০১ ডিসেম্বর ২০২১, ১৬ অগ্রহায়ন ১৪২৮, ২৫ রবিউস সানি ১৪৪৩ হিজরি
`

পাকিস্তান আজ মাঠেই জবাব দেবে নিউজিল্যান্ডকে!

পাকিস্তান আজ মাঠেই জবাব দেবে নিউজিল্যান্ডকে! - ছবি : সংগৃহীত

প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপের মঞ্চে ভারতকে হারানোয় আকাশে উড়ছে পাকিস্তান। আত্মবিশ্বাসের তুঙ্গে থেকে আজ মঙ্গলবার সুপার টুয়েলভে গ্রুপ-১-এ নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি হচ্ছে উপমহাদেশের দলটি। জয়ের ধারায় থাকার লক্ষ্য পাকিস্তানের। অন্য দিকে শক্তিশালী পাকিস্তানের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচেই জয়ের স্বাদ পেতে মরিয়া নিউজিল্যান্ডও।

শারজাহ ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায় শুরু হবে পাকিস্তান-নিউজিল্যান্ড ম্যাচ।
শারজাহর ভেন্যুতেই নিজেদের প্রথম ম্যাচে ভারতের মুখোমুখি হয় পাকিস্তান। এক কথায় ভারতকে উড়িয়ে দিয়েছে পাকিস্তান। ১০ উইকেটে বিশাল জয়ে ভারত বধের পাশাপাশি বিশ্বকাপে শুরুটা চমৎকার হয়েছে বাবর আজমের নেতৃত্বাধীন দলটির।

টস জিতে প্রথমে ভারতকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় পাকিস্তান। বল হাতে নিয়ে ভয়ংকর হয়ে উঠেন পাকিস্তানের পেসার শাহিন শাহ আফ্রিদি। ৬ রানের মধ্যে দুর্দান্ত দুই ডেলিভারিতে ভারতের দুই ওপেনার রোহিত শর্মা ও লোকেশ রাহুলকে বিদায় দিয়ে শুরুতেই প্রতিপক্ষে ব্যাকফুটে ঠেলে দেন আফ্রিদি। এক কথায় ভারতকে নিয়ে খেলা করেছে পাকিস্তান।
পরবর্তীতে অধিনায়ক বিরাট কোহলির ৪৯ বলে ৫৭ ও ঋসভ পান্থের ৩০ বলে ৩৯ রানের সুবাদে ৭ উইকেটে ১৫১ রানের লড়াকু পুঁজি পায় ভারত।

তবে ভারতের এই ১৫২ রানের টার্গেট হেসেখেলে স্পর্শ করে ফেলেন পাকিস্তানের দুই ওপেনার মোহাম্মদ রিজওয়ান ও অধিনায়ক বাবর। দু’জনে অবিচ্ছিন্ন ১৫২ রানের জুটি গড়ে দলের জয় নিশ্চিত করেন। রিজওয়ান ৭৯ ও বাবর ৬৮ রান করে অপরাজিত থাকেন।

ম্যাচ শেষে পাকিস্তানের দলপতি বাবর বলেন, ‘আমাদের পরিকল্পনা আমরা সঠিকভাবে কাজে লাগাতে পেরেছি। শুরুতেই ভারতকে চাপে ফেলতে পেরেছি। আফ্রিদির উইকেট শিকার আমাদের অনেক আত্মবিশ্বাস যুগিয়েছে। একই সাথে স্পিনাররা, ফিল্ডাররাও ভালো করেছে।’
নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে পরের ম্যাচেও ভালো খেলতে চান বাবর। তিনি বলেন, ‘পরের ম্যাচেও আমরা এটি ধরে রাখতে চাই। আমাদের উপর এখন আর কোনো চাপ নেই। এ ম্যাচ থেকে সতীর্থরা অনেক আত্মবিশ্বাসী হয়েছে। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে দল ভালো করবে বলে আমি আশাবাদী।’

বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম ম্যাচেই বড় চ্যালেঞ্জের মুখে পড়তে হচ্ছে নিউজিল্যান্ডকে। ভারতকে হারিয়ে ভয়ংকর আত্মবিশ্বাসী পাকিস্তান। আর নিউজিল্যান্ডের আত্মবিশ্বাস নিয়ে প্রশ্ন থাকছে। কারন টুর্নামেন্ট শুরুর আগে দুটি প্রস্তুতিমূলক ম্যাচেই হেরেছে নিউজিল্যান্ড। অস্ট্রেলিয়ার কাছে ৩ উইকেটে ও ইংল্যান্ডের কাছে ১৩ রানে হারে তারা।

এর মধ্যে অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনের খেলা নিয়ে সংশয় রয়েছে। কনুইয়ের ইনজুরিতে ভুগছেন তিনি। প্রস্তুতিমূলক ম্যাচের মাত্র ১টিতে ব্যাট করেন উইলিয়ামসন। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ৩৭ রান করেছিলেন এই ডান-হাতি ব্যাটার। তারপরও উইলিয়ামসনকে নিয়ে চিন্তিত নিউজিল্যান্ড।

তবে পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচে উইলিয়ামসনকে পাওয়ার ব্যাপারে আশাবাদী নিউজিল্যান্ড কোচ গ্যারি স্টিড। তিনি বলেন, ‘উইলিয়ামসনকে নিয়ে আমরা এখনো আশাবাদী ও আত্মবিশ্বাসী। বিশ্রাম নিতে পারলে খেলার জন্য প্রস্তুত হয়ে উঠবে সে।’

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রথম ও সর্বশেষ আসরের সেমিফাইনাল খেলেছিলো নিউজিল্যান্ড। তবে এখনও শিরোপার স্বাদ এখনো নিতে পারেনি তারা।

পাকিস্তানের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি লড়াইয়ে পিছিয়ে নিউজিল্যান্ড। ২৪ দেখায় পাকিস্তানের জয় ১৪টিতে, নিউজিল্যান্ডের জয় ১০টিতে। আর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের মঞ্চে পাঁচবারের দেখায় তিনবার পাকিস্তান ও দু’বার নিউজিল্যান্ড জয় পায়।

বিশ্বকাপের আগে দ্বিতীয় সারির দল নিয়ে পাকিস্তান সফরে গিয়েছিলো নিউজিল্যান্ড। কিন্তু নিরাপত্তার অজুহাতে ম্যাচ শুরুর ৪৫ মিনিট আগে সিরিজ বাতিল করে দেশে ফিরে যায় নিউজিল্যান্ড। সেই স্মৃতিও কালকের ম্যাচে প্রভাব ফেলবে । কারন বিশ্বকাপ শুরুর আগে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান ও পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের (পিসিবি) সভাপতি রমিজ রাজা বলেছিলেন, সফর বাতিলের জবাবটা বিশ্বকাপের মঞ্চেই দিতে হবে।

পাকিস্তান : বাবর আজম (অধিনায়ক), শাদাব খান (সহ-অধিনায়ক), আসিফ আলী, ফখর জামান, হায়দার আলী, হারিস রউফ, হাসান আলী, ইমাদ ওয়াসিম, মোহাম্মদ হাফিজ, মোহাম্মদ নওয়াজ, মোহাম্মদ রিজওয়ান, মোহাম্মদ ওয়াসিম জুনিয়র, সরফরাজ আহমেদ, শাহিন শাহ আফ্রিদি, শোয়েব মালিক।

নিউজিল্যান্ড : কেন উইলিয়ামসন (অধিনায়ক), টড অ্যাস্টল, ট্রেন্ট বোল্ট, মার্ক চ্যাপম্যান, ডেভন কনওয়ে, লুকি ফার্গুসন, মার্টিন গাপটিল, কাইল জেমিসন, ড্যারিল মিচেল, জিমি নিশাম, গ্লেন ফিলিপস, মিচেল স্যান্টনার, টিম সেইফার্ট, ইশ সোধি, টিম সাউদি।



আরো সংবাদ