২২ মে ২০২২
`

বদলগাছীতে অবৈধ স’মিলের ছড়াছড়ি : পুড়ছে বনের কাঠ

বদলগাছীতে অবৈধভাবে গড়ে ওঠা একটি স’মিল : নয়া দিগন্ত -

নওগাঁর বদলগাছী উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ব্যাঙের ছাতার মতো গড়ে উঠেছে অসংখ্য স’মিল। এর ক্ষতিকর প্রভাব পড়েছে পরিবেশের ওপর। স’মিলে কাঠ জোগান দিতে গিয়ে উজাড় হচ্ছে বন বিভাগের সরকারি গাছ। এসব কারণে সরকারও মোটা অঙ্কের রাজস্ব থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। বন ও পরিবেশ দফতরের তেমন কোনো তদারকি ও পদক্ষেপ না থাকায় উজাড় হচ্ছে বন বিভাগের গাছ। উপজেলার যত্রতত্র এমনকি প্রধান সড়কের কোল ঘেঁষে বসানো হয়েছে ঝুঁকিপূর্ণ কাঠ চেরাই মেশিন।
সরেজমিন উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, ৩০-৩৫টি স’মিল রয়েছে যাদের কোনো বৈধ কাগজপত্র নেই। পাহাড়পুর বিষপাড়ায় স’মিলের মালিক মিনহাজুল ইসলাম বলেন, আমার মিলের লাইসেন্স আছে, আমি নবায়ন করে নিয়েছি। কিন্তু অনেকেরই নেই, তারা অবৈধভাবে মিল চালাচ্ছে। বদলগাছী উপজেলা স’মিল মালিক সমিতির সভাপতি নজরুল ইসলাম বলেন, আমাদের সমিতির কার্যকালাপ বন্ধ হয়ে আছে। এ জন্য সকাল ৬টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা প্রর্যন্ত স’মিল চালানোর নিয়ম থাকলেও কেউ তা মানছে না। এমনকি রাতের আঁধারে অনেকে গাছ চেরাইয়ের কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন।
বদলগাছী উপজেলা বন কর্মকর্তা আব্দুল হাকিম বলেন, উপজেলায় প্রায় ৩০-৩৫টি স’মিল আছে। এর মধ্যে ১৫টির বৈধ লাইসেন্স রয়েছে, বাকিগুলোর কোনো কাগজপত্র নেই। আমি তাদেরকে নোটিশ করেছি। সাড়া না পেলে প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে।


আরো সংবাদ


premium cement