধুদের বিরুদ্ধে।

সোমবার সকালে সাভারের এনাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয় উজ্জ্বলের। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হাসপাতালের কর্মকর্তা ইউসুফ আলী।

এর আগে গত ১ জুলাই শুক্রবার আশুলিয়ার ভাদাইলের কাঁঠালতলা এলাকায় বাসা থেকে ফোন করে ডেকে নিয়ে তাকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে তার এক বন্ধুসহ আরো কয়েকজন।

নিহত রাকিবুল ইসলাম উজ্জ্বল বগুড়ার সাড়িয়াকান্দি থানাধীন চন্দনবাইশা গ্রামের রফিকুল ইসলামের ছেলে। তিনি আশুলিয়ার ভাদাইলে ভাড়া বাসায় থেকে নতুন ইপিজেডের একটি পোশাক কারখানায় চাকরি করতেন।

উজ্জ্বলের চাচাত ভাই সজিব জানান, বেশ কিছু দিন আগে বন্ধু গোলাম রব্বানির সাথে নারীঘটিত ঘটনায় উজ্জ্বলের সাথে জুয়েল নামের এক বন্ধুর মারামারি হয়। গত শুক্রবার রাতে জুয়েল ফোন করে উজ্জ্বলকে বাসা থেকে ডেকে নিয়ে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে সেখানে আগে থেকেই অবস্থান নেয়া আরো পাঁচ-সাতজন উজ্জ্বলকে দেখামাত্রই রড দিয়ে এলোপাথাড়ি পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। এ সময় তার চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন এগিয়ে গেলে তারা চলে যায়।
পরে গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে প্রথমে স্থানীয় নারী ও শিশু স্বাস্থ্য কেন্দ্র এবং পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য সাভারের এনাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার সকালে তার মারা যান উজ্জ্বল।

সজিব জানান, ধারণা করা হচ্ছে, নারীঘটিত ওই বিষয় নিয়েই পরিকল্পিতভাবে তাকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়।

আশুলিয়া থানার এসআই রাজু মণ্ডল জানান, হাসপাতাল থেকে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রাজধানীর শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে সাভার থানা পুলিশ। এ ঘটনায় নিহতের ভাই আশুলিয়া থানায় একটি মামলা করেছেন। এছাড়া আসামিদের ধরতে বিভিন্ন স্থানে অভিযান চলছে বলেও জানান তিনি।


আরো সংবাদ


premium cement