২৯ মার্চ ২০২০

ঢাকার করোনা মোকাবেলায় বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশন

-

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশন। নিজেদের বাসন্তী নামক পোশাক তৈরির কারখানায় মাস্ক তৈরি, মিরপুরসহ রাজধানীর বিভিন্ন সড়কে হাত ধোয়ার জন্য পানির ব্যবস্থা, বিনা মূল্যে হ্যান্ড সেনিটাইজার, সাবান ব্যবহারের সুযোগ করে দিয়েছে সংগঠনটি। এসব উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে পথচারী, বিশেষ করে নিম্ন আয়ের লোকদের জন্য।
এ ছাড়াও লকডাউন ঘোষণা করা অবস্থায় কোন বাড়িতে গিয়ে খাবার পৌঁছে দেয়ার কথা জানিয়েছেন বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশনের ঢাকা শাখাপ্রধান সালমান খান ইয়াছিন। তিনি আরো জানান, লকডাউন অবস্থায় কেউ খাদ্য সঙ্কটে ভুগলে বিদ্যানন্দ বা এক টাকার আহারের সাথে যোগাযোগ করা হলে তাৎক্ষণিক খাদ্য পৌঁছে দেয়া হবে। দেশের পরিস্থিতির কথা চিন্তা করে আমরা আমাদের স্বেচ্ছাসেবীদের সংখ্যাও কমিয়ে এনেছি। আমরা আমাদের স্বেচ্ছাসেবীদের বর্তমান পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে তাদের বাসায় থাকার পরামর্শ দিয়েছি। তবে আমাদের যেসব কার্যক্রম রয়েছে, সেসব কার্যক্রমের মধ্যে লকডাউনের মধ্যে খাবার পৌঁছে দেয়ার বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন অবস্থায় রেখেছি। তবে আক্রান্তদের কাছে খাবার পৌঁছে দেয়ার ক্ষেত্রে সবচেয়ে বড় বিষয় হচ্ছে পরিবহন, কারণ আমাদের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে দ্রুত সময়ের মধ্যে খাবার পৌঁছে দেয়া। তা ছাড়া খাবার পৌঁছে দেয়ার ক্ষেত্রে প্রশাসনের অনুমতিক্রমে একটি গাড়ি ব্যবস্থা করার চেষ্টা করছি। আমরা এ বিষয়ে সহযোগিতার জন্য ঢাকা সিটি উত্তরের মেয়র আতিকের সাথে কথা বলব।
এ দিকে করোনাভাইরাস মোকাবেলায় রাজধানীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থান ও গণপরিবহনে বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশন প্রতিষেধক স্প্রে করা, জনসাধারণের মাঝে বিনামূল্যে মাস্ক এবং হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ করা ছাড়াও নির্দিষ্ট স্থানে বেসিন স্থাপন করে হাত ধোয়ার ব্যবস্থা করেছে। করোনাভাইরাস প্রতিরোধে চিকিৎসকদের পাশে দাঁড়িয়েছে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশন। সংগঠনটি চিকিৎসকদের পৌঁছে দিচ্ছে অ্যাপ্রোন, মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার। এ ছাড়াও প্রয়োজন হলে তাদের খাবারের ব্যবস্থাও করবে সংগঠনটি।


আরো সংবাদ