১৯ মে ২০২২, ০৫ জৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৭ শাওয়াল ১৪৪৩
`

স্বৈরাচারী শাসন ফিরেছে তিউনিসিয়ায়, নাগরিক স্বাধীনতা ফিরিয়ে দেয়ার দাবি

তিউনিসিয়ায় এখন নাগরিক স্বাধীনতা ফিরিয়ে দেয়ার দাবি উঠেছে - ছবি : সংগৃহীত

বেন আলির সময়কার কঠোর স্বৈরাচারী শাসনে ফিরে যাওয়ার কারণে তিউনিসিয়ায় এখন নাগরিক স্বাধীনতা ফিরিয়ে দেয়ার দাবি উঠেছে। এখন বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, কর্মী ও পর্যবেক্ষকদের কাছে পুনরায় নাগরিক স্বাধীনতা ফিরে পাওয়াটাই মূখ্য বিষয়। মঙ্গলবার এমন সংবাদ প্রকাশ করেছে মিডল ইস্ট মনিটর।

আন্তর্জাতিক মানবকাধিকার সংগঠন ও পশ্চিমা গণতান্ত্রিক সরকারগুলো শঙ্কা প্রকাশ করে জানিয়েছে, তিউনিসিয়ায় নাগরিক স্বাধীনতা হুমকির মধ্যে পড়েছে। তারা দেশটির প্রেসিডেন্ট কাইস সাইদকে আহ্বান জানিয়েছেন যেন প্রাতিষ্ঠানিক গণতন্ত্রের প্রতি তিনি শ্রদ্ধা প্রদর্শন করেন।

এদিকে বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, কর্মী ও পর্যবেক্ষকরাও পুনরায় নাগরিক স্বাধীনতা ফিরে পেতে চাইছেন। তার মনে করছেন, বেন আলির সময়কার কঠোর স্বৈরাচারী শাসনে ফিরে যাওয়ার কারণে তিউনিসিয়ায় এখন নাগরিক স্বাধীনতা ক্ষুণ্ণ হচ্ছে। তাদের অভিযোগ, তিউনিসিয়ার প্রেসিডেন্ট কাইস সাইদ দেশটিতে সাধারণ নাগরিকদের স্বাধীনতা হরণ করেছেন।

এ বিষয়ে জাতিসঙ্ঘ মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস বলেন, তিউনিসিয়ার গণতান্ত্রিক বিপ্লব এমন একটি বিষয় যা বিশ্বজুড়ে আশার সঞ্চার করেছিল। আমরা আশা করব তিউনিসিয়া (কর্তৃপক্ষ) তাদের গণতান্ত্রিক মূল্যবোধ বজায় রাখবে।

তিনি বলেন, তিউনিসিয়ার বর্তমান পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছে জাতিসঙ্ঘ। কিন্তু, বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে এ আন্তর্জাতিক সংস্থাটি শঙ্কিত।

তিনি আরো বলেন, তিনি আশা করেন যে তিউনিসিয়াতে আবারো গণতান্ত্রিক কাঠামো কার্যকর হবে। এ পূর্ণাঙ্গ গণতান্ত্রিক কাঠামো সকল তিউনেসিয়ানের (মঙ্গলের) জন্যই কাজ করবে।

সূত্র : মিডল ইস্ট মনিটর


আরো সংবাদ


premium cement