২৩ মার্চ ২০১৯

সুনামগঞ্জে বন্যার পরিস্থিতির অবনতি

-

সুনামগঞ্জের ধর্মপাশায় টানা অবিরাম বৃষ্টি ও পাহাড়ী ঢলের পানি সুরমা নদী দিয়ে বিপদ সীমায় প্রবাহিত হয়ে উপজেলার নিম্নঅঞ্চল প্লাবিত হয়ে অর্ধ শতাধিক প্রাথমিক বিদ্যালয় ও বাড়ী ঘর পানিবন্দী অবস্থায় রয়েছে।
বিগত এক সপ্তাহ যাবত অবিরাম বৃষ্টি ও ভারতের মেঘালয় পাহাড়ের ঢলের পানি সুরমা নদী দিয়ে বিপদ সীমায় প্রবাহিত হয়ে উপজেলার জয়শ্রী ইউনিয়ন, সুখাইড় রাজাপুর উত্তর ও দক্ষিন, পাইকুরাটি ও চামরদানী ইউনিয়নের প্রায় অর্ধ শতাধিক সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভিতরে পানি না ঢুকলেও বিদ্যালয়গুলোর ভিটের সমান সমান পানি হওয়ায় বিদ্যালয়গুলোতে আসা যাওয়ার একমাত্র রাস্তাগুলো বন্যার পানিতে প্লাবিত হওয়ায় ছাত্র-ছাত্রীরা বিদ্যালয়ে আসতে পারছে না। এসব বিদ্যালয়গুলোতে শিক্ষক-শিক্ষিকারা নিয়মিত বিদ্যালয়ে আসলেও শিক্ষার্থীদের উপস্থিতি একেবারে নাই বললেও চলে।

চামরদানী ইউনিয়ন-পাইকুরাটি-সুখাইড় রাজাপুর উত্তর-দক্ষিন ও জয়শ্রী ইউনিয়নের নিম্ন এলাকার একাধিক গ্রাম বন্যার পানিতে প্লাবিত হলেও গতকাল আবহাওয়া প্রতিকূলে থাকায় বন্যার পানি কমতে চলেছে।
এদিকে নদীপথে দুর পাল্লার লঞ্চ-স্পিটবোট, উপজেলা সদর ইউনিয়নের মহদীপুর হতে কংশ নদী দিয়ে স্পিটবোট যাত্রী নিয়ে জামালগঞ্জের মান্নানঘাট ও ওই নদী পথে বিলাসবহুল লঞ্চ সুনামগঞ্জ পর্যন্ত যাত্রী নিয়ে নিয়মিত চলাচল করায় প্রবল ঢেউয়ের আঘাতে কংষ নদীর তীরবর্তী মেওয়ারী-গুলুয়াসহ ৪টি গ্রাম কংশ নদীর ভাংঙ্গনে পড়ে বিলিন হয়ে যাচ্ছে। ইতিমধ্যে মেওয়ারি ও গুলুয়ার মাঝামাঝি এলজিইডির পাঁকা সড়কসহ ১৫-২০টি ঘর-বাড়ী নদী ভাংঙ্গনের কবলে পড়ে বিলিন হয়ে গেছে বলে জানা যায়।


আরো সংবাদ




iptv al Epoksi boya epoksi zemin kaplama Daftar Situs Agen Judi Bola Net Online Terpercaya Resmi

Hacklink

instagram takipçi satın al ofis taşıma Instagram Web Viewer

canli radyo dinle

Yabanci Dil Seslendirme

instagram takipçi satın al