২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

ওজিলের সাথে করা বর্ণবাদী আচরণ মেনে নেওয়া হবে না: এরদোগান

ওজিলের সাথে করা বর্ণবাদী আচরণ মেনে নেওয়া হবে না: এরদোগান - সংগৃহীত

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান বলেছেন, মেসুত ওজিলের সাথে যে বর্ণবাদী আচরণ করা হয়েছে তা মেনে নেওয়া হবে না। কোনো খেলোয়াড়ের সাথে বর্ণবাদী আচরণ করা হলে তার জবাব দেওয়া হবে। প্রত্যেক ফুটবলারের-ই সব ধরণের বর্ণবাদ, বৈষম্য ও ঘৃণা-দ্বেষমূলক বক্তব্য থেকে রক্ষা পাওয়ার অধিকার রয়েছে।

এরদোগান বলেন, আমি গতরাতে মেসুত ওজিলের সাথে কথা বলেছি। তার আচরণ, ব্যবহার ও বক্তব্য যৌক্তিক এবং সাংস্কৃতিকভাবে সঠিক ও গ্রহণযোগ্য।  একজন তরুণ খেলোয়াড় জার্মানের জাতীয় ফুটবল দলের জন্য সবকিছু করেছে। অথচ সে ধর্মের কারণে বর্ণবাদী আচরণের শিকার হয়েছে। তাদের এ কেমন মানসিকতা যে আমার সাথে ছবি তোলার কারণে এমন বর্ণবাদী আচরণ! আমিই তাদের সাথে লন্ডনে ছবি তুলেছিলাম। 

মেসুত ওজিলের দিনকাল আজ ভালো যাচ্ছে না। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগানের সঙ্গে লন্ডনে একটি বৈঠকের পরই তাকে নিয়ে সমালোচনা শুরু হয়। আর্সেনাল মিডফিল্ডার ওজিলকে তুর্কী বলে ক্ষেপিয়ে তোলা হয়। বিশেষ করে বিশ্বকাপে ব্যর্থতার পর তারা আর ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি। আর সব দায় ঘিয়ে পড়ে ওজিলের উপর।

এরই জের ধরে জার্মানির জাতীয় দল থেকে অবসরের ঘোষণা দেন ওজিল। এদিকে মেসুত ওজিল অবসর গ্রহণের পরই বেশ কয়েকজন জার্মান ফুটবলার তার পাশে দাঁড়িয়েছেন। এবার পাশে দাঁড়িয়েছে তুরস্কের ফুটবল ফেডারেশন। তার পরিবারের প্রতি পূর্ণ সমর্থন জানিয়ে, দেশটির ফুটবল ফেডারেশন বলছে, ওজিলের সাথে যে আচরণ করা হয়েছে আমরা এর তীব্র নিন্দা জানাই।

 


আরো সংবাদ

Hacklink

ofis taşıma Instagram Web Viewer

canli radyo dinle

Yabanci Dil Seslendirme