০১ জুলাই ২০২২, ১৭ আষাঢ় ১৪২৯,
`

আইফোনে ইউএসবি-সি পোর্ট আনবে অ্যাপল

-


অ্যাপল প্রচলিত ইউএসবি-সি পোর্ট নিয়ে আইফোনে পরীক্ষা করছে। অ্যাপল স্মার্টফোনে প্রতিষ্ঠানটির নিজস্ব ‘লাইটনিং কানেকটর’ ব্যবহার করছে ২০১২ সাল থেকে। যদিও, সম্প্রতি ইলেকট্রনিক বাজার রাজত্ব করছে সামান্য বড় আকারের ইউএসবি-সি পোর্ট। অ্যাপলের অন্যান্য পণ্যও এই পোর্ট ব্যবহার করছে। সাম্প্রতিক বছরগুলোতে অ্যাপলকে লাইটনিং থেকে সরে ইউএসবি-সি পোর্টে আসার আহ্বান জানিয়ে আসছিলেন সরকারি নিয়ন্ত্রকরা। এই আহ্বান কঠিন এক পরিস্থিতির মধ্যে ফেলে দিয়েছে অ্যাপলকে। তাদের হাতে তিনটি সম্ভাব্য উপায় আছে। তবে, প্রতিটি উপায়ের কিছু উল্লেখযোগ্য অসুবিধাও রয়েছে।
এক দিকে, প্রতিষ্ঠানটি লাইটনিং কানেকটর বহাল রাখতে পারে। তার মানে, যেসব গ্রাহক আইফোন ব্যবহার করছেন, তাদেরকে আর নতুন অ্যাডাপ্টার, তার বা চার্জার কেনা লাগবে না। পাশাপাশি, নতুন পণ্য বাজারে আনতে অ্যাপল পণ্য নির্মাতাদেরও একদম শুরু থেকে কাজ করতে হবে না।
অন্যদিকে, অ্যাপল আইফোনে ইউএসবি-সি পোর্ট আনতে পারে। এতে, ম্যাকসহ অন্যান্য গ্যাজেটের সাথেও ভালোভাবে কাজ করতে পারবে ডিভাইসটি। তবে, এই পদক্ষেপ গ্রাহকদের মধ্যে বিভ্রান্তি এবং পণ্য নির্মাতাদের মধ্যে বিশৃঙ্খলা তৈরি করতে পারে। ফলে, গ্রাহকের ডিভাইস ব্যবহার অভিজ্ঞতার উপর নিয়ন্ত্রণ হারাতে পারে অ্যাপল।
আর তৃতীয় উপায় হচ্ছে, পুরোপুরি তারবিহীন সংযোগ। তবে, তারবিহীন সংযোগের কারণে সাধারণত দ্রুত ও দক্ষতার সাথে ডেটা বা চার্জ পাঠানো যায় না।
ইউরোপীয় ইউনিয়ন নতুন একটি আইন আনছে, যেখানে মোবাইল ফোন, ট্যাবলেট, ডিজিটাল ক্যামেরা, হেডফোন ও হেডসেট, হাতে ধরা যায় এমন ভিডিও গেম কনসোল এবং পোর্টেবল স্পিকারে ইউএসবি-সি পোর্ট থাকতে হবে। ধারণা করা হচ্ছে, ইউরোপীয় ইউনিয়নের নতুন নীতির কারণে এই সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হতে পারে প্রতিষ্ঠানটি। অবশেষে অ্যাপল সক্রিয়ভাবে দ্বিতীয় উপায়টি পরীক্ষা করে দেখছে। এর মানে হচ্ছে, অ্যাপল ইউএসবি-সি পোর্টের দিকে যেতে পারে।


আরো সংবাদ


premium cement