২৮ জানুয়ারি ২০২৩, ১৪ মাঘ ১৪২৯, ৫ রজব ১৪৪৪
ads
`

অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে জনগণের সেবা করতে চান কামরুল

অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে জনগণের সেবা করতে চান কামরুল - ছবি : নয়া দিগন্ত

ফেনী-০৩ (সোনাগাজী-দাগনভুঞা) আসনে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ থেকে দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশি আওয়ামী লীগ নেতা, বাংলাদেশ বস্ত্র ও পোষাক শিল্প শ্রমিক লীগ সভাপতি এবং সেভ দ্যা রোড চেয়ারম্যান জেড এম কামরুল আনাম। তিনি জাতীয় ও আর্ন্তজাতিক অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে স্থানীয় এলাকায় জনগণের সেবায় কাজ করতে চান।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, জেড এম কামরুল আনাম সোনাগাজীর চরদরবেশ ইউনিয়নের সেনেরখিল গ্রামের মৃত এ বি এম শাহাবুদ্দিন এবং হুর জাহান বেগমের ঘরে ১১ জানুয়ারি ১৯৫৭ সালে জন্মগ্রহণ করেন।

১৯৭৩ সালে মঙ্গোলকান্দি হাইস্কুলের ছাত্রত্ব থেকে ছাত্রলীগের সক্রিয় রাজনীতিতে জড়িয়ে পড়েন। মঙ্গলকান্দি হাইস্কুল ছাত্রলীগের এ.জি.এস হিসেবে (১৯৭২-৭৩), বঙ্গবাসি কলেজের ছাত্র সংসদের জি.এস হিসেবে (১৯৭৬-১৯৭৮) এবং জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের ব্যবস্থাপনা বিভাগের (নৈশ) এজি.এস.এর (১৯৮২-৮৪) দায়িত্ব পালন করার মধ্যে দিয়ে এমবিএ শেষ করেন জাতীয় পর্যায়ে রাজনীতি ও ট্রেড ইউনিয়নে জড়িয়ে পড়েন।

জাতীয় পর্যায়ে স্ব-দলীয় বিভিন্ন দায়িত্ব পালন শেষে সোনাগাজী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবে সাত বছর (২০০৬-২০১২) গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেন ফেনী জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য হিসেবে ২০১২ সাল থেকে দায়িত্ব পালন করছেন। আওয়ামী লীগের রাজনীতির পাশাপাশি তিনি জাতীয় প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ লেবার ফাউন্ডেশনের মহাসচিব, বাংলাদেশ বস্ত্র ও পোষাক শিল্প শ্রমিক লীগ সভাপতি, সেভ দ্যা রোড চেয়ারম্যান এবং শ্রমিক কর্মচারী পেশাজীবী মুক্তিযোদ্ধা সমন্বয় পরিষদের সদস্য সচিব, গার্মেন্টস শ্রমিক সমন্বয় পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক এবং নাট্যাচার্য্য সেলিম আল দীন স্মৃতি পরিষদের সভাপতির মত গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব সফলতার সাথে পালন করেন।

একই সাথে তিনি ট্রেড ইউনিয়ন সংগঠক এবং সমাজসেবক হিসেবে জাতীয় এবং আন্তর্জাতিকভাবে খ্যাতি লাভসহ সিটি সমাজ কল্যাণ সংস্থা কর্তৃক প্রদত্ত স্বর্ণপদক, জাতীয় সাহিত্য-সাংস্কৃতিক ও সামাজিক সংগঠন সাউন্ডবাংলা গোল্ডেনবুক সম্মাননা ২০০৭, মাওলানা ভাসানী স্বর্ণপদক ২০১২, স্বাধীনতা সংসদ প্রদত্ত কাজী নজরুল ইসলাম পদক ও একুশে সম্মাননা পদক ২০১২, ইউ এস৬ এ’র আই এ আই, এ বি সি পদক, ফেনী বন্ধু পরিষদ সম্মাননা ২০০৩, জাপানস্থ - জেনসন অ্যাওয়ার্ড- ১৯৯০, স্বপ্নালোক স্বর্ণকলম সম্মাননা ২০০৮, বিজিএমইএ সম্মাননা পদক ২০০৯, হিউম্যান রাইট সোসাইটি অ্যাওয়ার্ড ২০০৯, ডক্টর মুহম্মদ শহীদুল্লাহ সম্মাননা পদক ২০১৭, বাংলাদেশ মেধা বিকাশ সোসাটির ম্যান অফ দ্যা ইয়ার সম্মাননা ২০১৪, নাট্যচার্য সেলিম আল দীন স্মৃতি পরিষদের শ্রেষ্ঠ সমাজসেবক সম্মননা ২০১১ সম্মাননা পদকে ভূষিত হয়েছেন।

বাংলাদেশ বস্ত্র ও পোশাক শিল্প শ্রমিক লীগের সভাপতি হিসেবে ১৯৯০ সাল থেকে অদ্যবধি দায়িত্ব পালন করছেন। বিভিন্ন সংস্থা ও লেবার অ্যাসোসিয়েশন জাতীয় পর্যায়ের নেতৃত্বে থাকার সুবাধে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশের হয়ে সভা-সেমিনার বৈঠকে বাংলাদেশকে তুলে ধরছেন।

আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের সাথে যোগাযোগ এবং তৃণমূলে জনপ্রিয়তার কারণে আওয়ামী লীগ থেকে উপজেলা চেয়ারম্যান হিসেবে পর পর দু’বার (২০০৯-২০১৮) মনোনয়ন দেয়া হলে তিনি জনগনের প্রত্যক্ষ বিপুল ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছিলেন। সাবেক এই উপজেলা চেয়ারম্যান আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্ব-দলীয় মনোনয়ন পেতে স্থানীয় জনগন ও সংগঠনের সাথে দীর্ঘ দিন কাজ করে যাচ্ছেন। সোনাগাজীর উন্নয়ন অগ্রযাত্রা, সচেতনতা, মানবিক সহায়তা, রাজনৈতিক সহ অবস্থান এবং জনপ্রতিনিধি হিসেবে নিজের সেবামূলক কার্যক্রম অব্যাহত রাখায় কামরুল আনাম সামাজিক সকল স্তরে প্রশংসিত হচ্ছেন।

সোনাগাজীর মাটি ও মানুষের সুখে দু:খে একাকার এবং সহনশীলতার কারণে স্ব-দলীয় নেতৃত্বের পালা বদল হলেও তৃণমূলের মানুষের কাছে তার অবস্থান একি রকম রয়ে গেছে। তৃণমূল আওয়ামী লীগ নেতাকর্মী ও সাধারণ জনগনের সাথে যোগাযোগ বেড়ে যাওয়ায় আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হয়ে জনগণের বিজয় ছিনিয়ে আনতে চান।

এ বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে জেড এম কামরুল আনাম বলেন, ‘সোনাগাজী-দাগনভুঞার মাটি ও মানুষের জন্য কাজ করে যাচ্ছি। বাকি মূল্যয়ণ সাধারণ মানুষ ও দলের কাছে। ব্যক্তিগত জীবনে চাওয়া-পাওয়ার হিসেব না মিলিয়ে, জীবনের অধিকাংশ সময় পার করেছি মানুষের কল্যাণে। বাকিটা সময়ও মানুষের জন্য কাজ করে যেতে চাই।’


আরো সংবাদ


premium cement