১৯ আগস্ট ২০২২, sdsjdb sj, shaban
`

অর্ধেক জনশক্তি পার্বতীপুর লোকোমোটিভ কারখানায়

-

অর্ধেকেরও কম জনশক্তি নিয়ে খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে দিনাজপুরের পার্বতীপুরে বাংলাদেশ রেলওয়ের ডিজেলচালিত রেল ইঞ্জিনের ভারী মেরামতের একমাত্র কারখানা কেন্দ্রীয় লোকোমোটিভ কারখানা (কেলোকা) চলছে। প্রতি ছয় বছর পরপর বাংলাদেশ রেলওয়েতে সংযুক্ত প্রতিটি ইঞ্জিনের ভারী মেরামত ও দুর্ঘটনাকবলিত, ত্রুটিযুক্ত রেল ইঞ্জিনের বিশেষ মেরামতের মাধ্যমে চলাচলের উপযোগী করে আবার রেল বহরে সংযুক্ত করতে কাজ করা হয় এখানে। তবে দীর্ঘ দিন ধরে দক্ষ জনবলের অভাবে প্রতি বছর ইঞ্জিন মেরামতের লক্ষ্যমাত্রা অর্জন সম্ভব হচ্ছে না। অন্য দিকে এ কারখানায় মাঝে মধ্যে খালাসি পদে জনবল নিয়োগ করা হলেও দক্ষ জনশক্তি হিসেবে গড়ে উঠতে দীর্ঘ সময় লাগায় তারাও উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে তেমন কোনো ভূমিকা রাখতে পারছে না বলে জানা গেছে।
জানা গেছে, ১৯৯২ সালের ১৪ মে সৌদি বৈদেশিক উন্নয়ন তহবিলের আর্থিক সহায়তায় ২০৩ কোটি ব্যয়ে পার্বতীপুর রেলস্টেশনের অদূরে পার্বতীপুর-সৈয়দপুর আঞ্চলিক মহাসড়কের পাশে ১১১ একর জমির ওপর পার্বতীপুর কেন্দ্রীয় লোকোমোটিভ কারখানাটি স্থাপিত হয়। কারখানায় যান্ত্রিক, বৈদ্যুতিক, নিরাপত্তা, স্বাস্থ্য ও স্টোরসহ ১১টি বিভাগ রয়েছে। এসব বিভাগের বরাদ্দ মোট জনবলের সংখ্যা ৫৪৫ জন। তবে বর্তমানে কর্মরত আছেন মাত্র ২৩৬ জন। আর শূন্য পদ রয়েছে ৩০৯টি।
এ বিষয়ে জানতে চাইলে পার্বতীপুর কেন্দ্রীয় লোকোমোটিভ কারখানার প্রধান নির্বাহী (সিএক্স) প্রকৌশলী কুদরত-ই-খুদা বলেন, প্রয়োজনীয় আর্থিক বরাদ্দ ও দক্ষ জনবলের অভাবে কারখানার বার্ষিক উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করা সম্ভব হচ্ছে না।

 


আরো সংবাদ


premium cement