০২ ডিসেম্বর ২০২০

লজ্জার হার কলকাতার, দ্বিতীয় স্থানে বেঙ্গালুরু

লজ্জার হার কলকাতার, দ্বিতীয় স্থানে বেঙ্গালুরু - ছবি : সংগৃহীত

ব্যাটসম্যানদের যেন আত্মাহুতির মিছিল। অধিনায়ক মরগান স্রোতের প্রতিকূলে আপ্রাণ চেষ্টা করলেন। তাও রক্ষা হলো না। শেষ পর্যন্ত ২০ ওভার খেলতে পারল কলকাতা নাইট রাইডার্স। কিন্তু স্কোর বোর্ডে রান মাত্র ৮৪, উইকেটে পড়ল ৮টি। ৮৫ রানের টার্গেট বেঙ্গালুরু ছুয়ে ফেলল ১৩.৩ ওভারে, উইকেট পড়ল দুটি।

আইপিএলে বুধবার রাতে ৮ উইকেটের দাপুটে জয়ে পয়েন্ট তালিকায় দ্বিতীয়স্থানে উঠে এসেছে বিরাট কোহলির দল। ১০ ম্যাচে ১৪ পয়েন্ট বেঙ্গালুরুর। সমান ম্যাচে ১০ পয়েন্ট নিয়ে চতুর্থ স্থানে কলকাতা।
৪০ রানের মধ্যে ৬ উইকেট পড়ার পর মনে হচ্ছিল কলকাতার ইনিংস পুরো ২০ ওভার টিকবে না। তা না হলেও, এ দিন লজ্জার রেকর্ড করল কলকাতা। ১০ উইকেট পড়েনি, আইপিএলে এমন ইনিংসের ক্ষেত্রে এটাই সর্বনিম্ন স্কোর। মরগান সর্বোচ্চ ৩০ রান করেন। কুলদিপ ১২, বান্টন ১০ রান করেন। বাকিদের কেউই স্পর্শ করতে পারেননি দুই অঙ্কের রান। বল হাতে বেঙ্গালুরুর সব বোলারই ছিলেন সফল। তবে চার ওভারে দুই মেডেনসহ ৮ রানে তিন উইকেট নিয়ে নজর কেড়েছেন মোহাম্মদ সিরাজ। ম্যাচ সেরা তিনিই।

৮৫ রানের টার্গেট বেঙ্গালুরুর কাছে ডাল ভাতের মতোই লেগেছে। ন্যুনতম কাঁপন ধরাতে পারেনি কলকাতার বোলাররা। দুই ওপেনার অ্যারন ফিঞ্চ ও দেবদত্ত পাডিকাল যোগ করেছিলেন ৪৬ রান। ফিঞ্চ (২১ বলে ১৬) ও পাডিকাল (১৭ বলে ২৫) পর পর ফিরলেও কলকাতা ম্যাচে ফেরেনি। তিনে নামা গুরকিরাত সিংহ (২৬ বলে ২১) ও চারে নামা বিরাট কোহালি (১৭ বলে ১৮) ফেরেন ম্যাচ শেষ করে।

অবিচ্ছিন্ন তৃতীয় উইকেটে দু’জনের জুটিতে যোগ হয় ৩৯ রান। জয়সূচক শট আসে কোহালির ব্যাট থেকে।

এই হারের পর ব্যাটিং-বোলিংয়ের পাশাপাশি প্রশ্ন উঠছে মর্গ্যানের নেতৃত্ব নিয়েও। কেন লকি ফার্গুসনকে তিনি দ্রুত আক্রমণে আনলেন না, তা নিয়ে শুরু হয়েছে চর্চা। আগের ম্যাচের নায়ক ফার্গুসনকে এদিন বল দেওয়া হল পাওয়ারপ্লে-র পর সপ্তম ওভারে। তার আগে প্রথম ৬ ওভারে আরসিবি তুলে ফেলেছিল ৪৪।
এই ম্যাচেও কলকাতা নাইট রাইডার্স দলে ফেরেননি সুনীল নারাইন। তিনি ১০০ শতাংশ ফিট নন বলে জানিয়ে দিয়েছিলেন কলকাতা অধিনায়ক। পুরো সুস্থ নন বলে দলে ছিলেন না আন্দ্রে রাসেলও। ২০১২ সালের এপ্রিলের পর এই প্রথম কলকাতা দলে নারাইন ও রাসেলের কেউই নেই। রাসেল ও শিবম মাভির পরিবর্তে দলে এসেছিলেন টম ব্যান্টন ও প্রসিদ্ধ কৃষ্ণ।

 


আরো সংবাদ