২০ জুলাই ২০১৯

অস্ট্রেলিয়ান ওপেন চ্যাম্পিয়ন নাওমি

-

বছরের প্রথম গ্র্যান্ড স্ল্যাম অস্ট্রেলিয়ান ওপেন টেনিসে মহিলা এককের শিরোপা জিতেছেন নাওমি ওসাকা। আজ অনুষ্ঠিত ফাইনালে দ্বিতীয় বাছাই ওসাকা ৭-৬ (৭/২), ৫-৭, ৬-৪ গেমে অস্টম বাছাই চেক প্রজাতন্ত্রের পেত্রা কেভিতোভাকে হারিয়ে ক্যারিয়ারে প্রথমবার এ টুর্নামেন্টের শিরোপা জয় করেন। এ শিরোপা জয়ের মাধ্যমে রোমানিয়ার সিমোনা হালেপকে হটিয়ে র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষ স্থান দখল করেন তিনি।

দুই ঘণ্টা ২৭ মিনিট স্থায়ী ম্যাচে জয়ী হয়ে ইউএস ওপেন চ্যাম্পিয়ন নাওমি পর পর দ্বিতীয় গ্র্যান্ড স্ল্যাম শিরোপা জয় করলেন। এশিয়ার প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে বিশ্ব টেনিস র‌্যাঙ্কিয়ের শীর্ষ স্থান দখল করলেন তিনি।

পুরুষ কিংবা মহিলা বিভাগে এর আগে এশিয়ার কোনো খেলোয়াড়ই বিশ্ব র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষ স্থানে যেতে পারেননি।

নাওমির শিরোপা জয়ের পথ :
দ্বিতীয় বাছাই হিসেবে টুর্নামেন্টে খেলতে নামেন তিনি
১ম রাউন্ড: পোল্যান্ডের মাগদা লিনেটকে ৬-৪, ৬-২ গেমে পরাজিত করেন।
২য় রাউন্ড: স্লোভাকিয়ার তামারা জিদানেককে ৬-২, ৬-৪ গেমে পরাজিত করেন।
৩য় রাউন্ড: ২৮তম বাছাই তাইপের হিয়েহ সু-উয়েইকে ৫-৭,, ৬-৪, ৬-১ গেমে পরাজিত করেন।
৪র্থ রাউন্ড: ত্রয়োদশ বাছাই লাটভিয়ার এ্যানাস্তাসিয়া সেভাসতোভাকে ৪-৬, ৬-৩, ৬-৪ গেমে পরাজিত করেন।
কো: ফাইনাল: ষষ্ঠ বাছাই ইউক্রেনের এলিনা সিতোলিনাকে ৬-৪, ৬-১ গেমে পরাজিত করেন।
সে:ফাইনাল: সপ্তম বাছাই চেক প্রজাতন্ত্রের ক্যারোলিনা প্লিসকোভাকে ৬-২, ৪-৬, ৬-৪ গেমে পরাজিত করেন।
ফাইনাল: অস্টম বাছাই চেক প্রজাতন্ত্রের পেত্রা কেভিতোকে ৭-৬(৭/২), ৫-৭, ৬-৪ গেমে পরাজিত করেন।

রোল অব অনার:
২০১৯-নাওমি ওসাকা (জাপান)
২০১৮-ক্যারোলিন ওজনিয়াকি (ডেনমার্ক)
২০১৭-সেরেনা উইলিয়ামস (যুক্তরাষ্ট্র)
২০১৬-এ্যাঞ্জেলিক কারবার
২০১৫- সেরেনা উইলিয়ামস (যুক্তরাষ্ট্র)
২০১৪- লি-না (চীন)
২০১৩- ভিক্টোরিয়া আজারেঙ্কা (বেলারুশ)
২০১২-ভিক্টোরিয়া আজারেঙ্কা (বেলারুশ)
২০১১-কিম ক্লিস্টার্স (বেলজিয়াম)
২০১০-সেরেনা উইলিয়ামস (যুক্তরাষ্ট্র)
২০১৯- সেরেনা উইলিয়ামস (যুক্তরাষ্ট্র)
২০০৮-মারিয়া শারাপোভা (রাশিয়া)
২০০৭- সেরেনা উইলিয়ামস (যুক্তরাষ্ট্র)
২০০৬-এ্যামেলি মরেসমো (ফ্রান্স)
২০০৫-সেরেনা উইলিয়ামস (যুক্তরাষ্ট্র)
২০০৪- জাস্টিন হেনিন (বেলজিয়াম)
২০০৩-সেরেনা উইলয়ামস (যুক্তরাষ্ট্র)
২০০২-জেনিফার ক্যাপ্রিয়াতি (যুক্তরাষ্ট্র)
২০০১-জেনিফার ক্যাপ্রিয়াতি (যুক্তরাষ্ট্র)
২০০০-লিন্ডসে ডেভেনপোর্ট (যুক্তরাষ্ট্র)


আরো সংবাদ




gebze evden eve nakliyat instagram takipçi hilesi