২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭ আশ্বিন ১৪২৮, ১৪ সফর ১৪৪৩ হিজরি
`

লকডাউনে বিপুল লোকসানে পোলট্রি খামারিরা

আত্রাই উপজেলার তারাটিয়া গ্রামে আব্দুস সবুরের মুরগির খামার: নয়া দিগন্ত -

নওগাঁর আত্রাইয়ে লকডাউনের প্রভাবে মুরগি খামারিদের চরম লোকসান গুণতে হচ্ছে। এক দিকে কোরবানির ঈদ অন্য দিকে মুরগিও বিক্রি হচ্ছে না। ফলে খামারের মুরগি নিয়ে চরম বিপাকে খামার মালিকরা।
জানা যায়, উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে ছোট বড় দেড় শতাধিক মুরগির খামার রয়েছে। এসব খামারে ব্রয়লার ও সোনালি জাতের মুরগি উৎপাদন হয়ে থাকে। খামারিরা মোটা অঙ্কের টাকা বিনিয়োগ করে মুরগি উৎপাদন করে থাকেন। এসব মুরগি উৎপাদনে খামার তৈরি, শ্রমিক নিয়োগ, রুটিন মতো খাবার পরিবেশন ও পরিচর্যা সবকিছু মিলিয়ে খাবারের উপযোগী মুরগি তৈরি করতে একজন খামার মালিককে অনেক অর্থ বিনিয়োগ করতে হয়। সে অনুযায়ী মুরগির দাম না থাকায় খামারিদের এখন চরম লোকসান গুণতে হচ্ছে।
লকডাউনের আগে বাজারে মুরগির যে দাম ছিল তাতে তারা বেশ লাভবান হলেও এখন তাদের মুরগি বাজারজাত করতে না পারায় হতাশ হয়ে পড়েছেন।
জানা যায়, লকডাউনের আগে সোনালি মুরগি ২২০ থেকে ২৪০ টাকা এবং ব্রয়লার মুরগি ১৩০ থেকে ১৪০ টাকা কেজি পাইকারি দরে বিক্রি হয়েছে। বর্তমানে লকডাউনের প্রভাবে সেই সোনালি মুরগি ১৬০ থেকে ১৭০ টাকা এবং ব্রয়লার মুরগি ৯০ থেকে ১১০ টাকা কেজি পাইকারি দরে বিক্রি হচ্ছে। তাও পাইকারি ক্রেতা অনেক কমে গেছে।
উপজেলার তারাটিয়া গ্রামের মুরগি খামারি আব্দুস সবুর বলেন, তার খামারে প্রায় তিন হাজার মুরগি উৎপাদন হয়ে থাকে। মুরগিগুলো বিক্রির উপযোগী হলেও লকডাউনের কারণে বিক্রি করা সম্ভব হচ্ছে না। বাজারে মুরগির দাম কম। অথচ তাদের খাদ্যসামগ্রীর দাম ও শ্রমিকের মজুরি অনেক বেশি। তাই বেশি খরচে মুরগি উৎপাদন করে কম মূল্যে এগুলো বিক্রি করে অনেক লোকসান গুণতে হচ্ছে। ক্রমাগত লোকসানের কারণে আমার তিন খামারের মধ্যে দু’টি খামার ইতোমধ্যেই বন্ধ হয়ে গেছে।
উপজেলার সাহেবগঞ্জ বাজারে মুরগি বিক্রেতার নাজমুল হক নিরব বলেন, আগে প্রতিদিন ২০ থেকে ২৫ হাজার টাকার মুরগি বেচাকেনা হতো। এখন লকডাউনের কারণে মুরগির বাজারে ধস নেমে এসেছে। বর্তমানে প্রতিদিন পাঁচ-ছয় হাজার টাকা বেচাকেনা করতে হিমশিম খেতে হচ্ছে। ফলে পরিবার পরিজন নিয়েও আমাদের অনেক কষ্টে দিনাতিপাত করতে হচ্ছে।



আরো সংবাদ


খেলাপিদের বিশেষ সুবিধা আরো এক বছর চায় বিজিএমইএ মুস্তাফিজদের দারুণ বোলিংয়ে রোমাঞ্চকর লড়াই জিতল রাজস্থান সাবমেরিন ইস্যু : ‘ক্রুদ্ধ’ ম্যাক্রঁ কি বেশি ঝুঁকি নিয়ে ফেললেন? গাড়িচালক মালেকের বিরুদ্ধে চার্জশিট অনুমোদন দুদকের আফগানিস্তানে আইপিএলের সম্প্রচার নিষিদ্ধ হার এড়ালো বার্সেলোনা অবৈধ সম্পদ অর্জনের মামলায় নিজেকে নির্দোষ দাবি সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর স্বাস্থ্যের ২৮৩৯ পদে নিয়োগপ্রক্রিয়া বাতিল দুয়েকটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা ছাড়া নির্বাচন শান্তিপূর্ণ হয়েছে : ওবায়দুল কাদের মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশিদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা শিথিল খালেদা জিয়ার মুক্তি ইস্যুতে আপস করা যাবে না: বিএনপি

সকল