১৪ জুলাই ২০২০

করোনা কীভাবে সামলাতে হয়, দেখিয়ে দিচ্ছে ভিয়েতনাম

৯ কোটি ৭০ লাখ মানুষের বাস ভিয়েতনামে। অর্থাৎ জনসংখ্যার দিক থেকে দেখতে গেলে ছোট দেশই বটে। তবে যেভাবে তারা করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেছে তা অবশ্যই প্রশংসার দাবি রাখে।

এখন পর্যন্ত ভিয়েতনামে ৩২৮ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। নতুন করে আক্রান্ত মাত্র একজন। সেই আক্রান্ত ব্যক্তি বহিরাগত। এখনো ভিয়েতনামে করোনায় আক্রান্ত হয়ে কারো মৃত্যুর খবর নেই। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২৭৯ জন। আর অ্যাক্টিভ কেস রয়েছে আর মাত্র ৪৯টি। অর্থাৎ, দিনকয়েকের মধ্যে হয়তো জানা যাবে, ভিয়েতনাম করোনামুক্ত দেশ।

কীভাবে এই অসাধ্য সাধন করল ভিয়েতনাম? যেখানে সারা বিশ্বের বহু দেশ করোনার তাণ্ডবে নাজেহাল! করোনা নিয়ন্ত্রমে সফল দেশ হিসাবে উঠে আসছে দক্ষিণ কোরিয়া, তাইওয়ান ও হংকংয়ের নাম। তবে ভিয়েতনামও কিন্তু পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে যথেষ্ট সফল।

ইউরোপের একমাত্র দেশ হিসাবে মন্টেনেগ্রো করোনামুক্ত হয়েছে। ভিয়েতনামও এবার সেই পথেই এগোচ্ছে। গত ৪০ দিনে সেখানে নতুন করে কারো করোনায় আক্রান্ত হওয়ার খবর নেই। সব থেকে অবাক করার মতো ব্যাপার, চীনের সঙ্গে সীমান্ত রয়েছে ভিয়েতনামের। তবুও তারা করোনা রোধে সফল।

প্রথম থেকেই লকডাউন মেনে চলেছেন ভিয়েতনামের জনগণ। সামাজিক দূরত্বও মেনে চলেছেন তারা। তবে এপ্রিলের শেষের দিকে সেখানে লকডাউনেক কড়াকড়ি তুলে নেওয়া হয়। এরই মধ্যে ভিয়েতনামে বহু অফিস ও ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান খুলেছে। স্কুল-কলেজও ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য খোলা হচ্ছে। তবে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার কিছু নির্দেশ এখনো রয়েছে। আর কয়েকদিনের মধ্যেই সেখানে জীবনযাত্রা পুরোপুরি স্বাভাবিক হয়ে যেতে পারে। জিনিউজ


আরো সংবাদ