২০ আগস্ট ২০২২
`

সরাইলে মসজিদ কমিটির দ্বন্দ্বে প্রবাসীকে হত্যা

সরাইলে মসজিদ কমিটির দ্বন্দ্বে প্রবাসীকে হত্যা - ছবি : সংগৃহীত

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে মসজিদ কমিটি নিয়ে বিরোধে জেরে আব্দুর রশিদ নামের এক সৌদি প্রবাসীকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।

বুধবার রাতে উপজেলার চুন্টা ইউনিয়নের রসুলপুর গ্রামের পূর্বপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত আব্দুর রশিদ একই এলাকার মৃত মতি মিয়ার ছেলে। দীর্ঘ দিন সৌদি আরবে থেকে দেশে ফেরার পাঁচ দিনের মাথায় তিনি খুন হয়েছেন।

জানা গেছে, রসুলপুর পূর্বপাড়া বায়তুন নূর জামে মসজিদে দীর্ঘ দিন ধরে উম্মেদ আলী সভাপতি ও সাবেক মেম্বার ফিরোজ মিয়া সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করে আসছেন। বুধবার মাগরিবের নামাজের পর কমিটির হিসাব-নিকাশ নিয়ে মসজিদের ভেতরে এক সভায় বসেন গ্রামের বাসিন্দারা।

নিহত আবদুর রশিদের ছেলে মোঃ জামিল অভিযোগ করে বলেন, আমার বাবা মাত্র পাঁচ দিন আগে সৌদি আরব থেকে দেশে ফিরেছেন। এলাকার জিল্লু মিয়া ও তার পক্ষের লোকজনের কথার প্রেক্ষাপটে সভায় আমার বাবা বলেন, মসজিদ কমিটি নিয়ে দলাদলির দরকার নেই। যে কমিটি আছে, সেটাই থাকবে। এ নিয়ে জিল্লুসহ তার পক্ষের লোকদের সাথে আমার বাবার বাকবিতণ্ডা হয়। এশার নামাজের পর জিল্লুসহ তার সহযোগীরা আমার বাবার ওপর হামলা করে এবং এলোপাথাড়ি কুপিয়ে তাকে রক্তাক্ত অবস্থায় ফেলে রেখে যায়।

এ ব্যাপারে চুন্টা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হুমায়ূন কবীর বলেন, এ ঘটনায় যারা প্রকৃত দোষী তাদের খুঁজে বের করে আইনের আওতায় আনা হোক। যারা দোষী নয় তাদেরকে যেন জড়ানো না হয় এ ব্যাপারে প্রশাসনসহ সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি অনুরোধ রইল।

থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ আসলাম হোসেন বলেন, মসজিদের হিসাব-নিকাশ নিয়ে দু’পক্ষের মধ্যে ধাক্কাধাক্কি ও কথা কাটাকাটি হয়। পরে উভয় পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা ও সংর্ঘষ হয়। এ সময় আব্দুর রশিদ গুরুতর আহত হয়। তাকে সরাইল উপজেলা সদর হাসপাতালে নেয়া হলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।


আরো সংবাদ


premium cement