২৮ অক্টোবর ২০২১
`

তেঁতুলিয়ার শালবাহান হাট নানা সমস্যায় জর্জরিত

-

গবাদিপশু ও কৃষিপণ্য বিক্রির জন্য তেঁতুলিয়া উপজেলার সবচেয়ে বিখ্যাত শালবাহান হাটটি নানা সমস্যায় জর্জরিত। সাতটি ইউনিয়নের যতগুলো হাটবাজার আছে তার মধ্যে এই হাটটি থেকে বেশি রাজস্ব আয় করে উপজেলা প্রশাসন। ২০২১-২২ অর্থবছরে এই হাটটির এক কোটি পাঁচ লাখ টাকা নিলাম ইজারা ওঠে।
ব্যবসায়ীয়ের অভিযোগ, প্রতি বছর উপজেলা প্রশাসন এই হাট থেকে বিপুল পরিমাণ রাজস্ব আয় করলেও হাটের উন্নয়নে তেমন কোনো কাজ করে না। এখনো হাটে পানি নিষ্কাশনের ড্রেনেজ ব্যবস্থা, ময়লা ফেলার ডাস্টবিন এমনকি গণশৌচাগারও নেই। হাটের ভেতরে চলাচলের রাস্তাগুলোও একেবারে কর্দমাক্ত। ফলে হাটে আসা জনসাধারণ ও ব্যবসায়ীরা চলাচলে চরম দুর্ভোগে পড়েন। এ ছাড়া হাটে প্রবেশের জন্য এলজিইডির পাকা সড়কটিও স্কুল মার্কেটের সামনে খানাখন্দে ভরে গেছে। একটু বৃষ্টিতে খানাখন্দে পানি জমে থাকায় হাটে যেতে অনেক দুর্ভোগের শিকার হতে হয়। পাশাপাশি দুর্ঘটনাও ঘটে। এ ছাড়া শালবাহান মাদরাসা, বালিকা উচ্চবিদ্যালয়, বালক উচ্চবিদ্যালয় ও টেকনিকেল কলেজের ছাত্রছাত্রীরা ভাঙাচুড়া সড়কের ওপর দিয়ে যাওয়ার সময় দুর্ভোগে পড়ে।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সোহাগ চন্দ্র সাহা বলেন, শালবাহান হাটের ড্রেনেজ ব্যবস্থার উন্নয়নে জাইকার অর্থায়নে প্রকল্প হাতে নেয়া হয়েছে। বর্তমানে এলজিইডির অধীনে ছোট ছোট প্রকল্পে কিছু উন্নয়ন কাজ করা হচ্ছে। এ ব্যাপারে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কাজী মাহমুদুর রহমান ডাবলু বলেন, শালবাহান হাটের উন্নয়নে বেশ কিছু প্রকল্প হাতে নেয়া হয়েছে। অন্যান্য সমস্যা সমাধানের জন্য চেষ্টা অব্যাহত আছে।

 



আরো সংবাদ