১৬ নভেম্বর ২০১৮

নন্দীগ্রামে বিএনপি-জামায়াতের ৬৮ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা

-

বগুড়ার নন্দীগ্রামে বিশেষ ক্ষমতা আইনে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জামায়াত নেতা নূরুর ইসলাম মন্ডলসহ বিএনপি-জামায়াতের ৩৩ জন নেতাকর্মীর নাম উল্লেখ্যসহ অজ্ঞাতনামা ৩০-৩৫ জনকে আসামী করে বিস্ফোরণ দ্রব্য আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। নন্দীগ্রাম থানার এসআই চাঁন মিয়া বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেছেন। তবে কেউ গ্রেফতার হননি।
নন্দীগ্রাম থানা পুলিশ জানায়, গত রোববার রাত সোয়া ১০ টায় দূর্বৃত্তরা মোটর সাইকেলে এসে উপজেলা আওয়ামীলীগ অফিস লক্ষ্য করে ও বাসষ্ট্যান্ড এলাকায় ১০টি ককটেল নিক্ষেপ করলে ২টি ককটেল বিকট শব্দে বিস্ফোরিত হয়। তবে ৮টি ককটেল অবিষ্ফোরিত রয়েছে। এতে কেউ আহত হননি। এসময় সেখানে আতংক সৃষ্টি হয়।
নন্দীগ্রাম থানার ওসি নাসির উদ্দিন জানান, ঘটনার রাতেই ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনায় থানায় ৩৩ জনের নাম উল্লেখ্যসহ অজ্ঞাতনামা ৩০-৩৫ জনকে আসামী করে ১৯৭৪ সালর বিশেষ ক্ষমতা আইনে ও বিস্ফোরক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। আওয়ামী লীগের অফিসের সামনে থেকে ৫ টি ও বাসষ্ট্যান্ড এলাকায় ঘটনাস্থল থেকে ৩ টি অবিস্ফোরিত ককটেল উদ্ধার করা হয়েছে। তবে কেউ গ্রেফতার হয়নি। আসামীর মধ্যে রয়েছেন নন্দীগ্রাম উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জামাযাত নেতা নূরুল ইসলাম মন্ডল, বিএনপি নেতা আলেকজান্ডার সহ বিএনপি ও জামায়াতের স্থানীয় নেতাকমর্রিা। ওসি জানান, তদন্তের স্বার্থে আসামীদের নাম বলা যাবে না।


আরো সংবাদ