Naya Diganta

অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে ‘বিগ ফোরই’ ফেভারিট

টেনিসের বিগ ফোর

নতুন বছরের প্রথম গ্র্যান্ড স্ল্যাম অস্ট্রেলিয়ান ওপেন টেনিসে ‘বিগ ফোরই’ ফেভারিট বলে মনে করেন নাম্বার ওয়ান খেলোয়াড় সার্বিয়ার নোভাক জকোভিচ। ‘বিগ ফোর’ বলতে জকোভিচ বুঝিয়েছেন, রজার ফেদেরার-রাফায়েল নাদাল-অ্যান্ডি মারে ও নিজেকে। এই চারজনেরই আসন্ন অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের শিরোপা জয়ের সম্ভাবনা রয়েছে বলে মনে করছেন জকোভিচ।

তিনি বলেন, ‘আমার মনে হয়, যদি আমরা সুস্থ থাকি এবং ভালো খেলতে পারি তবে গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ের ভালো সুযোগ থাকবে আমাদের।’

চলতি বছর যেকোন টুর্নামেন্টে ফেভারিট জকোভিচ। গত বছর ইনজুরি থেকে ফিরেই বছরের শেষ দুই গ্র্যান্ড স্ল্যাম উইম্বলডন ও ইউএস ওপেন জয় করেন তিনি। দুই গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ে ২২ নম্বর স্থান থেকে শীর্ষে উঠে আসেন জকোভিচ। বিশ্বের সবচেয়ে বেশি বয়সী খেলোয়াড় হিসেবে শীর্ষে থেকে বছর শেষ করেন তিনি।

ফেদেরার ছাড়াও জকোভিচের অন্য দুই প্রতিন্দ্বন্দি নাদাল ও মারে এখনও ফিটনেস ফিরে পেতে লড়াই করছেন। তাই ক্যারিয়ারের ১৪তম গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ের ভালো সুযোগ আছে জকোভিচের।

আর একটি গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিততে পারলেই ১৫টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ী আমেরিকার পিট সাম্প্রাসের রেকর্ড স্পর্শ করবেন জকোভিচ। জকোভিচের রয়েছে ১৪টি। তখন গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ে এক কাতারে থাকবেন সাম্প্রাস-জকোভিচ। তাদের উপরে রয়েছেন ফেদেরার ও নাদাল। ফেদেরার ২০টি ও নাদাল ১৭টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিতেছেন।

২০১০ থেকে এখন পর্যন্ত ৩২টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয় করেছেন ‘বিগ ফোর’। এরমধ্যে সবচেয়ে বেশি শিরোপা জিতেছেন জকোভিচ, ১৩টি। তবে ‘বিগ ফোরের’ হুমকি হিসেবে টেনিস অঙ্গনে নতুন প্রজন্মের আর্বিভাব হয়েছে বলেও জানান জকোভিচ। বিশ্বের চার নম্বর খেলোয়াড় জার্মানির অ্যালেক্সজান্ডার জেভরেভ, ১২ নম্বর খেলোয়াড় ক্রোয়েশিয়ার বর্না কোরিচ এবং ১৫ নম্বর খেলোয়াড় গ্রীসের টিসিটটিপাস ‘বিগ ফোরের’ জন্য হুমকি।

জকোভিচ বলেন, ‘সর্বশেষ গ্র্যান্ড স্ল্যামে নতুনদের পারফরমেন্স আমরা দেখেছি। তারা ভবিষ্যতে আরো ভালো করবে।’