১২ আগস্ট ২০২০

ছাগলনাইয়ায করোনায় মৃতদের দাফনে ‘উপজেলা চেয়ারম্যান করোনা কুইক রেসপন্স টিম’

ছাগলনাইয়ায করোনায় মৃতদের দাফনে ‘উপজেলা চেয়ারম্যান করোনা কুইক রেসপন্স টিম’ -
24tkt

করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়ে মৃত ছাগলনাইয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক ঘুগ্মসাধারণ সম্পাদক জুলফিকুল ছিদ্দিকীর (৫২) লাশ দাফনেও এগিয়ে এলো উপজেলা চেয়ারম্যানের করোনা কুইক রেসপন্স টিম। শুক্রবার রাত ১০টায় ছাগলনাইয়া উপজেলার ঘোপালের আলোকদিয়া গ্রামে করোনায় মৃত ওই নেতাকে উপজেলা চেয়ারম্যানের করোনা কুইক রেসপন্স টিমের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান সমন্বয়ক ছাগলনা‌ইয়া উপজেলা চেয়ারম্যান এবং উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মেজবাউল হায়দার চৌধুরীর নেতৃত্বে জানাযা শেষে দাফন সম্পন্ন করেন টিমের সদস্যরা। জানাযা পূর্ব সমাবেশে আগত মুসল্লিদের উদ্দেশে দলের একজন ত্যাগী নেতা জুলফিকুল ছিদ্দিকীকে হারানোকে তার পরিবারের একজন সদস্যকে হারানোর কথা উল্লেখ করে আবেগ-আপ্লুত হয়ে পড়েছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান সোহেল চৌধুরী।

এ সময় প্রয়াত জুলফিকুর ছিদ্দিকীর আত্মার মাগফেরাত কামনা করে সবার কাছে তার জন্য দোয়া ও ক্ষমা প্রার্থনা করেছেন তিনি। প্রত্যেকের কাছে তার নিজের জীবন ও পরিবারের জন্য এমন একটি মুহূর্ত আসতে পারে এমন কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে জুলফিকুর ছিদ্দিকীর পাওনাগুলো তার রেখে যাওয়া এতিম সন্তানদের জন্য স্ত্রীর কাছে ফেরত দেয়ার অনুরোধ করেছেন তিনি।

জানা যায় ছাগলনাইয়া থানার ওসি মেজবাহ উদ্দিন আহমদ, ঘোপাল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আজিজুল হক মানিক, স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা আলমগীর কবির রনিসহ স্থানীয় ব্যক্তিবর্গ ও মৃতের স্বজনেরা বক্তব্য রাখেন।

করোনায় মৃত জুলফিকুর ছিদ্দিকীর জানাযা ও দাফন কাজে উপজেলা চেয়ারম্যান করোনা কুইক রেসপন্স টিমের সাহসী চৌকস সদস্য ছাগলনাইয়া পৌরসভার কাউন্সিলর কামাল উদ্দিন খোকন, ছাত্রলীগ নেতা মো: হানিফ, যুবলীগ নেতা রহমত উল্লাহসহ ১২ জন সদস্য দাফন কাজ সম্পন্ন করেন। এ ছাড়া সাংবাদিক, জনপ্রতিনিধি, আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগের বিপুলসংখ্যক স্থানীয় নেতাকর্মী ছাড়াও কয়েকশ এলাকাবাসী জীবনের ঝুঁকি উপেক্ষা করে প্রয়াত জুলফিকুল ছিদ্দিকীর জানাযায় শরীক হয়েছিলেন।

প্রসঙ্গত, করোনা দুর্যোগ শুরু থেকে ছাগলনাইয়া উপজেলাবাসীকে করোনা দুর্যোগে বিভিন্ন সেবা প্রদানের মহান ব্রত নিয়ে একটি ভাড়া করা অ্যাম্বুলেন্সসহ বিপুলসংখ্যক ত্যাগী সেচ্ছাসেবক নিয়ে গঠন করা হয় ছাগলনাইয়া উপজেলা চেয়ারম্যান করোনা কুইক রেসপন্স টিম। উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নে ওই টিমের সদস্যরা দায়িত্ব পালন করছেন বলে জানা গেছে।

কুইক রেসপন্স টিমের প্রধান সমন্বয়কের দায়িত্ব পালন করছেন উপজেলা চেয়ারম্যান করোনা কুইক রেসপন্স টিমের প্রতিষ্ঠাতা, পৃষ্টপোষক, ছাগলনাইয়া উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মেজবাউল হায়দার চৌধুরী সোহেল।

করোনা দুর্যোগ শুরু থেকে উপজেলা চেয়ারম্যান সোহেল চৌধুরীর নেতৃত্বে কুইক রেসপন্স টিমের মাধ্যমে অসহায়, দুস্থ, কর্মহীন, মধ্যবিত্তদের ঘরে ঘরে দিনে-রাতে খাদ্য ও ত্রাণসামগ্রী পৌঁছে দিয়ে ব্যাপক সুনাম অর্জন করে চলেছে উপজেলা চেয়ারম্যান করোনা কুইক রেসপন্স টিম। এদিকে উপজেলার পৌর শহর থেকে পাড়া-মহল্লায় করোনা ভাইরাসের সংক্রমন ছড়িয়ে পড়ায় করোনায় ও করোনা উপসর্গ নিয়ে অনেকে মৃত্যুবরণ করেছেন। করোনা উপসর্গ নিয়ে মৃতদের থেকে সংক্রমনের আশঙ্কায় অনেক ক্ষেত্রে মৃত ব্যক্তির স্বজনেরা লাশ দাফনে অনীহা দেখানোর অভিযোগ পাওয়া যায়। মানুষের শেষ বিদায়কে সম্মানের করতে ও অসহায়দের পাশে দাঁড়ানোর মহান ব্রত নিয়ে ছাগলনাইয়া উপজেলা চেয়ারম্যান মেজবাউল হায়দার চৌধুরী সোহেলের নেতৃত্বে করোনায় ও উপসর্গ নিয়ে মৃত ব্যক্তিদের একের পর এক লাশ দাফন সম্পন্ন করতে এগিয়ে যাচ্ছে উপজেলা চেয়ারম্যান করোনা কুইক রেসপন্স টিমের সদস্যরা। এ টিমের সদস্যরা সম্মান-শ্রদ্ধা ও ভালোবাসার সহানুভূতির হাত বাড়িয়ে মৃতদের দাফনকাজ সম্পন্ন করে ছাগলনাইয়া উপজেলায় ব্যাপক সাড়া জাগিয়েছে।

উপজেলা চেয়ারম্যান করোনা কুইক রেসপন্স টিমের গঠন ও কার্যাবলী নিয়ে শুক্রবার রাতে এর প্রতিষ্ঠাতা, পৃষ্টপোষক ও প্রধান সমন্বয়ক ছাগলনাইয়া উপজেলা চেয়ারম্যান মেজবাউল হায়দার চৌধুরী সোহেল জানান, ছাগলনাইয়া উপজেলা পরিষদ উপজেলার সাড়ে তিন লাখ মানুষের ঠিকানা। শুধু তাদের সুখের দিনে নয়, দুখের দিনেও তাদের পাশে থাকতে উপজেলা চেয়ারম্যান করোনা কুইক রেসপন্স টিম গঠন করা হয়েছে। বৈশ্বিক করোনা মহামারিতে মৃতদের প্রতি তার স্বজন ও এলাকাবাসী অবহেলার চোখে দেখেন। তাদের দাফন কাজে অনেক সময় এগিয়ে আসতে সাহস পায় না, মৃত ব্যক্তির প্রতি মানবিক আচরণের মাধ্যমে শেষ বিদায়টা সুন্দর ও সম্মানের করতে তিনি উপজেলা চেয়ারম্যান কুরোনা কুইক রেসপন্স টিম গঠন করেছেন বলে জানান এ মানব দরদী সেবক।


আরো সংবাদ