২৮ মার্চ ২০২০

সিঁধ কেটে প্রবাসীর স্ত্রীকে ধর্ষণচেষ্টা, ব্যর্থ হয়ে কামড়িয়ে ক্ষত-বিক্ষত

সিঁধ কেটে ঘরে ঢুকে এক প্রবাসীর স্ত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। তবে ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে ওই নারীর মুখমণ্ডলসহ শরীরের বিভিন্নস্থানে কামড়িয়ে ক্ষত-বিক্ষত করেছে এক বখাটে। মঙ্গলবার ভোররাতে কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া উপজেলার চরকাওনা নয়াপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

এদিকে ঘটনার পর ভুক্তভোগী আহত ওই গৃহবধূকে পাকুন্দিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় ওই গৃহবধূর মা বখাটে রাহুলকে অভিযুক্ত করে পাকুন্দিয়া থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। এর প্রেক্ষিতে পুলিশ ঘটনার দিন দুপুরেই বখাটে রাহুলকে আটক করে।

ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) একেএম লুৎফর রহমান জানান, প্রবাসীর স্ত্রীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় ওই যুবককে দণ্ডবিধি ১৮৬০ সালের ৩৫৪ ধারায় এক বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। দণ্ডপ্রাপ্ত রাহুল উপজেলার চরকাওনা নয়াপাড়া গ্রামের মৃত হবি উল্লাহর ছেলে।

জানা যায়, ভুক্তভোগী ওই গৃহবধূর স্বামী কাতার প্রবাসী। এক ছেলে ও এক মেয়ে নিয়ে ওই গৃহবধূ স্বামীর বাড়িতে থাকেন। পাশের বাড়ির বখাটে রাহুল দীর্ঘদিন ধরে তাকে উত্ত্যক্ত করে আসছিল। মঙ্গলবার ভোররাতে রাহুল সিঁধ কেটে ঘরে ঢুকে ওই গৃহবধূকে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে রাহুল ওই গৃহবধূর গালসহ শরীরের বিভিন্নস্থানে কামড়িয়ে ক্ষত-বিক্ষত করে। এসময় ওই গৃহবধূর ডাক-চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এলে রাহুল পালিয়ে যায়। পরে বাড়ির লোকজন ওই গৃহবধূকে উদ্ধার করে পাকুন্দিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।


আরো সংবাদ