Naya Diganta
৫ থানা সম্মেলনের কোনোটাতেই আ’লীগের কেন্দ্রীয় নেতা আসেনি

কাউন্সিলে ভোট দেয়ার সুযোগ ছিল না ডেলিগেটদের

৫ থানা সম্মেলনের কোনোটাতেই আ’লীগের কেন্দ্রীয় নেতা আসেনি

কেন্দ্রের নির্দেশনা মোতাবেক নারায়ণগঞ্জের বিভিন্ন উপজেলা, থানা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে অনুষ্ঠিত হচ্ছে আওয়ামী লীগের সম্মেলন। জেলার সাত থানার সিদ্ধিরগঞ্জ থানা এবং সোনারগাঁও উপজেলা ছাড়া বাকি সব ক’টিতে সম্মেলন শেষ করেছে দলটি। এবারের সম্মেলনে আগে থেকেই কমিটি তৈরি করে রাখে দলটি। ফলে নেতা নির্বাচন করতে কোনো ভোট দিতে হয়নি ডেলিগেটদের। তবে কোনো সম্মেলনেই উপস্থিত হননি কেন্দ্রীয় কোনো নেতা। বরং স্থানীয় নেতৃবৃন্দই অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।
জানা যায়, নেতাকর্মীদের বহু আলোচনা-সমালোচনার মুখে থানা পর্যায়ে নতুন কমিটি করার উদ্যোগ নেয় নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র নেতৃবৃন্দ। সেই লক্ষ্যে গত ১৩ জুলাই ২নং রেলগেট আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে জেলা আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত হয়। পাশাপাশি আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক জেলা, মহানগর, উপজেলা, থানা, পৌর, ইউনিয়ন ও ওয়ার্ডের মেয়াদোত্তীর্ণ সব কমিটির সম্মেলন ১০ ডিসেম্বরের মধ্যে সম্পন্ন করার জন্য নির্দেশ দেন দলটির সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।
গত ৭ ডিসেম্বর নাসিম ওসমান মেমোরিয়াল পার্কে (নম পার্ক) অনুষ্ঠিত হয় ফতুল্লা থানা আওয়ামী লীগের সম্মেলন। আর এই সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত হওয়ার কথা থাকলেও শেষ পর্যন্ত উপস্থিত হননি আওয়ামী লীগের ঢাকা বিভাগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল। এ সম্মেলনে ফতুল্লা থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি হয়েছেন এম সাইফউল্লাহ বাদল ও সাধারণ সম্পাদক হয়েছেন শওকত আলী। অতিথি হিসেবে নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান, নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ স্থানীয় নেতারা উপস্থিত ছিলেন।
গত ৫ ডিসেম্বর নারায়ণগঞ্জ সদর থানা আওয়ামী লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। এ সম্মেলনের মাধ্যমে নারায়ণগঞ্জ সদর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি হয়েছেন নাজির মাদবর এবং সাধারণ সম্পাদক হয়েছেন আল মামুন। এখানেও আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতারা অনুপস্থিত ছিলেন। সেখানেও অতিথি হিসেবে নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান ও স্থানীয় নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
একইভাবে গত ২৬ নভেম্বর নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। আর এই সম্মেলনে বন্দর উপজেলা আওয়ামী লীগের নতুন সভাপতি হয়েছেন এম এ রশিদ। সাধারণ সম্পাদক হয়েছেন মহানগর শ্রমিক লীগের সভাপতি কাজিম উদ্দিন প্রধান। এ সম্মেলনেও উপস্থিত ছিলেন না আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কোনো নেতা। সম্মেলনে প্রধান অতিথি ছিলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল হাই।
এ দিকে রূপগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। গত ১৬ জুলাই সম্মেলনের মাধ্যমে রূপগঞ্জ থানা কমিটিতে সভাপতি পদে বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী ও সাধারণ সম্পাদক পদে শাহজাহান ভূঁইয়া রয়েছেন। সেখানেও আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতাদের দেখা যায়নি।
অন্য দিকে গত ২২ জুলাই আড়াইহাজার থানা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে সভাপতি হিসেবে নারায়ণগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য নজরুল ইসলাম বাবু নির্বাচিত হয়েছেন। তবে সাধারণ সম্পাদকের নাম ঘোষণা করা হয়নি। এই সম্মেলনে উপস্থিত হয়েছিলেন নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ডা: সেলিনা হায়াৎ আইভী। কিন্তু এখানেও আওয়ামী কেন্দ্রীয় নেতারা অনুপস্থিত ছিলেন।