১৪ জুলাই ২০২০

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে তালিকাভূক্তদের সাক্ষাৎকার চলছে

মিয়ানমারে প্রত্যাবাসনের জন্য তালিকাভূক্ত রোহিঙ্গাদের সাক্ষাৎকার বা মতামত যাচাই অব্যাহত রয়েছে। শনিবার চতুর্থ দিনের মতো সাক্ষাৎকার নিচ্ছে জাতিসঙ্ঘের মানবাধিকার কমিশন-ইউএনএইচসিআর এবং শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনের কর্মকর্তারা।

এর আগে গত ৩দিনে টেকনাফের শালবাগান ক্যাম্পে ৩৬১ রোহিঙ্গা পরিবারের সাক্ষাৎকার নেয়া হয়েছে। মিয়ানমারে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বাংলাদেশ সকল প্রস্তুতি নিলেও গত বৃহস্পতিবার রোহিঙ্গারা নিজ দেশ মিয়ানমারে স্বেচ্ছায় ফেরত যেতে রাজি না হওয়ায় প্রত্যাবাসন শুরু করা সম্ভব হয়নি। নিরাপদ পরিবেশ নিশ্চিত না হলে মিয়ানমারে ফিরতে রাজি নয় এসব রোহিঙ্গা পরিবার।

কক্সবাজার শরনার্থী, ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মোঃ আবুল কালাম জানিয়েছেন, মিয়ানমারের ছাড়পত্র পাওয়া ৩হাজার ৪৫০ জন রোহিঙ্গার ১হাজার ৩৭টি পরিবার প্রধানের পর্যায়ক্রমে সাক্ষাৎকার বা মতামত যাচাই করা হচ্ছে। গত ৩দিনে টেকনাফের ২৪, ২৫ ও ২৬ নম্বর রোহিঙ্গা কাম্পের ৩৬১টি পরিবারের সাক্ষাৎকার নেয়া হয়েছে। এদের মধ্যে স্বেচ্ছায় কেউ মিয়ানমার যেতে চাইলে যে কোন দিন প্রত্যাবাসন শুরু হতে পারে। টেকনাফের ৩টি রোহিঙ্গা কাম্পে প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত রোহিঙ্গাদের মতামত যাচাই করা হচ্ছে। ইউএনএইচসিআর এবং শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনের কর্মকর্তাদের সমন্বয়ে ৮টি টিম কাজ করছে।


আরো সংবাদ