২২ এপ্রিল ২০১৯

কে হচ্ছেন সেরা সুন্দরী? 

প্রতিযোগীতায় থাকা ১০ সুন্দরীর সাথে বিচারক (মাঝে) - নয়া দিগন্ত

রোববার বসুন্ধরা কনভেনশন সিটির রাজদর্শন হলে বসতে যাচ্ছে সুন্দরীদের হাট। এখানেই ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ড মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশের গ্র্যান্ড ফাইনাল অনুষ্ঠিত হবে। সেরা ১০ সুন্দরীদের মাঝখান থেকে নির্বাচিত করা হবে এবারের মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ।

এবার চূড়ান্ত পর্যায়ে উত্তীর্ণ ১০ প্রতিযোগী হচ্ছেন নিশাত নাওয়ার সালওয়া, মনজিরা বাশার, ইশরাত জাহান সাবরিন, স্মিতা টুম্পা বাড়ৈ, আফরিন সুলতানা লাবণী, সুমনা নাথ অনন্যা, নাজিবা বুশরা, জান্নাতুল মাওয়া, শিরীন শিলা এবং জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী।

এবারের আসরে মূল বিচারকের দায়িত্ব পালন করছেন জনপ্রিয় কন্ঠশিল্পী শুভ্রদেব, মডেল ও অভিনেত্রী তারিন, মডেল ও অভিনেতা খালেদ সুজন, মডেল ইমি, ব্যরিস্টার ফারাবী। ফাইনালের  আইকন বিচারক হিসেবে থাকছেন মাইলস ব্যান্ডের শাফিন আহমেদ, হামিন আহমেদস এবং আনিসুল ইসলাম হিরু।

এবারের মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ প্রেজেন্ট করছে ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ড। পাওয়ারড বাই স্পন্সর প্রেমস্ কালেকশন এবং কো পাওয়ার্ড বাই স্টেপ ফুটওয়্যার। ব্রডকাস্টিং পার্টনার এটিএন বাংলা, টিভি নিউজ পার্টনার একাত্তর টিভি, হসপিটালিটি পার্টনার রয়্যাল প্যারাডাইস হোটেল, অনলাইন পার্টনার জাগোনিউজ২৪ এবং এফএম পার্টনার জাগো এফএম ৯৪.৪।

অন্তর শোবিজের আয়োজনে গুলশান ২ এর নবনির্মিত পাঁচ তারকা হোটেল রয়্যাল প্যারাডাইস এ সেরা ১০ প্রতিযোগীকে এর মধ্যেই গ্রুমিং পার্ব শেষ হয়েছে। ফাইনালের চূড়ান্ত মঞ্চ কাঁপাতে প্রস্তুত তারা। ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি বসুন্ধরা’র রাজদর্শন হল থেকে অনুষ্ঠানটি সরাসরি সম্প্রচার করবে এটিএন বাংলা। অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনার দায়িত্বে আছেন ডিজে সনিকা ও আরজে নিরব।

স্পন্সর প্রতিষ্ঠান, পার্টনার প্রতিষ্ঠান ও মিডিয়ার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে স্বপন চৌধুরী বলেন, ‘সকল স্পন্সর, পার্টনার এবং মিডিয়ার প্রতি আমার অসীম কৃতজ্ঞতা। কৃতজ্ঞতা অন্তর শোবিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক নাসরীন চৌধুরীর প্রতি। তার অক্লান্ত পরিশ্রম ছাড়া এই আয়োজন অসম্ভব ছিল। আরো একজন ফ্রেণ্ডস এন্ড ফ্যামিলির কথা না বললেই নয়- তিনি ইঞ্জিনিয়ার মেহেদী হাসান। সরকার এবং সংশ্লিষ্ট সংস্থার প্রতিও কৃতজ্ঞতা সঙ্গ-সমর্থনের জন্য।’

ফাইনালে চূড়ান্ত বিজয়ী ৭ ডিসেম্বর চীনে মূল পর্বে যোগদানের উদ্দেশ্যে ঢাকা ত্যাগ করবেন। আয়োজক সূত্রে জানা গেছে এবার মূল পর্বের আগে প্রায় তিন মাস সময় পাওয়া যাবে। ফলে চূড়ান্ত বিজয়ীকে তৈরি করার সময় পাওয়া যাবে বেশি। বিশ্বখ্যাত গ্রুমার নয়নিকা চ্যাটার্জী তাকে তৈরি করাবেন। তা হাতেই ১৯৯৬ থেকে একাধিক প্রতিযোগী বিশ্বসুন্দরীর মুকুট জিতেছেন।

অন্তর শোবিজের চেয়ারম্যান স্বপন চৌধুরী বলেন, ‘সেপ্টেম্বরের মধ্যেই মিস ওয়ার্ল্ড প্রতিযোগিতায় নাম পাঠাতে হয়। তাই আমরা এর মধ্যেই অনুষ্ঠান শেষ করে এনেছি। আর এবার সব প্রস্তুতি দারুন। বিশ্বসেরার মুকুটের জন্য আমরাও দুর্দান্তভাবে লড়তে চাই।’

স্বপন চৌধুরী বলেন, ‘যিনি এবার সেরা হবেন, তাকে মূল প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়ার জন্য যথাযথভাবে প্রস্তুত করা হবে। ভারতের নয়নিকা চ্যাটার্জির সঙ্গে আমাদের আলোচনা হয়েছে। আন্তর্জাতিক মানের এই প্রশিক্ষক দিল্লিতে আছেন। তিনি দুই মাসের জন্য ঢাকায় আসবেন। পুরো সময়টাতেই তিনি ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’কে প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ দেবেন।’

স্বপন চৌধুরী আরও জানান, ‘ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ড মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’ প্রতিযোগিতার সেরা ১০ প্রতিযোগীকে নিয়ে গুলশানে পাঁচ তারকা হোটেল রয়্যাল প্যারাডাইসে গ্রুমিং পর্ব আয়োজন করা হয়। ফাইনালের জন্য এখন সবাই প্রস্তুত।


আরো সংবাদ




iptv al Epoksi boya epoksi zemin kaplama Daftar Situs Agen Judi Bola Net Online Terpercaya Resmi

Hacklink

Bursa evden eve nakliyat
arsa fiyatları tesettür giyim
Canlı Radyo Dinle hd film izle instagram takipçi satın al ofis taşıma Instagram Web Viewer

canli radyo dinle

Yabanci Dil Seslendirme

instagram takipçi satın al
hd film izle
gebze evden eve nakliyat