০৬ এপ্রিল ২০২০

ফরিদপুরে ৫ বছরের শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে ষাটোর্দ্ধ বৃদ্ধ আটক

ফরিদপুরে পাঁচ বছর বয়সী এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে ষাটোর্ধ্ব এক ব্যক্তিকে আটক করেছে কোতয়ালী থানা পুলিশ।

গতকাল শনিবার রাতে ফরিদপুর সদর উপজেলার আলীয়াবাদ ইউনিয়নের চৌহাট্টা গ্রাম থেকে তাকে আটক করে পুলিশ। আজ রোববার ফরিদপুরের চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালদের মাধ্যমে তাকে জেল হাজতে পাঠানো হয়।

আটক সামাদ মোল্লা আলীয়াবাদ ইউনয়নের চৌহাট্টা গ্রামের বাসিন্দা।

শিশুটির বাবা অভিযোগ করেন, ‘শনিবার বিকেলে আমার স্ত্রী পাশের বাড়ির ফ্রিজে রাখা গোশত আনতে ও বড় মেয়ে পানি আনার জন্য বাড়ির বাইরে যায়। এই সুযোগে আমার শিশু মেয়েটিকে একা পেয়ে প্রতিবেশী সামাদ মোল্লা ধর্ষণ করে। বাড়িতে ফিরে এ অবস্থা দেখতে পেয়ে আমার স্ত্রী চিৎকার করলে প্রতিবেশীরা এসে সামাদ মোল্লাকে ঘর থেকে আটক করে।’

শিশুটির মা জানান, প্রতিবেশী সামাদ মোল্লা প্রায়ই তাদের বাড়িতে আসা-যাওয়া করতেন। শিশুটি তাকে ‘নানা’ সম্বোধন করায় আদরের ছলে তাকে কোলে নিতেন ওই ব্যক্তি। মাত্র পাঁচ বছরের শিশুর সাথে এমন নিষ্ঠুর আচরণের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেছেন ধর্ষণের শিকার ওই শিশুটির মা। যেন আর কোনো ব্যক্তি শিশুদের সাথে এমন আচরণ না করে।

এদিকে, খবর পেয়ে শিশুটিকে উদ্ধার করে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছে পুলিশ।

ধর্ষণের অভিযোগে সামাদ মোল্লাকে ওই রাতেই আটক করে থানায় নেয়া হয়েছে। এ ঘটনায় শিশুটির পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছেন ফরিদপুর কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি তদন্ত) মো: এনায়েত হোসেন।

দেখুন:

আরো সংবাদ