১৬ মে ২০২২
`

মুলাদীতে আড়িয়াল খাঁর ভাঙনে দিশেহারা এলাকাবাসী

জিও ব্যাগ ফেলেও কাজ হচ্ছে না
মুলাদীর আলীমাবাদ এলাকায় ভাঙন রোধে ফেলা জিও ব্যাগ নদীতে বিলীন হয়ে যাচ্ছে : নয়া দিগন্ত -

বরিশালের মুলাদীতে আড়িয়াল খাঁ ও জয়ন্তী নদীর মোহনায় নতুন করে ভাঙন শুরু হয়েছে। বাটামারা ইউনিয়নের আলীমাবাদ এলাকায় এ ভাঙন শুরু হয়। নদীতে জিও ব্যাগ ফেলার পরও কোনোভাবেই ভাঙন রোধ করা যাচ্ছে না। প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হলেও কোনো কাজে আসছে না।
এলাকাবাসী জানান, রাতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের কারণে ভাঙনের সৃষ্টি হচ্ছে। নদীভাঙনের শিকার ভুক্তভোগীরা জানান, সাধারণত বর্ষা মৌসুমের শুরু ও শেষের দিকে ব্যাপক নদীভাঙন দেখা দেয়। কিন্তু চলতি বছর আলীমাবাদ রামচর এলাকায় শীতকালেও নদীভাঙন দেখা দিয়েছে। এ এলাকায় ইতঃপূর্বে কয়েকবার জিও ব্যাগ ফেলে নদীভাঙন রোধের চেষ্টা করা হয়েছে। কিন্তু কোনো ব্যবস্থাই কাজে আসছে না। ভাঙনে বাটামারা ইউনিয়নের এবিআর মাধ্যমিক বিদ্যালয়সহ অনেক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান হুমকির মুখে পড়েছে।
আলীমাবাদ গ্রামের জাফর তালুকদার জানান, বাটামারা ইউনিয়নে তাদের গ্রামটি অনেক বড় ছিল। কয়েক বছর ধরে ভাঙনে এ গ্রামের অনেক পরিবার ভিটেমাটি হারিয়ে এলাকা ছেড়ে চলে যেতে বাধ্য হয়েছে। গত বর্ষা মৌসুমে আড়িয়াল খাঁ ও জয়ন্তী নদীতে ব্যাপক ভাঙন দেখা দেয়। বর্ষার পরে কিছুটা কমে যায়। এখন আবার শুরু হয়েছে।
একই গ্রামের জালাল আহম্মেদ জানান, বালু উত্তোলনের ফলে নদীতে ভাঙন সৃষ্টি হয়। বালু ব্যবসায়ীরা রাতে ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলন করছে। বেশির ভাগ বালু উত্তোলনকারী দিনে পাশের কালকিনি উপজেলায় চলে যায়। রাত হলেই আলীমাবাদ এলাকায় ঢুকে বালু কেটে নেয়। এতে বালু ব্যবসায়ীরা লাভবান হলেও নদীভাঙনে শতাধিক পরিবার ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে।
পানি উন্নয়ন বোর্ডের বাবুগঞ্জ উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী জাবেদ ইকবাল জানান, মুলাদী উপজেলার আলীমাবাদ এলাকায় ভাঙন রোধে জিও ব্যাগ ফেলা হয়েছে। এ বছরও ভাঙন রোধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।
মুলাদী উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) রিয়াজুর রহমান জানান, মুলাদী উপজেলায় কোনো বালুমহাল নেই। তাই যেকোনো স্থান থেকে বালু উত্তোলন অবৈধ। প্রশাসন থেকে ইতোমধ্যে অভিযান চালিয়ে নাজিরপুর এলাকার একটি ড্রেজার পুড়িয়ে দেয়া হয়েছে। এরপরও কেউ বালু উত্তোলন করলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 


আরো সংবাদ


premium cement
শিরিনকে স্মরণ রাখতে জমজ সন্তানের বাবার অভিনব উদ্যোগ পিরোজপুরে বাড়িতে ঢুকে বৃদ্ধাকে শ্বাসরোধে হত্যা ম্যাথুজ-বিশ্বর ব্যাটে অস্বস্তিতে বাংলাদেশ কাটছে না ভিসা সঙ্কট : হতাশায় জার্মানগামী বাংলাদেশী শিক্ষার্থীরা যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুক হামলায় কয়েক মাসে প্রাণহানি দুই শতাধিক বাংলাদেশে ফিরতে চান পি কে হালদার আশুলিয়ায় কুকুরের গোশত দিয়ে বিরিয়ানি বিক্রি, আটক ১ রাশিয়ার হামলা ঠেকাতেই নদীর বাঁধ কাটলেন গ্রামবাসী শিগগিরই একটি কার্যকর যুদ্ধের ঘোষণা আসবে : ছাত্রদল সম্পাদক বাজার নিয়ন্ত্রণ নয়, স্থিতিশীল রাখতে চায় সরকার : বাণিজ্যমন্ত্রী আল-জাজিরার সাংবাদিক শিরিন আকলেহকে হত্যার নিন্দা বাংলাদেশের

সকল