৩১ মার্চ ২০২০

করোনা নিয়ে চীনের অবিশ্বাস্য সফলতা

চীনে পরপর তৃতীয় দিনের মতো শনিবার নতুন করে আর কেউ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া যায়নি। তবে বিদেশ থেকে আসা আক্রান্ত রোগির সংখ্যা অনেক বেড়ে গেছে। খবর এএফপি’র।

চীনে কয়েক সপ্তাহ ধরেই করোনাভাইরাসে আক্রান্তের হার কমে এসেছে। এদিকে বিশ্বের অন্যান্য দেশ বৈশ্বিক মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের বৃদ্ধি মোকাবেলার প্রচেষ্টায় নানা ধরনের পদক্ষেপ জোরদার করেছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) শুক্রবার চীনের মধ্যাঞ্চলীয় উহান নগরীতে ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণে বেইজিংয়ের সফলতার প্রশংসা করেছে। গত বছরের শেষের দিকে সেখানে প্রথম এ ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব দেখা দেয়।

জেনেভায় এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে ডব্লিউএইচও প্রধান টেড্রস অ্যাডহানম গেব্রেইয়েসুস বলেন, করোনাভাইরাস বিশ্বের বাকি দেশগুলোর জন্য মারাত্মক পরিস্থিতির সৃষ্টি করতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

করোনাভাইরাস ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়ায় উহান ও হুবেই প্রদেশে বসবাস করা প্রায় ৫ কোটি ৬০ লাখ মানুষকে জানুয়ারি মাসের শেষের দিক থেকে অবরুদ্ধ করে ফেলা হয়। তবে সেখানের করোনাভাইরাস পরিস্থিতির উন্নতি ঘটায় বিভিন্ন কর্তৃপক্ষ চলাচল ব্যবস্থা ক্রমেই শিথিল করছে।

এদিকে চীন বিশ্বের অন্যান্য দেশ থেকে আসা করোনাভাইরাসে আক্রান্তদের নিয়ন্ত্রণে পদক্ষেপ জোরদার করেছে। বিদেশ থেকে আসা আরো ৪১ জন শনিবার করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। বিদেশ থেকে আসা লোকদের মধ্যে এক দিনে আক্রান্তের এই সংখ্যা সর্বোচ্চ।

উল্লেখ্য, চীনে মোট ৮১ হাজার মানুষ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলেও স্বাস্থ্য কমিশন জানায়, মাত্র ৬ হাজার ১৩ জন বর্তমানে অসুস্থ রয়েছে।

দেশটিতে মৃতের সংখ্যাও অনেক কমে এসেছে। শনিবার মাত্র সাতজন নতুন করে করোনাভাইরাসে মারা গেছে।


আরো সংবাদ