২৫ মার্চ ২০১৯

তফসিল ঘোষণা করা হয়েছে সরকারের ইচ্ছায় : মির্জা ফখরুল 

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর - সংগৃহীত

একতরফা নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য নির্বাচন কমিশন তফসিল ঘোষণা করেছে। এখানে সরকারের ইচ্ছার প্রতিফলন ঘটেছে, এখানে জনগণের আশা আকাঙ্ক্ষার প্রতিফলন ঘটেনি। বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এই মন্তব্য করেছেন। 

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বিএনপির গুলশান কার্যালয়ে ২০ দলীয় জোটের এক বৈঠক শেষে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এ মন্তব্য করেন। বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির (এলডিপি) সভাপতি অলি আহমদ।

মির্জা ফখরুল ইসলাম বলেন, তফসিল ঘোষণা না করার জন্য নির্বাচন কমিশনের কাছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের পক্ষ থেকে অনুরোধ করা হয়েছিল। কিন্তু তারা পিছিয়ে দেয়নি। তিনি বলেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটি, ২০ দল ও জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের বৈঠক আছে, বৈঠক শেষে এ বিষয়ে পরবর্তীতে প্রতিক্রিয়া জানানো হবে।

বৈঠকে বাংলাদেশ জাতীয় দল, পিপলস পার্টি অব বাংলাদেশ (পিপিবি) ও বাংলাদেশ মাইনরিটি জনতা পার্টি ২০ দলীয় জোটে আনুষ্ঠানিকভাবে যোগ দেয়।

বৈঠকের সভাপতি অলি আহমদ বলেন, খালেদা জিয়া অসুস্থ, তারপরও তাকে কারাগারে নেওয়া হয়েছে। সরকার আদালতের আদেশ অমান্য করে খালেদা জিয়াকে কারাগারে নিয়ে গেছে। ২০ দলীয় জোট খালেদা জিয়ার মুক্তি চায়।

২০ দলীয় জোটের সমন্বয়ক ও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খানসহ জোটের নেতারা এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

নির্বাচন কমিশনকে চিঠি দিয়ে ও বৈঠক করে তফসিল পেছানোর দাবি জানিয়েছিল জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। কিন্তু বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় প্রধান নির্বাচন কমিশনার জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণে তফসিল ঘোষণার পর ঐক্যফ্রন্ট একে এক পাক্ষিক বলে মনে করছে। মনোনয়নপত্র দাখিলের সময় বাড়ানোর দাবি করতে পারে এই জোট।

আগামী ২৩ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। সিইসির তার ঘোষণায় জানান, তফসিল অনুযায়ী প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ তারিখ ১৯ নভেম্বর, বাছাইয়ের তারিখ ২২ নভেম্বর ও প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ২৯ নভেম্বর।

গত ৬ নভেম্বর মঙ্গলবার ঐক্যফ্রন্টের জনসভা থেকে বলা হয়েছিল, তফসিল ঘোষণা না পেছালে তারা নির্বাচন কমিশন অভিমুখে পদযাত্রা করবে। এ তফসিল ঘোষণার পরে সে পদযাত্রা নিয়ে জানতে চাইলে ঐক্যফ্রন্টের এক নেতা জানান, সময় কম। এ কর্মসূচি করতে হলে দ্রুতই করতে হবে। আগামীকাল ৯ নভেম্বর শুক্রবার রাজশাহীর সমাবেশ শেষে আগামী সপ্তাহের শুরুর দিকেই এ পদযাত্রা হতে পারে। তবে তফসিল ও অন্যান্য বিষয়ে ঐক্যফ্রন্টের পরবর্তী করণীয় সম্পর্কে রাজশাহীর সমাবেশ থেকে ঘোষণা দেওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

ঐক্যফ্রন্টের শরিক দল গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা মহসিন মন্টু প্রথম আলোকে বলেন, এটা অনাকাঙ্ক্ষিত। সবার সঙ্গে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নিলে ভালো হতো।


আরো সংবাদ

iptv al Epoksi boya epoksi zemin kaplama Daftar Situs Agen Judi Bola Net Online Terpercaya Resmi

Hacklink

Canlı Radyo Dinle hd film izle instagram takipçi satın al ofis taşıma Instagram Web Viewer

canli radyo dinle

Yabanci Dil Seslendirme

instagram takipçi satın al