১১ আগস্ট ২০২০

জাপানের কানসাইয়ে জাতীয় শোক দিবস পালিত

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান - সংগৃহীত
24tkt

যথাযোগ্য মর্যাদায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস পালন করেছে জাপানের কানসাই আওয়ামী লীগ। গতকাল ওসাকা শহরের ইকুনো কিউমিন সেন্টার মিলনায়তনে দিবসটি উপলক্ষে এক আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়। সংগঠনের আহবায়ক আবু সাদাত মোঃ সায়েমের সভাপতিত্বে এবং সদস্য সচিব হারুন অর রশিদের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বাংলাদেশ থেকে স্কাইপে যোগদান করেন প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া।

অনুষ্ঠানের শুরুতে জাতীয় সংগীত এবং পবিত্র কুরআন ও গীতা পাঠ শেষে বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের নিহত সদস্যদের স্মরণে দাঁড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়। এতে জাপান ছাত্রলীগ এবং স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ (স্বাচিপ) নেতৃবৃন্দ যোগদান করেন। আলোচনা সভা চলাকালী তিন ধাপে ১৯৭৫’এর ১৫ আগস্টের প্রেক্ষাপট এবং ঘটনা প্রবাহের উপর একটি বিশেষ প্রামান্যচিত্র প্রদর্শণ করা হয়।

তানিয়া তাবাসসুম নিসার উপস্থাপনায় আলোচনা সভায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন জাপান ছাত্রলীগের সহ সম্পাদক ফখরুল ইসলাম দিদার, জাপান স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের যুগ্ম আহবায়ক ডাঃ ওমর ফারুক, কানসাই আওয়ামীলীগের যুগ্ম আহবায়ক ও জাপান স্বাচিপের সদস্য সচিব ডাঃ মারুফ হক খান, কানসাই আওয়ামীলীগের যুগ্ম আহবায়ক মাহফুজুল করিম এবং ডাঃ সালমান মাহমুদ সিদ্দিকী, কানসাই আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা আমিনুর রহমান, আশরাফ মহাম্মদ এবং ওসাকা ইউনিভার্সিটির পিএইচডি গবেষক এস এম নাদিম মাহমুদ।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন কানসাই আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা মাসুদ-উল-হাসান, ড. অসীম কুমার সাহা, হারুন আর রশিদ এবং জসিম উদ্দিন, যুগ্ম আহবায়ক ডাঃ মিঠুন কুমার সাহা, সদস্য উৎপল মল্লিক, ড. জুবায়ের হাসান, শামিমুল আজাদ, ড. লুতফর রহমান মাসুম, ডাঃ প্রিয়াঙ্কা নাগ, ড. বজলুল করিম প্রমুখ।
বক্তারা বলেন, মুক্তিযুদ্ধের পরাজিত শক্তি পরিকল্পিতভাবে ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধুকে সপরিবারে হত্যা করে। এটা ছিল ইতিহাসের জঘন্যতম হত্যাকাণ্ড। ঘাতকরা বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে হত্যা করতে চেয়েছিল। কিন্তু তারা সফল হয়নি। তারা বলেন, জাতির পিতার আদর্শ নতুন প্রজন্মের মাঝে ছড়িয়ে দিতে হবে। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ বিনির্মাণে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে।

সমাপনী বক্তব্যে আবু সাদাত মোঃ সায়েম বলেন, বাংলাদেশের গৌরব ইতিহাস ও ঐতিহ্যে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়ে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। দেশের উন্নয়নকে বাধাগ্রস্ত করার জন্য বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনাকে বারবার হত্যচেষ্টা করা হয়েছে। তারপরও তিনি বিচলিত না হয়ে দেশের মানুষের পাশে থেকে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। সভা শেষে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার পরিবারে সকল সদস্যের রুহের মাগফেরাত কামনায় বিশেষ দোয়া করা হয়।


আরো সংবাদ

প্রদীপের জন্যই ব্যর্থ ইয়াবা অভিযান (১০৩০৯)প্রকাশ্যে সহকর্মীকে ওসির থাপ্পর, তদন্তে নেমেছে পুলিশের তদন্ত কমিটি (৭৫৯৪)দেশে যেসব কারণে এখন ধরা পড়ছে ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ (৪১৬০)শেষ রক্তবিন্দু থাকা পর্যন্ত বিচার চাইবেন শিপ্রা: র‌্যাব (৩৯৮৫)সিনহার মৃত্যুতে সরকার কষ্ট পেয়েছে : হানিফ (৩৩৪১)পবিত্র কাবা ও আয়া সোফিয়া মসজিদে নকশা করে গর্বিত এই চিত্রশিল্পী (৩০৮৩)গানের মধ্যে তিনি বেঁচে থাকবেন অনন্তকাল : রুনা লায়লা (২৯১৭)আবার মানবিক নজির শাহরুখের (২৭৭৩)এটাই যেন বিচারবহির্ভুত হত্যাকাণ্ডের শেষ ঘটনা হয় : সিনহার মা (২৭১৯)ভারতের বিরুদ্ধে সোচ্চার না হলে বাংলাদেশের মুক্তি নেই : ডা. জাফরুল্লাহ (২৬৫৭)