২৩ জানুয়ারি ২০২০

নেপালের সাথে অঘোষিত সেমি আজ

-

সাধারণত অঘোষিত ফাইনালের কথা বলা হয়। কিন্তু মাঝে মধ্যে কিছু খেলা অঘোষিত সেমিফাইনালের মর্যাদা পেয়ে যায়। আজ সেই উপাধিই পাচ্ছে বাংলাদেশ-নেপাল এসএ গেমস পুরুষ দলের খেলা। বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা পৌনে ৬টায় শুরু হওয়া এই ম্যাচে জিততেই হবে বাংলাদেশকে। তাবেই তাদের ছাড়পত্র মিলবে ১০ ডিসেম্বর স্বর্ণ জয়ের লড়াইয়ে অবতীর্ণ হওয়ার। কাল অবশ্য নেপাল তাদের ফাইনালে খেলার রাস্তা তৈরি করে ফেলেছে। ২-১ গোলে মালদ্বীপকে হারিয়ে এবারের এস এ গেমসে নিজেদের পয়েন্ট সাত এ নিয়ে গেছে। ফলে ফাইনালে যেতে আজ নেপালকে হারাতেই হবে জামাল, জীবন ও সুফিলদের। তা কি করতে পারবে জেমি ডে’র শিষ্যরা? কাল নেপালের কাছে হারের ফলে নেপালি রেফারির কৃপায় বাংলাদেশের বিপক্ষে হার এড়ানো মালদ্বীপ দলকে দেশে ফিরতে হচ্ছে খালি হাতেই। তিন খেলা শেষে নেপালের পয়েন্ট সাত। আর বাংলাদেশের চার। কাল অন্যম্যাচে ভুটান ৩-০ গোলে শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে ফাইনালে চলে গেছে। ফলে আজ বাংলাদেশ নেপালকে হারাতে পারলে হেড-টু-হেডে ফাইনালে চলে যাবে জামালরা।
নেপালের বিপক্ষে কাঠমান্ডুর মাঠে অনূর্ধ্ব-২২ ফুটবলে বাংলাদেশের রেকর্ড ভালো নয়। ২০১২ সালে এএফসি অনূর্ধ্ব-২২ ফুটবলে নেপালের কাছে ১-৪ গোলে হার সৈয়দ গোলাম জিলানীর দলের। এরপর ২০১৩ সালে অনূর্ধ্ব-২৩ দলের প্রীতি ম্যাচে বাংলাদেশ ঢাকায় নেপালকে ১-০ গোলে হারালেও সিলেটে আর জেতা হয়নি ক্রুয়েফ বাহিনীর। অবশ্য গত এস এ গেমসের ফলাফল নাবিব নেওয়াজ জীবনদের জন্য অনুপ্রেরণা। ২০১৬ সালে ভারতের গৌহাটিতে অনুষ্ঠিত ম্যাচে নেপালকে ২-১ গোলে হারিয়েই সেমিতে গিয়ে গিয়েছিল গনজালো মরিনহোর দল। তা ভুটানের সাথে ১-১ ড্র দিয়ে আসর শুরুর পর। যদিও এরপর বাংলাদেশ সেমিতে ভারতের কাছে ৩-০ গোলে হারলেও সেই ভারতকে হারিয়ে ফুটবলে স্বর্ণ জয় করে নেয় নেপালিরা। বাংলাদেশ তৃতীয় স্থান নির্ধারণী ম্যাচে মালদ্বীপকে টাইব্রেকারে হারিয়ে ব্রোঞ্চ পদক পায়।
নেপালের মাঠে তাদের বিপক্ষে জেতা বেশ কঠিন। সাথে গ্যালারিতে উগ্র দর্শকদের উপস্থিতি। অবশ্য আজ নেপালকে হারাতে তাদের ক্লান্তিকে কাজে লাগাতে চায় লাল-সবুজরা। বাংলাদেশ অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়া জানান, নেপাল একটু ক্লান্ত থাকবে। তারা মালদ্বীপের বিপক্ষে ম্যাচে খেলেছে গতকাল। অবশ্য জিততে হলে আমাদের আরও ভালো খেলতে হবে। সমন্বয় থাকতে হবে সব বিভাগে।
বাংলাদেশ দলও কিছুটা ক্লান্ত। এই তথ্য দিলেন জামাল ভূঁইয়া। তার মতে আমাদের খেলোয়াড়রা বেশ কিছু দিন ধরেই ম্যাচ খেলছে। তাই তারা কিছুটা টায়ার্ড। এর পরও আজ আমরা মাঠে নামছি সাফ গেমস এবং এস এ গেমসের দুই বারের স্বর্ণ জয়ী হিসেবে।
নেপালের মাঠে শুরুর বিপর্যয় কাটিয়ে ঘুরে দাঁড়িয়ে স্বর্ণ জয়ের ঘটনা বাংলাদেশ ফুটবল দলের। তা ১৯৯৯ সালের কাঠমান্ডু এসএ গেমসে। সেবার তাদের ফাইনাল বাধা ছিল নেপাল। এবার বাংলাদেশ ভুটানের কাছে ০-১ গোলে হার দিয়ে শুরু করে আসর।

 


আরো সংবাদ

ঢাবিতে ৪ শিক্ষার্থী‌কে রাতভর নির্যাতন ছাত্রলীগের (১১৬০৭)তাবিথের আজকের প্রচারণায় জনতার ঢল (৭৪৩২)ইরানি হামলায় আহত মার্কিন সেনারা গোপনে যেখানে চিকিৎসা নিয়েছে (৬৫৯২)খুলে দেয়া হলো দৌলতদিয়া যৌনপল্লীর বন্ধ থাকা খদ্দের গেট (৫৩০৪)'বলির পাঁঠা' বানানো হয়েছিল আফজাল গুরুকে : বিস্ফোরক অভিনেত্রী (৫১৭৩)সোলাইমানি হত্যায় ট্রাম্পের যে দাবিতে চমকে যান তার উপদেষ্টারাও (৪৯৭১)আযাদ কাশ্মিরকে সব ধরনের সামরিক সমর্থন দেবে পাকিস্তানি সেনারা (৪৮২৬)‘মুক্তিযোদ্ধা ভাতা নিলে অবশ্যই আ’লীগ করতে হবে’ (৪৪৫৪)সূর্যগ্রহণ দেখে দৃষ্টিশক্তি হারালো ১৫ জন (৪২৫৫)লাহোরে বাংলাদেশ খেলবে দিনে, দেখে নিন টি-টোয়েন্টির সূচী (৪২১৯)



unblocked barbie games play