২৮ অক্টোবর ২০২১
`

ঘাটাইলে পুকুরে ডুবে মাদক কারবারির মৃত্যু

ঘাটাইলে পুকুরে ডুবে মাদক কারবারির মৃত্যু - ফাইল ছবি

টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে ডিবি পুলিশের তাড়া খেয়ে পালানোর সময় পুকুরের পানিতে ডুবে সিদ্দিক (২৫) নামের এক মাদক কারবারির মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় ঘাটাইল থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়ের হয়েছে। শনিবার দিবাগত রাতে উপজেলার গৌরাঙ্গী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

সিদ্দিক হোসেনের বাড়ি মধুপুর উপজেলার কুড়াগাছা ইউনিয়নের ভবানীটেকি গ্রামে। তিনি ওই এলাকার আ: বারেকের ছেলে।

ডিবি পুলিশের টাঙ্গাইল দক্ষিণের ওসি দেলোয়ার হোসেন জানান, গত বৃহস্পতিবার রাতে ঘাটাইল উপজেলার গৌরাঙ্গির কোলাহা গ্রামের মাদক কারবারি দুলালকে দিয়ে ফাঁদ পাতা হয়। গাঁজা কেনার কথা বলে মধুপুরের মাদক কারবারি সিদ্দিক ও মিলনকে ঘাটাইলে নিয়ে আসা হয়। দুলালের কথা মতো তারা বিক্রির জন্য এক কেজি গাঁজা নিয়ে আসেন। দুলালের বাড়িতে ঢুকতেই ডিবি পুলিশের অবস্থান টের পেয়ে তারা দুজনই মোটরসাইকেল রেখে পালাতে চেষ্টা করে। এ সময় এক কেজি গাঁজাসহ মিলনকে
আটক করে ডিবি পুলিশ। ওই সময় পুলিশের তাড়া খেয়ে দৌড়ে পালাতে গিয়ে সিদ্দিক হোসেন দুলালের বাড়ির পাশে পুকুরে পড়ে ডুবে যান। পরে তাকে গ্রামবাসীর সহায়তায় উদ্ধার করে দ্রুত টাঙ্গাইল শেখ হাসিনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।
পরে রাত সাড়ে ১২টার দিকে তার মৃত্যু হয়েছে।

আটককৃত মিলন মধুপুর উপজেলার পীরগাছা গ্রামের আয়নাল হকের ছেলে।

সিদ্দিকের বাবা আব্দুল বারেক জানান, বৃহস্পতিবার রাত থেকে তার ছেলে নিখোঁজ ছিল। মোবাইল ফোনও বন্ধ ছিল। শুক্রবার সকালে ডিবি পুলিশের মাধ্যমে মৃত্যুর খবর পান। শুক্রবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে ঘাটাইল থানার মাধ্যমে সিদ্দিকের লাশ হস্তান্তর করা হয়। রাত আড়াইটার দিকে ভবানীটেকি গ্রামে পুলিশের উপস্থিতিতে তার জানাজা শেষে বাড়ির পাশে দাফন করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে ঘাটাইল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আজাহার আলী পিপিএম জানান, অভিযোগের প্রেক্ষিতে ঘাটাইল থানায় মাদক ও অপমৃত্যু মামলা দায়ের হয়েছে।



আরো সংবাদ