২৩ জানুয়ারি ২০২২, ০৯ মাঘ ১৪২৮, ১৯ জমাদিউস সানি ১৪৪৩
`
অবস্থান অব্যাহত রাখার ঘোষণা

এমপিওভুক্তির দাবিতে বেসরকারি কলেজশিক্ষকদের অবস্থান কর্মসূচি


এমপিওভুক্তির দাবিতে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ফটকে অবস্থান কর্মসূচী পালন করছে বাংলাদেশ বেসরকারি কলেজ অনার্স-মাস্টার্স শিক্ষক ফেডারেশন।

মঙ্গলবার সকাল ১০টা থেকে সারাদেশের বিভিন্ন কলেজের শিক্ষকরা গাজীপুর মহানগরের বোর্ড বাজারস্থ’ জাতীয় বিশ্বদ্যিালয়ের সামনে এসে অবস্থান নেন। দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্বত তারা এ অবস্থান অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছেন।

আন্দোলনরত শিক্ষকরা জানান, বেসরকারি কলেজগুলো বিধি মোতাবেক নিয়োগপ্রাপ্ত সারাদেশের সাড়ে পাঁচ হাজার অনার্স-মাস্টার্স শিক্ষককে জনবলে অন্তর্ভুক্তি না থাকার অজুহাতে দীর্ঘ ২৯ বছর থেকে এমপিওভুক্তির বাইরে রাখা হয়েছে।

প্রতিষ্ঠান থেকে শতভাগ বেতন দেয়ার কথা থাকলেও অধিকাংশ কলেজ কর্তৃপক্ষ তা আমলে নেয় না। করোনাকালে প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকার অজুহাতে নামমাত্র বেতনটুকুও বন্ধ ছিল। ফলে শিক্ষকরা জীবন-জীবীকার কঠিন সমীকরণে আটকে গেছেন। অথচ একই প্রক্রিয়ায় নিয়োগ পেয়ে সদ্য জাতীয়করণকৃত কলেজের অনার্স-মাস্টার্স কোর্সের শিক্ষকগণ ক্যাডার/নন-ক্যাডারভুক্ত হয়েছেন। অন্যদিকে মাস্টাসের্র সমমান বা কামিল শ্রেণির শিক্ষকরা এমপিওভুক্ত হয়েছেন। অথচ অনার্স-মাস্টার্স শিক্ষকগণও এনটিআরসিএ সনদধারি হয়েও জনবল ও এমপিও নীতিমালা আসতে পারছেন না, যা বৈষম্য এবং মুক্তিযুদ্ধের চেতনা পরিপন্থী।

বাংলাদেশ বেসরকারি কলেজ অনার্স-মাস্টার্স শিক্ষক ফেডারেশনের সভাপতি হারুন-অর-রশিদ বলেন, দীর্ঘ ২৯ বছর থেকে পেশাগত দাবি আদায়ের জন্য অনেক শান্তিপূর্ণ আন্দোলন করার পরেও আমরা সরকারি বেতন-ভাতা থেকে বঞ্চিত হয়েছি।

বর্তমানে শিক্ষাবান্ধব সরকারের মাধ্যমে শিক্ষা সেক্টরে অনেক বৈষম্য কমেছে। কিন্তু অত্যন্ত পরিতাপের বিষয় উচ্চশিক্ষায় নিয়োজিত সারাদেশের মাত্র সাড়ে পাঁচ হাজার শিক্ষক এখনো এমপিওভুক্তির বাইরে রয়েছেন।

তিনি আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের বিধি মোতাবেক ব্যবস্থা গ্রহনের একাধিক নির্দেশনা, শিক্ষামন্ত্রণালয় সম্পর্কিত নবম ও দশম সংসদের স্থায়ী কমিটির সুপারিশ এবং জাতীয় শিক্ষানীতি-২০১০-এর অধ্যায় ৮-এ বর্ণিত উচ্চশিক্ষার কৌশল বাস্তবায়নের জন্য এ সকল শিক্ষকের এমপিওভুক্ত করা অত্যন্ত যৌক্তিক ছিল।

ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক মো: মোস্তফা কামাল বলেন, বিধি মোতাবেক নিয়োগপ্রাপ্ত ও কর্মরত সাড়ে পাঁচ হাজার শিক্ষককে এমপিওভুক্ত করতে বছরে ১৪৪ কোটি টাকার বাজেটে বরাদ্দ হলেই আমাদের স্বপ্নপূরণ হয়। জনবল ও এমপিও নীতিমালায় অন্তর্ভুক্ত করা যায়। আমরা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার শিক্ষাবান্ধব সরকারের সুযোগ্য শিক্ষামন্ত্রীর বিশেষ নির্দেশনার মাধ্যমে প্রচলিত জনবল কাঠামো সংশোধন করে এমপিওভুক্তি চাই। বেঁচে থাকার সুযোগ চাই।

তিনি বলেন, দীর্ঘ ২৯ বছর থেকে শান্তিপূর্ণ ও অহিংস আন্দোলন সংগ্রামের পরেও আমাদের দাবিটি উপেক্ষিত রয়েছে, যা অমানবিক বটে। এমতাবস্থায় অনতিবিলম্বে কর্মরত সাড়ে পাঁচ হাজার অনার্স-মাস্টার্স শিক্ষককে এমপিওভুক্তির জোর দাবি জানাচ্ছি। অন্যথায় দাবি আদায়ে আমাদের চলমান শান্তিপূর্ণ অবস্থান কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে।

অবস্থান কর্মসূচিতে আরো বক্তব্য রাখেন, রাজশাহী থেকে আগত সংগঠনের সহসভাপতি মেহেদী হাসান, হেলাল উদ্দিন, ময়মনসিংহ থেকে আগত সংগঠনের সাংগঠনিক সম্পাদক হুমায়ুন কবীর সুমন, নাজমুল হক, নওগাঁ থেকে আগত আহসানুল হক মিঠু প্রমুখ।


আরো সংবাদ


premium cement
গাজীপুরে দেশীয় অস্ত্রসহ ৪ ছিনতাইকারী গ্রেফতার বিপিএল মাতাতে গেইল এখন ঢাকায় জাতিসঙ্ঘে ইরানের বকেয়া পরিশোধ করে দিলো দক্ষিণ কোরিয়া ইউক্রেন-রাশিয়া নিয়ে মন্তব্যের জেরে জার্মান নৌবাহিনী প্রধানের পদত্যাগ রাশিয়ার সাথে সীমান্ত উত্তেজনার মধ্যেই ইউক্রেনে পৌঁছল মার্কিন সামরিক সাহায্য বিনা নোটিশেই দখলদারদের উচ্ছেদ করা হবে : মেয়র আতিক রিয়েলিটি শো ‘সাওতুল কোরআনে’ ইয়েস কার্ড পেলো ঢাকার ১৫ কিশোর সরকার বিরোধী দল ও মত শূন্য বাংলাদেশ চায় : রিজভী ২শ শিক্ষার্থীকে বৃত্তি দিলো জিয়াউল হক মাইজভান্ডারী ট্রাস্ট ট্রান্সজেন্ডার নারীকে যৌন নির্যাতন শৈলকুপায় ট্রাকের ধাক্কায় সেনা সদস্যের মৃত্যু

সকল