০১ জুলাই ২০২২, ১৭ আষাঢ় ১৪২৯,
`

ত্রাণ নিয়ে অস্ট্রেলীয় যুদ্ধজাহাজ টোঙ্গায়

ত্রাণ নিয়ে অস্ট্রেলীয় যুদ্ধজাহাজ টোঙ্গায় - ছবি : সংগৃহীত

আগ্নেয়গিরি এবং সুনামিতে বিপর্যস্ত প্রশান্ত মহাসাগরীয় দ্বীপ দেশ টোঙ্গায় অত্যন্ত জরুরি সহায়তা পৌঁছে দিতে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত নাবিকদের নিয়ে অস্ট্রেলিয়ার একটি যুদ্ধজাহাজ বুধবার ‘নো-কন্টাক্ট’ প্রটোকলের অধীনে টোঙ্গায় নোঙর করছে।

টোঙ্গার স্বাস্থ্যমন্ত্রী সায়া পিউকালা বলেছেন, যুদ্ধজাহাজ এইচএমএএস অ্যাডিলেডের ক্রুরা এই মহাসাগরীয় দ্বীপ দেশটি সংক্রমণমুক্ত রাখতে কঠোর স্বাস্থ্য বিধি অনুসরণ করবে। এখনো বিশ্বে যে কয়টি দেশ করোনাভাইরাস মুক্ত রয়েছে টোঙ্গা এগুলোর একটি।

তিনি সাংবাদিকদের বলেন, জাহাজটি নোঙর করবে এবং কারো কোনো সংস্পর্শ ঘটবে না, কারো সাথে যোগাযোগ করা হবে না। অস্ট্রেলীয়রাই তাদের কার্গো আনলোড করবে এবং নোঙর ত্যাগ করে চলে যাবে।’

গত ১৫ জানুয়ারি অগ্ন্যুৎপাত, সুনামি এবং বিষাক্ত ধোঁয়া ও ছাইয়ে দেশটি ঢেকে যাওয়ার পরে আন্তর্জাতিক সহায়তার অংশ হিসেবে অ্যাডিলেড মোতায়েন করা হয়েছিল। জাহাজটি প্রায় ৮০ টন ত্রাণ সামগ্রী বহন করছে, যার মধ্যে রয়েছে পানি, মেডিক্যাল কিট এবং প্রকৌশল সরঞ্জাম।

ক্যানবেরায় মঙ্গলবার কর্মকর্তারা বলেছেন, ব্রিসবেন থেকে জাহাজটি ছাড়ার আগে সকল ক্রুর টেস্ট করা হয়, এতে সবারই নেগেটিভ আসে, পরে জাহাজে টেস্ট করা হলে ২৩ জনের করোনা শনাক্ত হয়।

পিউকালা বলেন, বুধবার নাগাদ আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৯ জন।

জাহাজটিতে ছয় শ’র বেশি ক্রু রয়েছেন, সকলেই পুরোপুরি ভ্যাকসিন নিয়েছেন, অস্ট্রেলিয়ান প্রতিরক্ষা বাহিনী মঙ্গলবার বলেছে, প্রাথমিকভাবে শনাক্ত ২৩ জনের মধ্যে কোনো উপসর্গ নেই অথবা তারা হালকা আক্রান্ত।

জাহাজটিতে ৪০ শয্যার হাসপাতাল রয়েছে, অপারেশন থিয়েটার রয়েছে, এবং গুরুতর অসুস্থ রোগীদের জন্য ওয়ার্ড রয়েছে।

পিউকালা বলেন, অ্যাডেলেডসহ আন্তর্জাতিক সকল ত্রাণ সামগ্রী কনট্রাকলেস প্রটোকল মেনে তিন দিন আইসোলেশনে পড়ে থাকবে, এ সময়ের মধ্যে কোনো টোঙ্গান এগুলো স্পর্শ করবে না। এরপরে এসব ত্রাণ হ্যান্ডেলিং শুরু হবে।
সূত্র : বাসস


আরো সংবাদ


premium cement