০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ১৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরি
`

মালয়েশিয়ায় ‘বিধি ভেঙে’ ঈদের নামাজ পড়ায় ৪৮ বাংলাদেশী রিমান্ডে

মালয়েশিয়ায় ‘বিধি ভেঙে’ ঈদের নামাজ পড়ায় ৪৮ বাংলাদেশী রিমান্ডে - ছবি- নয়া দিগন্ত

মালয়েশিয়ায় স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং সিস্টেম (এসওপি) লঙ্ঘন করে ঈদের নামাজের জামাতে উপস্থিত হওয়ায় ৪৮ বাংলাদেশী প্রবাসীকে আটক করে আদালতে সোপর্দের পর তাদেরকে তিন থেকে চার দিনের রিমান্ডে নিয়েছে দেশটির পুলিশ। এ সময় আটক করা হয়েছে দেশটির স্থানীয় একজন নাগরিককেও।

বুধবার সকাল ১০টার দিকে তিনটি লড়িতে করে আটক ব্যক্তিদের আদালতে সোপর্দ করার পর বুকিত মেরতাজম ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের সহকারী রেজিস্ট্রার হাসলিজা রাজাক এই রিমান্ডের আদেশ দেন।

এর আগে মঙ্গলবার স্থানীয় সময় সকাল সাড়ে ৮টার দিকে পেনাং রাজ্যের জুরু তামান পেলাংগি মসজিদে নামাজ আদায় করতে গেলে কর্তৃপক্ষ স্বাস্থ্যবিধি মেনে ১০০ মানুষকে নামাজ আদায়ের জন্য প্রবেশের অনুমতি দেয়। এ সময় মসজিদে প্রবেশ করতে পারেননি এমন দুই শতাধিক মানুষ মসজিদের বাইরে ঈদের নামাজ আদায় করেন। তাদের বেশিরভাগই প্রবাসী বাংলাদেশী। ওই ২০০ জনকে খুঁজছে পুলিশ।

দেশটির পুলিশ জানিয়েছে, সরকারের বেঁধে দেয়া আইন অমান্য করে স্বাস্থ্যবিধি না মেনে নামাজ আদায়ের এ দৃশ্যের ভিডিও স্থানীয় একজন নাগরিক সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে আপলোড করার সাথে সাথে ছড়িয়ে পড়ে। শুরু হয় আলোচনা-সমালোচনা। পরে অভিযান চালিয়ে ৪৮ বাংলাদেশীসহ মোট ৪৯ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এর পাশাপাশি স্থানীয় নাগরিকরা অভিযোগ তুলেছেন যে কাজের স্থানে না থেকে ওই এলাকার ২৩টি ব্লকে ৮ হাজারেরও বেশি প্রবাসী অবস্থান করছে। দুই শতাধিক মানুষের নামাজ আদায়ের একটি ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর রাজ্যজুড়ে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়ে স্থানীয় প্রশাসন। সামাজিক মাধ্যমে সমালোচনায় স্বাস্থ্যবিধি ভঙের ঘটনায় রাজ্যের পুলিশ প্রধান ক্ষমা চান।

এর পরেই আইন লঙ্ঘনের অভিযোগে শুরু হয় গ্রেফতার অভিযান। এ ঘটনায় আইন লঙ্ঘনকারীদের কোনো ছাড় দেয়া হবে না উল্লেখ করে প্রয়োজনে এসব অভিবাসীদের দেশে পাঠানো হবে বলেও কড়া নির্দেশনা দিয়েছেন মালয়েশিয়ার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হামজা জয়নুদ্দিন।


আরো সংবাদ


premium cement