০৮ মার্চ ২০২১
`

নজিবর রহমান সংস্কৃতি ও ঐতিহ্যের ভিত্তিস্থাপনকারীদের অন্যতম ব্যক্তিত্ব : প্রফেসর ড. আব্দুল খালেক

-

রাজশাহী বিশ^বিদ্যালয়ের সাবেক ভাইস চ্যান্সেলর অধ্যাপক ড. আব্দুল খালেক বলেছেন, আমাদের সাহিত্য, সংস্কৃতি ও ঐতিহ্যের যারা মূলভিত্তি রচনা করেছেন নজিবর রহমান তাদের অন্যতম। নজিবর রহমান বাংলা কথাসাহিত্যের অন্যতম দিকপাল। তিনি মুসলিম কথাসাহিত্যিকদের মধ্যে প্রথম এবং সর্বাধিক জনপ্রিয়। শিক্ষা, সাহিত্য, সমাজসেবা ইত্যাদি বিভিন্নভাবে তিনি অধঃপতিত জাতির উন্নয়নে প্রাণপণ চেষ্টা করে গেছেন। আমরা তার যথাযথ মূল্যায়ন করিনি।
গত শুক্রবার রাতে নজিবর রহমান সাহিত্যরতœ ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে এক ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। নজিবর রহমানের নামে ফাউন্ডেশন গঠিত হওয়ায় তিনি সন্তোষ প্রকাশ করেন ও উদ্যোক্তাদের ধন্যবাদ জানান। তিনি ফাউন্ডেশনের সব কাজে সহযোগিতার আগ্রহ প্রকাশ করেন। তিনি ভবিষ্যতে শাহজাদপুর ‘রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে’ নজিবর রহমান হল প্রতিষ্ঠাসহ তার নামে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গঠন ও রাস্তার নামকরণের দাবি জানান।
ফাউন্ডেশনের সভাপতি অধ্যাপক মুহম্মদ মতিউর রহমানের সভাপতিত্বে সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে কানাডা থেকে অংশগ্রহণ করেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ নুরুল ইসলাম। আলোচনায় অংশ নেন ফাউন্ডেশনের সহসভাপতি মুহাম্মদ আব্দুল হান্নান, ইতিহাসবিদ লেখক ও গবেষক মোহাম্মদ আশরাফুল ইসলাম, নর্দান ইউনিভার্সিটির সহকারী অধ্যাপক মোহাম্মদ জসিমউদ্দিন, লেখকের নাতি ও ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট গোলাম হাসনায়েন। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন ইঞ্জিনিয়ার জাহাঙ্গীর আলম বিপুল।
সভাপতির বক্তব্যে অধ্যাপক মতিউর রহমান বলেন, নজিবর রহমান মুসলিম বাংলা কথাসাহিত্যের পথিকৃৎ। অথচ তার যথাযথ মূল্যায়ন হয়নি।



আরো সংবাদ


অনৈতিক সম্পর্ক দেখে ফেলায় যুবককে খুন খালেদা জিয়ার চিকিৎসায় হাসপাতাল নির্দিষ্ট করে দেয়া হয়নি : আইনমন্ত্রী পথশিশুদের জন্য আহমদ শফির ভ্রাম্যমাণ মাদরাসা নিবন্ধনধারীদের এমপিওভুক্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিয়োগের নির্দেশ ইয়েমেনে শরণার্থী শিবিরে আগুন, মৃত্যু ৮ জনের হিন্দুত্ববাদী সংগঠনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থার আহ্বান অস্ট্রেলীয় সিনেটরের মেগান কালো! ঘুম ছুটে গিয়েছিল ব্রিটিশ রাজপরিবারে লোহাগাড়ায় মুসলিম এইডের উদ্যোগে নারী দিবস উদযাপিত তালেবান আক্রমণাত্মক হয়ে উঠতে পারে : যুক্তরাষ্ট্রের সতর্কতা আজকে নারীরা বন্দী : মির্জা ফখরুল সৈয়দপুরে রাস্তা দখল করে ঘর স্থাপন : নিষেধ করায় হত্যার হুমকি

সকল