০৪ জুলাই ২০২০
আকাশে উড়ার পর যান্ত্রিক ত্রুটি

ময়ূরপঙ্খির জরুরি অবতরণ

-

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের সিঙ্গাপুরগামী উড়োজাহাজ ময়ূরপঙ্খি গতকাল বৃহস্পতিবার জরুরি অবতরণ করেছে। আকাশে উড়ার কিছুক্ষণ পরই উড়োজাহাজটিতে যান্ত্রিক ত্রুটি ধরা পড়ে। পাইলট বিপদ আঁচ করতে পেরে উড়োজাহাজ ঘুরিয়ে আবারো ঢাকার হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে নিরাপদে অবতরণ করান। এতে অল্পের জন্য দুর্ঘটনার হাত থেকে রক্ষা পান পাইলট, কেবিন ক্রুসহ ও দেড় শ’ যাত্রী।
গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে এ ঘটনা ঘটে। অবশ্য ময়ূরপঙ্খির যাত্রীদের কিছুক্ষণ পর বিমানেরই অপর একটি ফ্লাইটে তুলে গন্তব্য পাঠানোর ব্যবস্থা করে কর্তৃপক্ষ।
এ প্রসঙ্গে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের উপ-মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) তাহেরা খন্দকার নয়া দিগন্তকে বলেন, বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা ২৫ মিনিটে উড়োজাহাজটি (বিজি-০৮৪) সিঙ্গাপুরের উদ্দেশে ঢাকার হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে উড্ডয়ন করে। উড়ার আধঘণ্টা পর ক্যাপ্টেন ল্যান্ডিং গিয়ারে সমস্যা দেখতে পান। তখন এটি ব্যাক করে সকাল সাড়ে ৯টায় শাহজালাল বিমানবন্দরে আবার সেফ ল্যান্ডিং করে। তিনি বলেন, এ ধরনের টেকনিক্যাল ল্যান্ডিং খুবই স্বাভাবিক ঘটনা। সব এয়ারলাইন্স সব সময় করে থাকে। যে উড়োজাহাজটি ল্যান্ড করেছে সেটি বোয়িং-৭৩৭। যাত্রীদের মধ্যে তিনজন বিজনেস ক্লাসের এবং ১৪০ জন ইকোনমি ক্লাসের। এ ছাড়া ককপিট এবং কেবিন ক্রু ছিলেন সাতজন। এক ঘণ্টা পর বিমানের অপর একটি ফ্লাইটে (বোয়িং-৭৩৭) যাত্রীদের সিঙ্গাপুর পাঠানো হয়।
বিমানের প্রকৌশল শাখা সূত্রে জানা গেছে, পাইলট এয়ারক্র্যাফট নিয়ে উড্ডয়নের পর ল্যান্ডিং গিয়ার ভেতরে প্রবেশ করানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু কোনোভাবে সেটি ভেতরে প্রবেশ না করায় একপর্যায়ে ঢাকায় ফেরার সিদ্ধান্ত নেন তিনি। এরপর তিনি, জরুরি অবতরণের জন্য রানওয়ে ক্লিয়ার করতে কন্ট্রোল টাওয়ারে মেসেজ পাঠান। অবতরণের আগে আগে পাইলট ঢাকার আকাশে উড়োজাহাজ ময়ূরপঙ্খি নিয়ে একাধিকবার চক্কর দেন বলে সূত্রে জানা গেছে।
এ দিকে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের নতুন ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও মোকাব্বির হোসেন দায়িত্ব গ্রহণের পর গত বুধবার বিমানের প্রধান কার্যালয় বলাকা ভবনে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন। এ সময় তিনি বলেন, ‘আগামী দিনে বিমানকে লাভজনক প্রতিষ্ঠানে পরিণত করাই হবে আমার প্রধান কাজ। আমার আর অন্য কোনো এজেন্ডা নেই। আমি ট্রান্সপারেন্ট।’ আর অতীতে কী হয়েছে তা ভুলে যেতে চাই। যারা দুর্নীতির সাথে জড়িত ছিলেন, তাদের বিষয়ে আইন অনুযায়ী তদন্ত চলছে। আমিও আইনের বাইরে কিছু করব না।

 


আরো সংবাদ

কাশ্মিরের ছবি ঘিরে তোলপাড় : নাতি বলল, দাদুকে পুলিশই গুলি করে মেরেছে (১০৮০৬)‘হয় রাস্তা নির্মাণ করুন, না হলে বাংলাদেশে যেতে দিন’ (১০৪১৮)হঠাৎ লাদাখে মোদি (৯৩৫৩)সিরাজউদ্দৌলার হত্যাকারীদের যা পরিণতি হয়েছিল (৭৮৮২)রূপগঞ্জে ব্যবসায়ীকে হত্যার পর লাশ ড্রামে ভরে সিমেন্টের ঢালাই, ৯০ দিন পর উদ্ধার (৭২৭২)ভারতে আসামি ধরতে গিয়ে ৮ পুলিশ নিহত (৬০৯৮)ভেনিজুয়েলাগামী ইরানের তেল ট্যাঙ্কার জব্দের নির্দেশ যুক্তরাষ্ট্রের (৫০৩৩)এরদোগান-ম্যাক্রোঁ দ্বন্দ্ব সংকটে ফেলছে ন্যাটোকে (৫০১৫)ভারতীয় সেনাবাহিনী পৃথিবীতে সবচেয়ে শক্তিশালী : মোদি (৪৬৭৫)আয়া সোফিয়া জাদুঘর থাকবে না মসজিদ হবে, ঠিক হবে আদালতে (৪৫৯২)