২৪ জানুয়ারি ২০২১
`

চোখ যখন আশার ফুলে...

আশরাফুল - ছবি - সংগৃহীত

বাংলাদেশ ক্রিকেটে আশার ফুল হয়ে আগমন ঘটেছিল তার। কাজটা যেমন ক্রিকেটীয় আশা আর ব্যাটিং মুগদ্ধতার সুগন্ধে ভরপুর ছিল, নামটাও যেন একই মিশেলে তৈরি মোহাম্মদ আশরাফুল। অনেক চড়াই-উতরাই পেরিয়ে আবারো মাঠে, লক্ষ-কোটি ভক্তের সেই আশরাফুল। স্বল্প সময়ের ক্যারিয়ারে অনেক রেকর্ডই পুরে নিয়েছিলেন নিজের ঝুলিতে। মাঝে আশরাফুলের জীবনের ওপর দিয়ে বয়ে যায় বিশাল এক ঝড়। লণ্ডভণ্ড হয়ে যায় বহু কষ্টে গড়া ক্যারিয়ার।

দীর্ঘ পাঁচ বছর অনেকটা নির্বাসন কাটিয়ে মাঠে ফিরলেও লাল-সবুজ জার্সি আর গায়ে পরা হয়ে উঠেনি তার। তবে এবার সেই সুযোগটাও হাতছানি দিচ্ছে আশরাফুলের। দীর্ঘ সময় পর আবারো বড় কোনো টুর্নামেন্টে খেলতে নামছেন তিনি। এই অপেক্ষা যেমন আশরাফুলকে পুড়িয়েছে, তেমনি এই অপেক্ষা ভক্তকূলকেও করেছে তিক্ত।

আবার ব্যাটে ঝাঁঝটা দেখার পালা। সব কিছুর অবসান সন্নিকটে। বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে রাজশাহীর হয়ে বেক্সিমকো ঢাকার বিপক্ষে আজ দুপুরে মাঠে নামবেন তিনি। খবর শুনে নচে-চড়ে বসেছেন আশরাফুল ভক্তরা। তবে তিনি আবারো কি পারবেন ভক্তদের আশার ফুল হয়ে উঠতে?

গত ক'দিন ধরেই আলোচনার কেন্দ্রবিন্দু হয়ে উঠেছেন আশরাফুল। টুর্নামেন্টের পাশাপাশি স্পটলাইট যেন আশরাফুলের মাথায় তাক করা। সবার চোখ ওই আশার ফুলের দিকেই। আবারো কি ফুলের সুশোভিত মুগদ্ধতা ছড়িয়ে দেবেন আশরাফুল?

মাঠে নামার আগে সেটিই ভক্তদের জানিয়ে রাখলেন এই ব্যাটসম্যান। তিনি প্রস্তুত নিজের সবটুকু দিতে। আশরাফুল বলেন, ‘আমি প্রস্তুত নিজের সেরাটা দেয়ার জন্য। আমাদের ব্যালেন্স একটি টিম গঠন করা হয়েছে, সবাই চেষ্টা করলে ভালো করতে পারবো ইনশাআল্লাহ।’

ভক্তদেরও পাশে থাকার অনুরোধ জানিয়েছেন তিনি। তবে এবারের আশরাফুল অন্য সময়ের চেয়ে বেশি আত্মবিশ্বাসী। তিনি বলেন, ‘ফিটনেস, স্বিল নিয়ে অনেকদিন যাবৎ কাজ করছি। গত আড়াই-তিন মাস সবাই আমাকে সাপোর্ট করেছেন। আল্লাহর রহমতে আমি সেরাটা দিতে প্রস্তুত আছি।’

ভক্তদের অনুরোধ জানিয়েছেন রাজশাহী এবং সবাই যেন আশরাফুলকে সাপোর্ট করেন। টপ টু'তে দলকে নিয়ে যেতে চান তারা। তবে সবকিছুর জন্য ভাগ্যেরও সহায়তা লাগে বলেছেন আশরাফুল।



আরো সংবাদ


রিয়াদের ওপর হামলা ব্যর্থ করার দাবি করেছে সৌদি আরব রংপুরে ধর্ষণ মামলায় যুবকের যাবজ্জীবন এমসি কলেজে গণধর্ষণ : মামলার সাক্ষ্য গ্রহণ পেছাল চিহ্নিত ছিনতাইকারীর পা ভেঙ্গে দু’চোখ নষ্ট করে দিল এলাকাবাসী কারাগারে হলমার্ক জিএমের নারীসঙ্গ, আরো দুই কর্মকর্তা প্রত্যাহার রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী ভ্যাকসিন আগে নিলে অসুবিধা কোথায় : প্রশ্ন রিজভীর মাদরাসা শিক্ষার্থীদের আধুনিক শিক্ষা দিতে জমিয়তে উলামায়ে হিন্দের উন্মুক্ত স্কুল দশম ও দ্বাদশে নিয়মিত ক্লাস, বাকিদের সপ্তাহে ১ দিন মার্কিন-তালেবান চুক্তি পুনর্মূল্যায়নের সিদ্ধান্ত, স্বাগত জানালো কাবুল ব্যাংকের লকার থেকে লাখ লাখ টাকা খেল উই!‌ অবশেষে সর্বোচ্চ আদালতে জামিন পেলেন ছাত্রদল নেতা বাবর

সকল