২৫ আগস্ট ২০১৯

বাইরে থেকেই বেশি শেখেন ইমরুল

-

জাতীয় দলে আসা-যাওয়ার নিয়মিত মুখ ইমরুল কায়েস। তবে যেকোনো পরিস্থিতিতেই নিজেকে মানিয়ে নিতে পারেন। হা-পিত্তেষ করেন না। যখন যেভাবে সুযোগ হয় সেটিকেই মেনে নেন। এটা তার নিয়তি হয়ে গেছে বলেও মনে করেন তিনি। বিশ্বকাপ দলে জায়গা হয়নি বলে ভেঙে পড়েননি। কঠিন বাস্তবতায় নিয়তির সাথে আপস করেন। যেকোনো সময় সুযোগ আসবে বলে নিজেকে তৈরি রাখেন বর্তমানে বিসিবির এলিট স্কিল ক্যাম্পে থাকা ইমরুল।
বাংলাদেশ দলের কেউ চোটে পড়লে ইমরুলের ডাক আসার সম্ভাবনা তৈরি হওয়া ‘অলিখিত রীতি’। গত এশিয়া কাপ ও বিশ্বকাপে এভাবেই দলে ঢুকেছেন তিনি। অপ্রত্যাশিত প্রক্রিয়া এখন উপভোগ করতে শিখে গেছেন ইমরুল। উপেক্ষায় আসে নতুন উপলব্ধি। বাইরে থাকলে শেখেন অনেক কিছু। সব খুলে না বললেও আক্ষেপ আর অনুযোগের সুর মিশে থাকল তার কথায়। ‘একটা জায়গায় কেউ যখন আসা-যাওয়ার মধ্যে থাকে তখন অনেক কিছু দেখা যায়, শেখা যায়। আমার ক্ষেত্রে হয়তো ওটাই...। দলের বাইরে থেকেও আমি অনেক কিছু শিখি। অনেক কিছু উপলব্ধি করতে পারি। আবার যখন দলে যাই ওই জিনিসটা প্রয়োগ করতে পারি। এটা আমার কাছে আর খারাপ লাগে না।’
এলিট ক্যাম্প বাংলাদেশ দলের ব্যাকআপের জন্য করা হয়েছে। যাতে সরাসরি জাতীয় দলে এখান থেকে খেলোয়াড় নেয়া যায়। এর আগেও এমন হয়েছে এশিয়া কাপ ও গত বিশ্বকাপে হঠাৎ দলে ঢুকে গেছেন। এবার বিশ্বকাপ স্কোয়াডের জন্য কতটা প্রস্তুত। এমন প্রশ্নে ইমরুল বলেন, ‘প্রথমে বলি, দলের কেউ যাতে ইনজুরিতে না পড়ে। সবাই দেশের জন্যই সেখানে যাবে। সবার চোখেই স্বপ্ন থাকে দেশের প্রতিনিধিত্ব করার। নিজে কিছু অবদান রাখার জন্যই সেখানে যায়। তারপরও অনাকাক্সিক্ষত কিছু হলে সেখানে যাওয়ার জন্য এরকম ক্যাম্প থাকলে অন্তত নিজেকে প্রস্তুত রাখা যায়। কোনো সময় ডাক পড়লে যাতে ওই জায়গাটা হ্যান্ডল করা সহজ হয়। না হলে হুট করে গিয়ে খেলাটা কঠিন। আন্তর্জাতিক ম্যাচের ফিটনেস ও ঘরোয়া ক্রিকেটের ফিটনেস দুইটা দুই রকম।’

 

 

তিনি আরো বলেন, ‘আমরা ক্যাম্পটা খুব সিরিয়াসলি করছি, কারণ বলা যায় না, এখান থেকে খেলোয়াড় দরকার হলেও হতে পারে। এখানে প্রাকটিসে আছি স্কিল নিয়ে। যদি সুযোগ আসে যেকোনো কন্ডিশনে যেকোনো পরিস্থিতিতে খেলার জন্য আমি প্রস্তুত। সমস্যা নেই। এরকম একটা সুযোগ করে দেয়ার জন্য বিসিবিকে ধন্যবাদ জানাই। যারা বাসায় বসেছিলাম প্রিমিয়ার লিগের পর কাজ ছিল না, তাদের জন্য অনেক ভালো, ক্যারিয়ারের জন্যও ভালো।’

 


আরো সংবাদ

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে সরকার ব্যর্থ : মির্জা ফখরুল টঙ্গীতে দুই মাদক কারবারি আটক নারী নির্যাতন আইনের অপব্যবহারে হয়রানির শিকার হচ্ছে পুরুষরা আগরতলা বিমানবন্দরের জন্য জমি দিলে সাবভৌমত্ব বিপন্ন হবে : ইসলামী ঐক্যজোট পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বক্তব্যে জাতি হতাশ ও বিস্মিত সুশীল ফোরাম পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বক্তব্যে জাতি হতাশ ও বিস্মিত সুশীল ফোরাম ডেমরায় ডেঙ্গু প্রতিরোধে শিল্প কলকারখানায় সচেতনতামূলক অভিযান ভারতীয় দূতাবাস ঘেরাও করবে খেলাফত আন্দোলন দেশ বাঁচাও সংগ্রামের বিকল্প নেই গোপালগঞ্জ জেলা সমিতির উদ্যোগে ‘বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ’ শীর্ষক আলোচনা সভা কাশ্মির ইস্যু ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয় নয় : মুসলিম লীগ

সকল

ভারতের হামলার মুখে কতটুকু প্রস্তুত পাকিস্তান? (২৭৭২২)জামালপুরের ডিসির নারী কেলেঙ্কারির ভিডিও ভাইরাল, ডিসির অস্বীকার (২৭৪২৮)কিশোরীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক নিয়ে মুখ খুললেন নোবেল (১৯৩২৬)‘কাশ্মিরি গাজা’য় নজিরবিহীন প্রতিরোধ (১৯০১৯)ভারত কেন আগে পরমাণু হামলা চালাতে চায়? (১৮৭০০)সেনাবাহিনীর গাড়িতে গুলি, পাল্টা গুলিতে সন্ত্রাসী নিহত (১৮৩৫৪)কাশ্মির সীমান্তে পাক বাহিনীর গুলিতে ভারতীয় সেনা নিহত (১৩৭৫২)দাম্পত্য জীবনে কোনো কলহ না হওয়ায় স্বামীকে তালাক দিতে চান স্ত্রী (১২৫৫৯)প্রিয়াঙ্কাকে সরাতে পাকিস্তানের চিঠির জবাব দিয়েছে জাতিসংঘ (৮৩৮৪)রোহিঙ্গা ইস্যুতে মিয়ানমারকে যে বার্তা দিল চীন (৭৭২৬)



mp3 indir bedava internet