০৫ জুন ২০২০

করোনায় অনিশ্চিত দ্বিপাক্ষীক সিরিজগুলো

-

প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের কারণে ২৩ মে বন্ধ হয়ে গেছে আইসিসির সদর দফতর। বাসা থেকে কর্মীদের কাজ করার নিদের্শ দেয় আইসিসি। তাই গতকাল নির্ধারিত আইসিসির সভাটি ভিডিও কনফারেন্সে অনুষ্ঠিত হয়।

করোনাভাইরাসের মধ্যে টি-২০ বিশ্বকাপ ও বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশীপের ভবিষ্যত নিয়ে বৈঠক করে আইসিসি। এ ব্যাপারে এক বিবৃতিতে আইসিসি জানায়, ‘গোটা বিশ্বে মহামারীর প্রভাব নিয়ে আলোচনা হয়েছে বৈঠকে।’

আইসিসির প্রধান নির্বাহি মনু সাহনি জানান, ‘বিশ্বজুড়ে এখন যা পরিস্থিতি, তার সাথে মানিয়ে নিয়ে আমাদের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা নিতে হবে।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমাদের বিস্তৃত ব্যবসায়ের ধারাবাহিকতা এবং আকস্মিক পরিকল্পনা অব্যাহত রেখেছি, যা আমাদের দ্রুত বিকশিত বিশ্বের সাথে খাপ খাইয়ে নিতে সাহায্য করবে। যার মধ্যে আমাদের ফিরে পেতে হবে। আইসিসি বর্তমান অবস্থা বিবেচনায় নিয়ে ভবিষ্যতের ইভেন্টগুলো নিয়ে পরিকল্পনা সাজাচ্ছে। চলমান বিপর্যয় সামলিয়ে কীভাবে ভবিষ্যতের সূচি করা যায় এ নিয়ে সদস্য দেশগুলোর সাথে কাজ করবে আইসিসি।’

এবারের বোর্ড মিটিংয়ে গত বছরের আর্থিক হিসাব তুলে ধরা হয়। এছাড়াও জানানো হয়, আগামী অক্টোবরে অস্ট্রেলিয়া টি-২০ বিশ্বকাপ শুরু হতে চলেছে। আগামী জুনে লর্ডসে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশীপের ফাইনাল অনুষ্ঠিত হবে।

কোনো দ্বিপাক্ষীক সিরিজ বাতিল হলে কী করা হবে, এখনও কোনো সিদ্ধান্তে আসতে পারেনি আইসিসি। কারণ করোনাভাইরাসের কারণে ইতোমধ্যে বেশকয়েকটি সিরিজ স্থগিত হয়েছে।


আরো সংবাদ





justin tv