২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯

কাশ্মির নিয়ে আবার মধ্যস্ততার প্রস্তাব ট্রাম্পের

মোদি ট্রাম্প ও ইমরান
মোদি ট্রাম্প ও ইমরান - ছবি : সংগৃহীত

কাশ্মিরের “উত্তেজনাপূর্ণ” পরিস্থিতি নিয়ে, মঙ্গলবার আবারো মধ্যস্থতা করার প্রস্তাব দিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প । বললেন এটি খুবই জটিল জায়গা। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এবং পাকিস্তানর প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে ফোনে কথা বলার এক দিন পরেই, মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, কাশ্মির নিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করার প্রচেষ্টা করতে পারায় তিনি খুশি এবং সাহায্য করবেন। ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে সহজ সম্পর্ক তৈরি না হওয়ার কারণ হিসেবে তিনি বলেছেন, এর জন্য দায়ী ধর্মই।

হোয়াইট হাউজে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, “কাশ্মীর একটি খুবই জটিল জায়গা। হিন্দুও রয়েছে এবং মুসলিমও রয়েছে, এবং আমি বলতে পারি না যে তারা একসঙ্গে ভালো রয়েছে”।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেন, “মধ্যস্থতা করতে, আমি যতটা পারব করব”… তিনি আরো বলেন, “আপনারা দুটি দেশ, দীর্ঘসময় ধরে একসঙ্গে এবং ঘনিষ্ঠভাবে থাকতে পারছেন না, এটা খুবই বিস্ফোরক পরিস্থিতি”।
এর আগেও মধ্যস্থতা করার ইচ্ছাপ্রকাশ করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট-সপ্তাহান্ত বিষয়টি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে কথাও বলতে পারেন বলে জানান তিনি। ফ্রান্সে সাতটি দেশের শিল্প সম্মেলনে দুই রাষ্ট্রনেতার সাক্ষাৎ হতে পারে বলে আশা করা হচ্ছে।

ডোনাল্ড ট্রাম্পের কথায়, “আমি মনে করি, আমরা বিষয়টিকে সাহায্য করছি। যেমনটা আপনারা জানেন, দুই দেশের মধ্যে প্রচণ্ডরকম সমস্যা রয়েছে। মধ্যস্থতা করতে আমি যতটা পারি করব অথা কিছু তো করব”। তার কথায়, “তাদের দুজনের ভালো সম্পর্ক, তবে এই মুহুর্তে তারা একে অপরের বন্ধু নয়। জটিল পরিস্থিতি, ধর্ম নিয়ে অনেক কিছু করতে হবে। ধর্ম একটা জটিল বিষয়”।

ভারত ও পাকিস্তান রাজি থাকলে, তিনি মধ্যস্থতায় রাজি বলে সম্প্রতি জানিয়েছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। গতমাসে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে যৌথ সংবাদ বিবৃতিতে ভারতকে অবাক করে দিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন,কাশ্মির নিয়ে নাকি তার “মধ্যস্থতা” চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি—যদিও সেই দাবি উড়িয়ে দিয়েছে ভারত।

সোমবার, তার “দুই ভালো বন্ধু”-প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এবং পাকিস্তানি প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে ফোনে কথা বলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। কাশ্মির নিয়ে উত্তেজনা কমানোর জন্য দুই রাষ্ট্রপ্রধানের সঙ্গে কথা বলেন তিনি। কাশ্মীর নিয়ে পাকিস্তানকে তাদের “ভারতের প্রতি বক্তব্য পরিবর্তন” করারও পরামর্শ দেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

তার আগে সোমবার, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে ৩০ মিনিট ফোনে কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সেখানেই তিনি বলেন, “ওই এলাকায় কিছু নেতার ভারত বিরোধী উত্তেজনাপূর্ণ মন্তব্য, শান্তি ফেরানোর পথে বাধা হয়ে দাঁড়াচ্ছে”, এমনটাই জানানো হয়েছে সরকারের পক্ষ থেকে। প্রধানমন্ত্রী দফতরের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, সন্ত্রাস এবং সহিংসতা থেকে মুক্ত, এবং সীমান্ত সন্ত্রাস মুক্ত করার গুরুত্ব তুলে ধরেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।


আরো সংবাদ




gebze evden eve nakliyat Paykasa buy Instagram likes Paykwik Hesaplı Krediler Hızlı Krediler paykwik bozdurma tubidy