০২ এপ্রিল ২০২০

নেতানিয়াহুর সাথে বুরহানের সাক্ষাতের প্রতিবাদে সুদানে ব্যাপক বিক্ষোভ

ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর সঙ্গে সুদানের অন্তর্বর্তী সামরিক সরকারের প্রেসিডেন্ট আব্দুল ফাত্তাহ আল-বুরহানের সাক্ষাতের প্রতিবাদে দেশটির জনগণ ব্যাপক বিক্ষোভ দেখিয়েছেন। হাজার হাজার সুদানি বিক্ষোভকারী গতকাল রোববার রাজধানী খার্তুমের রাজপথে ইসরাইল-বিরোধী স্লোগান দেন।

এ সময় বিক্ষোভকারীরা ‘আত্মসমর্পন করব না’, ‘দেশ বিক্রি করব না’, ‘ইহুদিবাদী ইসরাইলের সঙ্গে সম্পর্ক মেনে নেব না’ ইত্যাদি বলে স্লোগান দেন।

বিক্ষোভকারীদের একাংশ সুদানের প্রধানমন্ত্রীর দপ্তরের সামনে অবস্থান ধর্মঘট করেন এবং ইহুদিবাদী প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে প্রেসিডেন্ট আব্দুল ফাত্তাহ আল-বুরহানের সাক্ষাতের কঠোর বিরোধিতার কথা জানান।

গত সোমবার উগান্ডা সফরে গিয়ে নেতানিয়াহুর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন সামরিক শাসক বুরহান। অত্যন্ত রাখঢাক করে এ সাক্ষাৎ অনুষ্ঠিত হয় এবং সাক্ষাতের কোনো ছবি গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়নি। কিন্তু শেষ পর্যন্ত এ খবর গোপন থাকেনি এবং এ সাক্ষাতের খবর দেশে পৌঁছানোর সঙ্গে সঙ্গে সুদানের হাজার হাজার মানুষ প্রতিবাদ জানাতে রাজপথে নেমে আসেন। এ ঘটনার প্রতিবাদে একদল আইনজীবী প্রেসিডেন্ট বুরহানের বিরুদ্ধে সুদানের আদালতে মামলা দায়ের করেছেন।

সুদানের পিপলস কংগ্রসে পার্টি বলেছে, এই সাক্ষাতের ফলে ফিলিস্তিনি জাতির ন্যায়সঙ্গত অধিকারের প্রতি সর্বাত্মক সমর্থনকারী দেশ হিসেবে সুদানের ভাবমর্যাদা ক্ষুন্ন হয়েছে। এ কারণে আল-বুরহানকে ক্ষমতা থেকে সরিয়ে দিতে দলটি অন্তর্বর্তী সামরিক সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে।

ইসরাইল বিগত মাসগুলোতে আফ্রিকার মুসলিম দেশগুলোর সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপনের জন্য ব্যাপক চেষ্টা চালিয়েছে। তেল আবিব সম্প্রতি ঘোষণা করেছে, আফ্রিকা মহাদেশে ইসরাইলি পণ্য রপ্তানি বৃদ্ধি করতে ৭০ কোটি ডলার বাজেট নির্ধারণ করা হয়েছে। তেলসহ অন্যান্য খনিজ দ্রব্য বিশেষ করে হীরকের খনি থাকার কারণে আফ্রিকার দেশগুলোর প্রতি ইহুদিবাদী ইসরাইলের বিশেষ আগ্রহ রয়েছে। পার্সটুডে।


আরো সংবাদ